বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ‘মানুষের জন্য’ রাজ্য পুলিশের সওয়াল তৃণমূলের, বিরোধিতায় সোচ্চার বিজেপি
তৃণমূল প্রতিনিধিদল নির্বাচন কমিশনের সামনে  (PTI)
তৃণমূল প্রতিনিধিদল নির্বাচন কমিশনের সামনে  (PTI)

‘মানুষের জন্য’ রাজ্য পুলিশের সওয়াল তৃণমূলের, বিরোধিতায় সোচ্চার বিজেপি

  • কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথের কাছাকাছি থাকায় মানুষ ভায় পেয়ে যায়। নির্বাচন কমিশনের কাছে এই কথা বলেছেন তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব। যদিও বিজেপি অবশ্য তা মানতে নারাজ।

কেন্দ্রীয় বাহিনী থাক। তার সঙ্গে প্রতি বুথে রাজ্য পুলিশকেও রাখা হোক। দিল্লিতে নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হয়ে এই আর্জি জানাল তৃণমূল কংগ্রেসের প্রতিনিধি দল। কারণ হিসাবে বলা হয়েছে, ভাষাগত সমস্যা থেকে যায়। তাছাড়া কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথের কাছাকাছি থাকায় মানুষ ভায় পেয়ে যায়। নির্বাচন কমিশনের কাছে এই কথা বলেছেন তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব। যদিও বিজেপি অবশ্য তা মানতে নারাজ। তাদের মতে, আসলে ভোট কারচুপি করতেই রাজ্য পুলিশ দিয়ে ভোট করানোর কথা বলছে তৃণমূল কংগ্রেস।

বিধানসভা নির্বাচনে বাংলার প্রতিটি বুথকে স্পর্শকাতর হিসেবে ঘোষণা করেছে কমিশন। তাই প্রতিটি বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়ে ভোট করানো হবে এবং ১০০ মিটারের মধ্যে কোনও রাজ্য পুলিশ থাকবে না বলে কমিশন জানিয়েছে। এই মর্মে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রতিনিধি দল কমিশনের কাছে জানতে চায়, রাজ্যের সব বুথে কি শুধুমাত্র কেন্দ্রীয় বাহিনীই থাকবে? তাতে ভোট পরিচালনায় অসুবিধা হতে পারে। সৌগত রায় বলেন, ‘কেন্দ্রীয় বাহিনীর ভাষা অনেকে না বুঝতে পারে না। সাধারণ মানুষ ভয় পায়। তাই আমরা চাই ভয়মুক্ত পরিবেশে ভোট হোক।’‌

এই বিষয়ে মহুয়া মৈত্র বলেন, ‘সমস্ত অভিযোগ শুনে কমিশন আমাদের আশ্বস্ত করেছে। আর তাঁরা জানিয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনী আমরা নিয়ন্ত্রণ করি না। নির্বাচনে সাহায্যের জন্য আমরা তা ব্যবহার করি। তবে বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হবে।’ পাল্টা রাজ্য বিজেপির মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য বলেন, ‘আমি যতটুকু জানি, যে সমস্ত অফিসার ভোট পরিচালনার দায়িত্বে থাকেন, তাঁরা প্রায়ই সকলেই হিন্দি বোঝেন। আসলে ভোটে অশান্তি করার জন্য রাজ্য পুলিশ দিয়ে নির্বাচন করতে চাইছে তৃণমূল কংগ্রেস।’‌

বন্ধ করুন