বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > শোভন-বৈশাখী তৃণমূলে ফিরলে কোনও আপত্তি নেই, সাফ জানালেন বিধায়ক রত্না
বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়, শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং রত্না চট্টোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়, শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং রত্না চট্টোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

শোভন-বৈশাখী তৃণমূলে ফিরলে কোনও আপত্তি নেই, সাফ জানালেন বিধায়ক রত্না

বিধায়ক হয়ে কি খোঁচা?

নিজে একাই আসুন বা বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়কে সঙ্গে নিয়েই হোক, শোভন চট্টোপাধ্যায় তৃণমূলে ফিরলে তাঁর কোনও আপত্তি নেই। শপথগ্রহণের পর এই কথাই জানালেন বেহালা পূর্বের বিধায়ক রত্না চট্টোপাধ্যায়। ওয়াকিবহাল মহলের মতে, শপথগ্রহণের পর রত্নার এই মন্তব্য অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

কয়েকদিন আগে তৃণমূলের বিপুল জয়লাভের পর শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় শুভেচ্ছা জানান তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। এই শুভেচ্ছার মধ্যে কি তাঁদের তৃণমূলে ফেরার ইঙ্গিত রয়েছে?‌ এই প্রসঙ্গে নব নির্বাচিত বিধায়ক রত্না চট্টোপাধ্যায়কে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, ‘‌ওরা তো শুধু শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।এতে তো তৃণমূলে ফেরার ব্যাপার নেই।দিদি তাঁদের নেবেন কী নেবেন না, সেটা দলের ব্যাপার। এতে আমার কিছু বলার নেই।’‌ একইসঙ্গে রত্না পুরনো কথা মনে করিয়ে দিয়ে বলেন,‘‌আমি কথনও বলিনি, ওরা থাকলে আমি রাজনীতি করব না বা তৃণমূল করব না। ওরা বলেছেন আমার সঙ্গে একমঞ্চে রাজনীতি করবে না। আমি এখন বিধায়ক। যদি মনে করেন, আমার সঙ্গে একমঞ্চে দাঁড়িয়ে রাজনীতি করবেন, আসবেন। কিন্তু আমায় আর তৃণমূল থেকে তাড়ানোর জায়গা রইল না।’‌

শোভন যদি তৃণমূলে চলে আসেন, তাহলে কি তিনি তাঁর জন্য এই আসন ছেড়ে দেবেন?‌এই প্রশ্নের উত্তরও রত্না স্পষ্টভাষায় দিয়ে দেন। তিনি বলেন,‘‌কী জন্য ছাড়ব?‌কোনও কারণ নেই।ওখানে যদি দিদির জন্য ফের নির্বাচন হয়, তাহলে আমি হাসতে হাসতে ওই আসন ছেড়ে দেব।কিন্তু শোভন–বৈশাখীর জন্য ছাড়ার কোনও প্রশ্নই নেই।’‌

বন্ধ করুন