বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > পঞ্চম-ষষ্ঠ দফায় বিজেপির প্রার্থী কারা? বুধবার আলোচনায় কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিট
পঞ্চম-ষষ্ঠ দফায় বিজেপির প্রার্থী কারা? বুধবার আলোচনায় কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিটি। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
পঞ্চম-ষষ্ঠ দফায় বিজেপির প্রার্থী কারা? বুধবার আলোচনায় কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিটি। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

পঞ্চম-ষষ্ঠ দফায় বিজেপির প্রার্থী কারা? বুধবার আলোচনায় কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিট

 সেই বৈঠকের আগে মঙ্গলবার রাতে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বাংলার গেরুয়া ব্রিগেডের শীর্ষে নেতাদের জরুরি ভিত্তিতে দিল্লিতে ডেকে পাঠিয়েছেন অমিত শাহ।

প্রার্থী নিয়ে বঙ্গ বিজেপির অন্দরে অস্বস্তির মাত্রা ক্রমশ বাড়ছে। তারইমধ্যে পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভার পঞ্চম এবং ষষ্ঠ দফার প্রার্থীদের নাম চূড়ান্ত করতে আগামিকাল (বুধবার) দিল্লিতে বৈঠকে বসছে বিজেপির কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিটি।

সেই বৈঠকের আগে মঙ্গলবার রাতে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বাংলার গেরুয়া ব্রিগেডের শীর্ষে নেতাদের জরুরি ভিত্তিতে দিল্লিতে ডেকে পাঠিয়েছেন অমিত শাহ। যিনি ইতিমধ্যে রবিবার এবং সোমবার বাংলায় প্রচার সেরে গিয়েছেন। পরে সোমবার শেষ মুহূর্তে সূচি পরিবর্তন করে গুয়াহাটি থেকে দিল্লি যাওয়ার পরিবর্তে কলকাতায় চলে আসেন। রাতভর বঙ্গ বিজেপি নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেন। ছিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নড্ডা। সকাল সাড়ে ন'টা নাগাদ দিল্লির উদ্দেশে রওনা দেন। বিজেপি সূত্রে খবর, কলকাতায় শাহের বৈঠকে মূলত প্রার্থী তালিকা নিয়ে যে ক্ষোভ তৈরি হয়েছে, তা সামাল দেওয়ার কৌশল নিয়ে একপ্রস্থ আলোচনা হয়েছে। প্রার্থী প্রত্যাশীদের ‘প্রত্যাশা’ যাতে প্রার্থী তালিকা ঘোষণার পর ক্ষোভে পরিণত না হয়, সেজন্য পরামর্শও দিয়েছেন শাহ। সেইমতো মঙ্গলবার ক্ষুব্ধ বিজেপি কর্মী-সমর্থকদের আলোচনা করেন বিজেপি নেতারা। 

সেই ক্ষোভে লাগাম টানার কাজ চালানোর পাশাপাশি পরের পঞ্চম এবং ষষ্ঠ দফার প্রার্থীদের নামও চূড়ান্ত করে ফেলতে চাইছে বিজেপি। যে দু'দফায় মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষদিন যথাক্রমে আগামী ৩০ মার্চ এবং ৩ এপ্রিল। পাশাপাশি তৃতীয় এবং চতুর্থ দফার কয়েকটি আসনে এখনও প্রার্থী দিয়ে উঠতে পারেনি গেরুয়া শিবির। তাও আগামিকালের বৈঠকে আলোচনা হতে পারে। একইসঙ্গে গত রবিবার তৃতীয় এবং চতুর্থ দফার প্রার্থী তালিকা ঘোষণার পর বিজেপিকে যে অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছে, সে বিষয়টিও আলোচনার টেবিলে উঠে আসতে পারে বলে ধারণা রাজনৈতিক মহলের।

বন্ধ করুন