বাংলা নিউজ > ভোটের লড়াই > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ১৮৪ – ১১০ ফরমুলায় সমঝোতা বাম – কংগ্রেসের, জোটকে কটাক্ষ তৃণমূল - বিজেপির
সোমবার কলকাতা পুলিশ শবাগারের সামনে সুজন চক্রবর্তী ও আবদুল মান্নান।  (PTI)
সোমবার কলকাতা পুলিশ শবাগারের সামনে সুজন চক্রবর্তী ও আবদুল মান্নান।  (PTI)

১৮৪ – ১১০ ফরমুলায় সমঝোতা বাম – কংগ্রেসের, জোটকে কটাক্ষ তৃণমূল - বিজেপির

  • জোটের কাণ্ডারিরা জানিয়েছেন, গোল বেঁধেছে আব্বাস সিদ্দিকিকে নিয়ে। ৭০টি আসন দাবি করে বসেছেন তিনি। সঙ্গে PDS, CPIML-এর মতো দলকেও কিছু আসন ছাড়তে হবে।

 

আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের জন্য মঙ্গলবারই আসন সমঝোতা চূড়ান্ত করেছে বাম – কংগ্রেস। তবে ISF-সহ অন্য কয়েকটি দল জোটে সামিল হতে চাওয়ায় সমঝোতার সমীকরণ ঘোষণা করেনি তারা। সূত্রের খবর, নির্বাচনে ১৮৪টি আসন গিয়েছে বামেদের ভাগে। বাকি ১১০টিতে লড়বে কংগ্রেস। তবে শেষ পর্যন্ত কে কতগুলি আসনে লড়বে তা জানা যাবে বাকি দলগুলির সঙ্গে কথা হওয়ার পরই। 

মঙ্গলবার দুপুরে আলিমুদ্দিন স্ট্রিটে বাম ও কংগ্রেস নেতাদের মধ্যে দীর্ঘ আলোচনা হয়। সেই আলোচনায় চূড়ান্ত হয় রফাসূত্র। তবে আব্বাস সিদ্দির ISF-এর সঙ্গে আলোচনায় চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত না হওয়ায় এদিন আনুষ্ঠানিকভাবে কে কত আসনে লড়বে তা জানায়নি বাম ও কংগ্রেস। তবে অধীর চৌধুরী দাবি করে ভোটে লড়াই হবে ত্রিমুখি। 

জোটের কাণ্ডারিরা জানিয়েছেন, গোল বেঁধেছে আব্বাস সিদ্দিকিকে নিয়ে। ৭০টি আসন দাবি করে বসেছেন তিনি। সঙ্গে PDS, CPIML-এর মতো দলকেও কিছু আসন ছাড়তে হবে। ঠিক হয়েছে কংগ্রেস ১টি আসন ছাড়লে বামেরা ২টি আসন ছাড়বে এই দলগুলির জন্য। তবে ৭০টি আসন যে আব্বাসকে দেওয়া সম্ভব নয় তা বোঝাচ্ছেন জোটের নেতারা। 

ওদিকে বাম – কংগ্রেস জোটকে কটাক্ষ করেছেন তৃণমূল মুখপাত্র সৌগত রায়। তিনি বলেন, ‘বাম – কংগ্রেস একে অপরের হাত ধরে বাঁচার চেষ্টা করছে। এই চেষ্টা সফল হবে না। ক্ষয়িষ্ণু তৃতীয় শক্তি হিসাবেই রয়ে যাবে তারা।’

আব্বাস সিদ্দিকির জোটে অংশগ্রহণের সম্ভাবনাকে কটাক্ষ করে রাজ্য বিজেপির সহ সভাপতি জয়প্রকাশ মজুমদার বলেন, ‘বামেদের ঘোমটা খুলে গিয়েছে। করলের মতো এখানেও মৌলবাদী শক্তির সঙ্গে জোট করছে তারা।’

 

বন্ধ করুন