বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > সাগর (পশ্চিমবঙ্গ) বিধানসভার ভোটের ফলাফল 2021 LIVE:জয়ী তৃণমূলের বঙ্কিমচন্দ্র হাজর

সাগর বিধানসভা নির্বাচনে ১,২৯,০০০ ভোট পেয়ে জয়ী তৃণমূলের বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা। পরাজিত বিজেপি প্রার্থী বিকাশ কামিলা।

এই বিধানসভা আসনে এবারের তৃণমূলের প্রার্থী হলেন বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা। এই আসনে দাঁড়াচ্ছেন বিজেপি প্রার্থী বিকাশ কামিলা। অন্যদিকে, বাম-কংগ্রেস-ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের (আইএসএফ) তরফে এই কেন্দ্রে দাঁড়াচ্ছেন সিপিএম প্রার্থী শেখ মুকুলেশ্বর রহমান।

প্রেসিডেন্সি বিভাগের অন্তর্ভুক্ত দক্ষিণ ২৪ পরগনা এই রাজ্যের জেলা। জেলার সদর আলিপুরে। গোসাবা এই জেলার একটি বিধানসভা কেন্দ্র। এই জেলার উত্তরদিকে কলকাতা এবং উত্তর ২৪ পরগনা, পূর্ব দিকে বাংলাদেশ, পশ্চিম দিকে হুগলি নদী ও দক্ষিণ দিকে বঙ্গোপসাগর রয়েছে।সাগর এই জেলার একটি বিধানসভা কেন্দ্র। আগামী ১ এপ্রিল সাগরে ভোটগ্রহণ হবে।

২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে এই কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা জয়ী হয়েছিলেন৷ তাঁর প্রাপ্ত ভোট ছিল ১১২,৮১২৷ দ্বিতীয় স্থানে ছিলেন সিপিএম প্রার্থী অসীমকুমার মণ্ডল৷ তাঁর প্রাপ্ত ভোট সংখ্যা ৯৪,৭৪১৷ তৃণমূলের বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা সিপিএম প্রার্থী অসীমকুমার মণ্ডলকে ১৮,০৭১ ভোটে পরাজিত করেছিলেন। ২০১১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেসের বঙ্কিম হাজরা জয়ী হয়েছিলেন। সিপিআইএম প্রার্থী মিলন পারুয়াকে পরাজিত করেছিলেন তিনি।

২০০৬ সালের রাজ্য বিধানসভা নির্বাচনে সিপিআইএমের মিলন পারুয়া সাগর বিধানসভা কেন্দ্র থেকে জয়ী হয়েছিলেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী তৃণমূল কংগ্রেসের বঙ্কিমচন্দ্র হাজরাকে পরাজিত করেছিলেন। ২০০১ সালে তৃণমূল কংগ্রেসের বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা সিপিআইএমের প্রভাঞ্জন মণ্ডলকে পরাজিত করেছিলেন। তার আগে ১৯৯৬ সালে প্রভাঞ্জনবাবু কংগ্রেসের হরিপদ সেনকে এই আসনে পরাজিত করেছিলেন। শুধু তাই নয়, ১৯৯১ সালে কংগ্রেসের অনিলবরণ মৈত্রী, ১৯৮৭ সালে কংগ্রেসের বোমকেশ মাইতি, ১৯৮২ সালে কংগ্রেসের হরিপদ সেন ও ১৯৭৭ সালে জনতা পার্টির গোবর্ধন দঙ্গলকে পরাজিত করেছিলেন।১৯৭২ ও ১৯৭১ সালে এই আসনে জিতেছিলেন প্রভাঞ্জনই। তার আগে ১৯৬৯ সালে বাংলা কংগ্রেসের গোবর্ধন দঙ্গল সাগর আসনে জিতেছিলেন। ১৯৬৭ সালে কংগ্রেসের টি.মিশ্র এই আসনে জয়ী হয়েছিলেন। দেশের প্রথম নির্বাচনে কেএমপিপির হরিপদ বাগুলি সাগর কেন্দ্র থেকে জিতেছিলেন। অবশ্য ১৯৫৭ ও ১৯৬২ সালে এখানে কোনও নির্বাচনী আসন ছিল না।

বন্ধ করুন