বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ভোটার কার্ড নেই? চিন্তা করবেন না, অনায়াসে দিতে পারবেন ভোট, কীভাবে জেনে নিন
আজ (সোমবার) পশ্চিমবঙ্গে চলছে সপ্তম দফার ভোটগ্রহণ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
আজ (সোমবার) পশ্চিমবঙ্গে চলছে সপ্তম দফার ভোটগ্রহণ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)

ভোটার কার্ড নেই? চিন্তা করবেন না, অনায়াসে দিতে পারবেন ভোট, কীভাবে জেনে নিন

  • ভোটার কার্ড ছাড়াও ভোট দেওয়া যাবে।

আজ (সোমবার) পশ্চিমবঙ্গে চলছে সপ্তম দফার ভোটগ্রহণ। পাঁচ জেলার (দক্ষিণ দিনাজপুর, মালদহ, মুর্শিদাবাদ, কলকাতা এবং পশ্চিম বর্ধমান) ৩৪ টি ভোট চলছে। সেই দফায় ভোটাধিকার প্রয়োগের জন্য অবশ্যই সচিত্র ভোটার কার্ডের প্রয়োজন হবে। তবে ভোটার কার্ড ছাড়াও ভোট দেওয়া যাবে। 

কীভাবে জেনে নিন?

ভোটার কার্ড ছাড়াও অন্যান্য সচিত্র পরিচয়পত্র দেখিয়ে ভোট দেওয়া যাবে। কী কী নথি দেখিয়ে ভোট দিতে পারবেন, দেখে নিন -

১) আধার কার্ড।

২) ১০০ দিনের জব কার্ড (মনরেগা জব কার্ড)।

৩) ব্যাঙ্ক বা পোস্ট অফিসের পাসবুক। তাতে ভোটারের ছবি থাকতে হবে।

৪) পাসপোর্ট।

৫) প্যান কার্ড। 

৬) ছবি-সহ পেনশনের নথি।

৭) এনপিআরের আওতায় আরজিও দেওয়া স্মার্টকার্ড।

৮) কেন্দ্রীয় শ্রম মন্ত্রকের প্রকল্পের আওতায় হেলথ ইনসিওরেন্স স্মার্টকার্ড।

৯) কেন্দ্রীয় বা রাজ্য সরকারি বা রাষ্ট্রায়ত্ত বা পাবলিক লিমিটেড কোম্পানির কর্মচারীদের চাকরির পরিচয়পত্র। তাতে ছবি থাকতে হবে।

১০) সাংসদ, বিধায়ক, বিধান পরিষদ সদস্যদের যে সরকারি পরিচয়পত্র দেওয়া হয়, তা দেখিয়েও ভোট দেওয়া যাবে।

ই-এপিক কার্ড :

এছাড়াও ই-এপিক কার্ডের (ডিজিটাল ভোটার কার্ড) মাধ্যমে ভোট দেওয়া যাবে। যা নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইট থেকে ডাউনলোড করতে হবে। 

কীভাবে করবেন ডাউনলোড?

১) নির্বাচন কমিশনের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে (eci.gov.in) যান।

২) স্ক্রিনের ডানদিকে 'Download e-EPIC'-এ ক্লিক করুন।

৩) নয়া পেজ খুলে যাবে। সেখানে 'Download e-EPIC Card'-এ ক্লিক করুন।

৪) আরও একটি নয়া পেজ খুলে যাবে। সেখানে 'e-EPIC Download'-এ ক্লিক করুন।

৫) ‘Username’ এবং ‘Password’ দিয়ে লগ-ইন করুন। যদি না অ্যাকাউন্ট থাকে, তাহলে 'Don't have account, Register as a new user'-এ ক্লিক করুন। তারপর নিজের তথ্য দিয়ে অ্যাকাউন্ট তৈরি করুন। তারপর লগ-ইন করুন।

৬) লগ-ইনের পর নিজের ভোটার কার্ডের নম্বর দিন এবং রাজ্য বেছে নিন।

৭) তারপর ই-এপিক কার্ড ডাউনলোড করতে পারবেন।

তবে কমিশনের তরফে জানানো হয়েছে, যাঁরা গত বছর নভেম্বরে স্পেশাল সামারি রিভিশনের সময় জন্য নতুন করে নথিভুক্ত হয়েছেন (মোবাইল নম্বর থাকবে), তাঁরাই আপাতত ই-এপিক কার্ড ডাউনলোড করতে পারবেন। বাকি ভোটারদের শীঘ্রই সেই পরিষেবা মিলবে বলে জানানো হয়েছে।

বন্ধ করুন