বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > BJP-র হারের পরদিনই ৫ টাকার ট্রেনের টিকিটের দাম হল ৩০ টাকা! বিভ্রান্তি অ্যাপে
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

BJP-র হারের পরদিনই ৫ টাকার ট্রেনের টিকিটের দাম হল ৩০ টাকা! বিভ্রান্তি অ্যাপে

  • এদিন সকালে Where is my train অ্যাপটি খুললে দেখা যায় ৫ টাকার টিকিটের দাম দেখাচ্ছে ৩০ টাকা। ১৫ টাকার টিকিটের দাম দেখাচ্ছে ৩৫ টাকা।

এক ধাক্কায় লোকাল ট্রেনের টিকিটের দাম বেড়েছে কয়েকগুণ। সোমবার সকালে এমনই গুজব ছড়াল ফেসবুকে। সৌজন্য Where Is My Train নামে একটি অ্যাপ। ভোটে বিজেপির হারের পর দিন ৫ টাকার টিকিটের দাম ৩০ টাকা দেখানোয় সোশ্যাল মিডিয়ায় স্ক্রিনশট পোস্ট করে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন অনেকে। 

এদিন সকালে Where is my train অ্যাপটি খুললে দেখা যায় ৫ টাকার টিকিটের দাম দেখাচ্ছে ৩০ টাকা। ১৫ টাকার টিকিটের দাম দেখাচ্ছে ৩৫ টাকা। এক ধাক্কায় ট্রেনের টিকিটের এই দামবৃদ্ধি দেখে মাথায় বাজ পড়ে অনেকের। অ্যাপের স্ক্রিনশট পোস্ট করে তারা অভিযোগ করতে শুরু করেন কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে। অনেকে দাবি করেন, বাংলায় বিজেপির হারের বদলা নিতে একাজ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। 

বেসরকারি অ্যাপে প্রকাশিত বিভ্রান্তিকর তথ্য।
বেসরকারি অ্যাপে প্রকাশিত বিভ্রান্তিকর তথ্য।

ট্রেনের টিকিটের দাম সত্যিই বেড়েছে কি না জানতে ভারতীয় রেলের টিকিটিং অ্যাপ UTS-এ গিয়ে অবশ্য ভ্রান্তি দূর হয়। দেখা যায় এক পয়সাও দাম বাড়েনি লোকাল ট্রেনের টিকিটের।  ৫ টাকার টিকিটের দাম রয়েছে ৫ টাকাই। অন্যান্য স্তরেও টিকিটের দামে কোনও ফেরবদল হয়নি। 

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, যে অ্যাপের সৌজন্যে বিভ্রান্তি সেটি বহু নিত্যযাত্রী ব্যবহার করেন। কিন্তু অ্যাপটি ভারতীয় রেল বা ভারত সরকারের অন্য কোনও সংস্থার নয়। সেটি একটি বেসরকারি সংস্থার মালিকানাধীন। তারা ভারতীয় রেলের সার্ভার থেকে তথ্য নিয়ে অ্যাপটি পরিচালনা করে। সঙ্গে ব্যবহারকারীর ফোন থেকেও সংগ্রহ করা হয় তথ্য। ফলে সেই অ্যাপে প্রকাশিত তথ্য কখনোই প্রামাণ্য হিসাবে ধরা উচিত নয়। 

 

বন্ধ করুন