বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > নেত্রী বলেছিলেন ‘হোদল কুৎকুৎ’, চিরঞ্জিত বললেন 'টাকলা'
তৃণমূল বিধায়ক তথা অভিনেতা চিরঞ্জিৎ চক্রবর্তী। ফাইল ছবি
তৃণমূল বিধায়ক তথা অভিনেতা চিরঞ্জিৎ চক্রবর্তী। ফাইল ছবি

নেত্রী বলেছিলেন ‘হোদল কুৎকুৎ’, চিরঞ্জিত বললেন 'টাকলা'

  • চিরঞ্জিৎ বলেন, ‘বউ হারালে বউ পাওয়া যায়, বাংলার চাষির বাড়িতে কলাপাতায় দুটো ভাত খেলে বাংলা পাওয়া যায় না রে টাকলা।’

চলতি ভোটে রাজনৈতিক প্রচারে ভাষার মানের মারাত্মক অবনমন ঘটেছে বলে অভিযোগ করছেন অনেকেই। কুকথার বিরাম নেই ভোটপ্রচারে। আর তাতে বাদ নেই কোনও দলই। সেই দলে নাম লেখালেন বারাসতের বিদায়ী বিধায়ক তথা তৃণমূল প্রার্থী চিরঞ্জিত চক্রবর্তী। নাম না করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে ‘টাকলা’ বলে সম্মোধন করলেন তিনি। 

রবিবার বারাসতে এক জনসভায় নিজের ছায়াছবির জনপ্রিয় সংলাপের অনুকরণে চিরঞ্জিৎ বলেন, ‘বউ হারালে বউ পাওয়া যায়, বাংলার চাষির বাড়িতে কলাপাতায় দুটো ভাত খেলে বাংলা পাওয়া যায় না রে টাকলা।’

এদিন চিরঞ্জিত দাবি করেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় হলেন এমন নেত্রী বা রাজা যাঁকে সারা পৃথিবী চেনে। ওর এলাকায় অশ্বমেধের ঘোড়া পাঠিয়েছে বিজেপি। এই যুদ্ধে ওরা যদি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পরাজিত করতে পারে তাহলে গোটা দেশটা ওদের হয়ে যাবে।’ সঙ্গে চিরঞ্জিতের হুঁশিয়ারি, বাংলার মাটিতেই বিজেপির অশ্বমেধের ঘোড়াকে কবর দেবো। 

এর আগে কখনও ভোটপ্রচারের মঞ্চ থেকে প্রধানমন্ত্রীকে নাম না করে তুই তোকারি করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কখনো মমতাকে বারমুডা পরার পরামর্শ দিয়েছেন দিলীপ ঘোষ। এর আগে অমিত শাহকে নাম না করে হোদল কুৎকুৎ বলেছিলেন মমতা। এবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে আপত্তিকর আক্রমণ করলেন চিরঞ্জিত।

 

বন্ধ করুন