বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > বিজেপিতে যোগ দিয়ে কান ধরে উঠবস করলেন তৃণমূলত্যাগী নেতা
বুধবার বিজেপির মঞ্চে কান ধরে উঠবস করছেন সুশান্ত পাল
বুধবার বিজেপির মঞ্চে কান ধরে উঠবস করছেন সুশান্ত পাল

বিজেপিতে যোগ দিয়ে কান ধরে উঠবস করলেন তৃণমূলত্যাগী নেতা

  • এর পর সুশান্তবাবু বলেন, ‘এতদিন ভুল করেছি। তৃণমূলকে জিতিয়ে ঠিক করিনি। তাই কান ধরে উঠবস করে প্রায়শ্চিত্ত করলাম। বিজেপিকে জেতানোর জন্য এবার থেকে প্রাণপাত করবো।’

তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়ে প্রকাশ্য মঞ্চে কান ধরে ওঠবস করলেন এক স্থানীয় নেতা। বুধবার এই দৃশ্য পশ্চিম মেদিনীপুরের পিংলার। সেখানে সুশান্ত পাল নামে এক নেতা এই কাণ্ড ঘটান। প্রাপ্তবয়স্ক এক ব্যক্তির এমন আচরণে হতচকিত হয়ে যান মঞ্চে থাকা অন্যান্যরা। হাসির রোল ওঠে দর্শকাশনে। 

বুধবার পিংলায় ছিল শুভেন্দু অধিকারীর সভা। সভা শেষে যোগদান মেলায় তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন সুশান্ত পাল নামে ওই স্থানীয় নেতা। এক কালে শুভেন্দু অধিকারীর অনুগামী বলে পরিচিত ছিলেন তিনি। এদিন মঞ্চে তাঁর হাতে মাইক্রোফোন তুলে দিতেই তৃণমূলকে আক্রমণ করেন তিনি। কথা বলতে বলতে হঠাৎ কান ধরে উঠবস শুরু করে দেন সুশান্ত। প্রাপ্তবয়স্ক একজন মানুষকে এমন অদ্ভূত আচরণ করতে দেখে কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়েন মঞ্চে থাকা বিজেপি নেতারা। অস্বস্তি এড়াতে অন্য দিকে ঘুরে যান শুভেন্দু। ওদিকে তখন দর্শকাশনে হাসির রোল। 

এর পর সুশান্তবাবু বলেন, ‘এতদিন ভুল করেছি। তৃণমূলকে জিতিয়ে ঠিক করিনি। তাই কান ধরে উঠবস করে প্রায়শ্চিত্ত করলাম। বিজেপিকে জেতানোর জন্য এবার থেকে প্রাণপাত করবো।’

ঘটনার সমালোচনা করেছে তৃণমূল। তৃণমূলের জেলা সম্পাদক অজিত মাইতি বলেন, ‘বিজেপিতে যোগ দিতে গেলে হাতেপায়ে ধরেই দিতে হয়। ওটাই ওদের সংস্কৃতি। সুশান্ত কোনও দিন আমার অনুগামী ছিল না। চার বছর ধরে দলের সঙ্গে তার কোনও যোগাযোগ নেই।’ 

 

বন্ধ করুন