বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ‘‌আমার কাছে সমস্ত হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট আছে’‌, পক্ষপাতের বিস্ফোরক অভিযোগ মমতার
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।  (PTI)
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।  (PTI)

‘‌আমার কাছে সমস্ত হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট আছে’‌, পক্ষপাতের বিস্ফোরক অভিযোগ মমতার

  • মুখ্যমন্ত্রী এদিন বেশ কিছু কাগজ তুলে ধরে দাবি করেন, সেগুলি হল তিন পর্যবেক্ষকের সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের অধীনে থাকা প্রশাসনিক আধিকারিকদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট।

নির্বাচন কমিশনের পক্ষপাতদুষ্টতা নিয়ে অভিযোগ করেছিলেন আগেই। এবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সামনে আনলেন বিস্ফোরক অভিযোগ। মুখ্যমন্ত্রী এদিন বেশ কিছু কাগজ তুলে ধরে দাবি করেন, সেগুলি হল তিন পর্যবেক্ষকের সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের অধীনে থাকা প্রশাসনিক আধিকারিকদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট। মুখ্যমন্ত্রীর সেইসব চ্যাটে জেলার তৃণমূল কংগ্রেস নেতাদের ভোটের আগে গ্রেফতারের কথা বলা হয়েছে। পর্যবেক্ষকরা তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মীদের তৃণমূল কংগ্রেসের গুন্ডা বলে উল্লেখ করেছেন তাঁদের চ্যাটে। এরপরই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘‌যদি কোনও নেতাকে গ্রেফতার করা হয়, তাহলে থানা ঘেরাও করুন। প্রয়োজনে আদালতে যান। নেতাদের আটক করলে পাল্টা এফআইআর করুন।’‌ উল্লেখ্য, মুখ্যমন্ত্রী কোচবিহারে গিয়েও দলের সমর্থক মহিলাদের কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ঘেরাও করতে বলেছিলেন। শীতলকুচিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালনার পরে যা নিয়ে বিজেপি নিশানা করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে।

শনিবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভার্চুয়াল সভায় বলেন, ‘‌নির্বাচন কমিশন ফোন করে নির্দেশ দিচ্ছে আর আমার দলের নেতাদের নির্বাচনের আগে গ্রেফতার করে নিচ্ছে। আমার কাছে সমস্ত হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট আছে। আমি নির্বাচন মিটলেই সুপ্রিম কোর্টে যাব। ২০১৬ সালেও অনেক সহ্য করেছি। দেশে আগামীদিনে কীভাবে নির্বাচন স্বচ্ছভাবে করা যায় তা আমরা দেখে নেবো। তবে এত কিছু করেও বিজেপি ৭০টা আসন পেরোবে না। কেন তৃণমূল কংগ্রেসের লোককে আগেভাগে আটক করা হবে বিজেপিকে সুবিধে দেওয়ার জন্য?’‌

এই সমস্ত তথ্য নিয়েই সুপ্রিম কোর্টে যেতে চাইছেন তৃণমূল নেত্রী। তাঁর কথায়, নির্বাচন কমিশনকে অনেক সম্মান দেওয়া হয়েছে। এবার নির্বাচন কমিশনের অযৌক্তিক আবদার আর মানা হবে না। মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন, ‘‌কোচবিহারের শীতলকুচির ঘটনার তদন্ত যেমন করা হবে, ঠিক তেমনই কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালনার পরে কীভাবে পুলিশ সুপারকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল সেইসব খবরও তিনি পেয়েছেন, তারও তদন্ত করা হবে।’‌

বন্ধ করুন