বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর কাছে হারতে পারেন মমতা! ‌দাবি বুথ ফেরত সমীক্ষায়
নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর কাছে হারতে পারেন মমতা! ‌দাবি বুথ ফেরত সমীক্ষায়। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর কাছে হারতে পারেন মমতা! ‌দাবি বুথ ফেরত সমীক্ষায়। (ছবি সৌজন্য এএনআই)

নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর কাছে হারতে পারেন মমতা! ‌দাবি বুথ ফেরত সমীক্ষায়

  • ভোট অষ্টমীতে দাঁড়ি পড়তেই, তা নিয়ে একের পর এক বুথ ফেরত সমীক্ষা সামনে আসতে শুরু করেছে। রাজ্যে অষ্টম দফার ভোট মিটতে না—মিটতেই শুরু হয়ে গিয়েছে ২’‌মের কাউন্টডাউন। তবে অধিকাংশ বুথ ফেরত সমীক্ষায় পরিবর্তন নয়, তৃণমূলকেই বাংলার মসনদে বসার অনুমান করা হয়েছে।

কার দখলে যাবে নীলবাড়ি?‌ ভোট অষ্টমীতে দাঁড়ি পড়তেই, তা নিয়ে একের পর এক বুথ ফেরত সমীক্ষা সামনে আসতে শুরু করেছে। রাজ্যে অষ্টম দফার ভোট মিটতে না—মিটতেই শুরু হয়ে গিয়েছে ২’‌মের কাউন্টডাউন। তবে অধিকাংশ বুথ ফেরত সমীক্ষায় পরিবর্তন নয়, তৃতীয় বারের জন্য তৃণমূলকেই বাংলার মসনদে বসার অনুমান করা হয়েছে। আবার যে বুথ ফেরত সমীক্ষাগুলো বিজেপির দিকে ঝুঁকেছে, সেগুলো যাতে মিলে যায়, এখন সেটাই চাইছে গেরুয়া শিবির। সেই মতো ইন্ডিয়া টিভি’‌র পিপলস প্লাসের তরফ থেকে করা বুথ ফেরত সমীক্ষায়, বিজেপির পক্ষে যে সংখ্যা তত্ত্ব দেখানো হয়েছে, তা যাতে অক্ষরে অক্ষরে মিলে যায়, এখন সেটাই চাইছে তাঁরা।

কারণ, ইন্ডিয়া টিভি’‌র এই বুথ ফেরত সমীক্ষায় শুধু বিজেপির আসন সংখ্যাই বাড়তে দেখানো হয়নি উপরন্ত তাতে এ—ও দাবি করা হয়েছে যে, নন্দিগ্রামেও শুভেন্দুর কাছে পরাজিত হতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়!‌

এবার নন্দীগ্রামই ছিল সব চেয়ে ‘‌হাইভোল্টেজ’‌ আসন। কারণ, এই আসন থেকে খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন একদা তাঁরই দলের প্রাক্তন সৈনিক শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে। এক সময়ের তাঁর ডান হাত বলে পরিচিত শুভেন্দু গত বছর ডিসেম্বরে বিজেপিতে যোগ দেন। এবারে তৃণমূলের প্রার্থী ঘোষণার দিনই ভবানীপুরের আসন ছেড়ে নন্দিগ্রামে লড়ার সিদ্ধান্ত নেন মমতা। ওদিকে শুভেন্দু অধিকারী দাবি করেছিলেন যে, তিনি এই আসন থেকে মমতা বন্দোপাধ্যায়কে কমপক্ষে ৫০ হাজারেরও বেশি ভোটের ব্যাবধানে পরাজিত করবেন। শুভেন্দুর সেই দাবি আর ইন্ডিয়া টিভি’‌র এই বুথ ফেরত সমীক্ষা কতটা মেলে, তা ২ মে’‌র ভোট গণনার পরই স্পষ্ট হবে।

ইন্ডিয়া টিভি’‌র পিপলস প্লাসের এই বুথ ফেরত সমীক্ষায় বলা হয়েছে, বিজেপি ১৭৩ থেকে ১৯২ আসন পেতে পারে। আবার তৃণমূল পেতে পারে মাত্র ৬৬ থেকে ৮৮টি আসন। আবার কংগ্রেস ৭ থেকে ১২টি আসন পাওয়ার সম্ভাবনার কথাও বলা হয়েছে।

টাইমস নাওয়ের সমীক্ষায় তৃণমূলের জয়ের ইঙ্গিত। টাইমস নাও-সি ভোটারের সমীক্ষায় তৃণমূল পেতে পারে ১৫৮টি আসন, বিজেপি পেতে পারে ১১৫টি আসন, জোট পেতে পারে ১৯টি আসন।

ইন্ডিয়া টুডে বুথ ফেরত সমীক্ষায় তৃণমূল পেতে পারে ১৩—১৫৬টি আসন, বিজেপি পেতে পারে ১৩৪—১৬০টি আসন আর বাম পেতে ০—২টি আসন ও অন্যান্যরা ০—১টি আসন।

এবিপি-সিএনএক্সের বুথ ফেরত সমীক্ষায় ইঙ্গিত রাজ্যে ১৫৭ থেকে ১৮৫ আসন নিয়ে সরকার গড়তে চলেছে তৃণমূল, বিজেপি পেতে পারে ৯৬-১২৫টি আসন, জোট পেতে পারে ৮ থেকে ১৬ আসন।

এবিপি-সি ভোটার বুথফেরত সমীক্ষায় ২৯২ টি বিধানসভা কেন্দ্রের ৮৫,০০০ জনের সঙ্গে কথা বলে সমীক্ষা চালানো হয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেস পেতে ১৫২-১৬৪ টি আসন। বিজেপির ঝুলিতে যেতে পারে ১০৯-১২১ টি আসন। সংযুক্ত মোর্চা পেতে পারে ১৪-২৫ টি আসন।

রিপাবলিকের বুথ ফেরত সমীক্ষাতে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের ইঙ্গিত।রিপাবলিকের বুথ ফেরত সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, তৃণমূল পেতে পারে ১২৮-১৪৮টি আসন। বিজেপি পেতে পারে ১৩৮-১৪৮টি আসন। অন্যান্যরা পেতে পারে ৬টি থেকে ৯টি আসন।

 

বন্ধ করুন