বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ‘আদর্শ আচরণবিধি ভঙ্গ’ শুভেন্দুর, সতর্ক করেই ছেড়ে দিল কমিশন
শুভেন্দু অধিকারী। (ফাইল ছবি, সৌজন্য এএনআই)
শুভেন্দু অধিকারী। (ফাইল ছবি, সৌজন্য এএনআই)

‘আদর্শ আচরণবিধি ভঙ্গ’ শুভেন্দুর, সতর্ক করেই ছেড়ে দিল কমিশন

  • কমিশনের নির্দেশ, কোনওরকম ব্যক্তিগত আক্রমণ বা উস্কানিমূলক করা থেকে তিনি যেন বিরত থাকেন।

এবার বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে সতর্ক করল নির্বাচন কমিশন।নির্বাচন কমিশনের তরফে এদিন স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, কোনওরকম ব্যক্তিগত আক্রমণ বা উস্কানিমূলক করা থেকে তিনি যেন বিরত থাকেন। সেইসঙ্গে জানানো হয়েছে, ‘আদর্শ আচরণবিধি ভঙ্গ’ করেছেন শুভেন্দু।

গত ৮ এপ্রিল নির্বাচনী বিধিভঙ্গের অভিযোগে নন্দীগ্রামের বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীকে নোটিশ পাঠায় নির্বাচন কমিশন। কমিশনের পাঠানো নোটিশে জবাবও দেন শুভেন্দু। শুভেন্দু তাঁর লেখা চিঠিতে জানিয়েছেন, তিনি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন প্রক্রিয়ায় বিশ্বাসী। কাউকে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করার অভিপ্রায় তাঁর নেই। তাঁর কোনও মন্তব্যে কেউ কোনও আঘাত পান সেটা তিনি চান না। একইসঙ্গে ভোট নেওয়ার জন্য সাম্প্রদায়িকতা আশ্রয় তিনি নেননি।তিনি ও তাঁর দল গণতন্ত্র ও নির্বাচন কমিশনের মতো গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানের উপর শ্রদ্ধাশীল। চিঠিতে শুভেন্দু দাবি করেছেন, তিনি কোনও নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেননি। কিন্তু শুভেন্দুর সেই চিঠি সন্তুষ্ট করতে পারেনি নির্বাচন কমিশনকে। কমিশন জানিয়েছে, শুভেন্দু নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেছেন। ভবিষ্যতে যেন তিনি বিতর্কিত মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকেন।

গত ৮ এপ্রিল নির্বাচনী বিধিভঙ্গের অভিযোগে নন্দীগ্রামের বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীকে নোটিশ পাঠায় নির্বাচন কমিশন। কমিশনের পাঠানো নোটিশে জবাবও দেন শুভেন্দু। শুভেন্দু তাঁর লেখা চিঠিতে জানিয়েছেন, তিনি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন প্রক্রিয়ায় বিশ্বাসী। কাউকে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করার অভিপ্রায় তাঁর নেই। তাঁর কোনও মন্তব্যে কেউ কোনও আঘাত পান সেটা তিনি চান না। একইসঙ্গে ভোট নেওয়ার জন্য সাম্প্রদায়িকতা আশ্রয় তিনি নেননি।তিনি ও তাঁর দল গণতন্ত্র ও নির্বাচন কমিশনের মতো গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানের উপর শ্রদ্ধাশীল। চিঠিতে শুভেন্দু দাবি করেছেন, তিনি কোনও নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেননি। কিন্তু শুভেন্দুর সেই চিঠি সন্তুষ্ট করতে পারেনি নির্বাচন কমিশনকে। কমিশন জানিয়েছে, শুভেন্দু নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেছেন। ভবিষ্যতে যেন তিনি বিতর্কিত মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকেন।|#+|

উল্লেখ্য, নন্দীগ্রামে প্রচারের সময়ে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বেগম বলে সম্মোধন করেছিলেন শুভেন্দু। শুভেন্দুর এই ধরনের মন্তব্য নিয়েই বিতর্কের ঝড় ওঠে। অনেকেই প্রশ্ন তোলেন, ভোট নিজের দিকে টানার জন্য সাম্প্রদায়িক তাস খেলেছেন শুভেন্দু। ইতিমধ্যে দিলীপ ঘোষের শীতলকুচি কাণ্ডে মন্তব্য নিয়ে জবাব চেয়েছে কমিশন।

বন্ধ করুন