বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > নস্টালজিয়া উস্কে এক দশক পর খুলল মেট্রো সিনেমার দরজা, আবেগে ভাসছে তিলোত্তমা
মেট্রো আইনক্স
মেট্রো আইনক্স

নস্টালজিয়া উস্কে এক দশক পর খুলল মেট্রো সিনেমার দরজা, আবেগে ভাসছে তিলোত্তমা

  • দুটি স্ক্রিন ও ৪২২টি আসন নিয়ে খুলে গেল 'মেট্রো আইনক্স'।

নস্টালজিয়া উস্কে ২০ জানুয়ারি থেকে খুলে গেল মেট্রো সিনেমা। মেট্রো প্রেক্ষাগৃহে সিনেমা দেখার অভিজ্ঞতা প্রায় ভুলতে বসেছিলেন শহরবাসী। তবে আইনক্সের হাত ধরে খুলে গেল তিলোত্তমার অন্যতম ঐতিহ্যবাহী এই সিনেমা হল। প্রেক্ষাগৃহের নতুন নাম হয়েছে ‘মেট্রো আইনক্স’। স্থপতি সুবীর কুমার বসুর পরামর্শে মেট্রো রিয়ালিটি গ্রুপের তরফে আপাতত দুটি স্ক্রিন ও ৪২২টি আসন নিয়ে খুলছে এই প্রেক্ষাগৃহ।

প্রসঙ্গত, ৮৬ বছর আগে ধর্মতলার বুকে মেট্রো সিনেমাহলের সূত্রপাত। কলকাতার সিনেমাপ্রেমী ব্রিটিশদের বিনোদনের জন্য মেট্রো-গোল্ডউইন-মেয়র (এমজিএম) সংস্থা চৌরঙ্গিতে মেট্রো সিনেমা হল তৈরি করেছিল। এমজিএম সংস্থা বিশ্বের অন্যতম পুরনো প্রযোজনা ও বিপণন (ডিস্ট্রিবিউশন) সংস্থা। চলচ্চিত্রের বিপণনের জন্য এই সিনেমা হল তৈরির পরিকল্পনা করেছিল তাঁরা।  ১৯৩৪ সালে নিউ ইয়র্কের টমার ল্যাম্ব এই হলের নকশা তৈরি করেছিলেন।

৮৬ বছরের পুরনো মেট্রো সিনেমা।
৮৬ বছরের পুরনো মেট্রো সিনেমা।

১৯৩৫ সালে প্রথম চালু হয় এই প্রেক্ষাগৃহ। ‘ওয়ে আউট ওয়েস্ট’ সিনেমাটি প্রথম প্রদর্শিত হয়েছিল এখানে। মেট্রোই ছিল কলকাতার প্রথম আধুনিক প্রেক্ষাগৃহ। এরপর ১৯৪০ সালে লাইটহাউস তৈরি হয়। ৭৬ বছর পর, ২০১১ সালে এই প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ হয়ে যায়। মূল সিনেমা হলটি অপরিবর্তিত রেখে শপিং মলে বদলে যায় বাকি অংশ।

কলকাতা পৌরসংস্থার হেরিটেজ কমিশন ২০১২ সালে এই হলটিকে মাল্টিপ্লেক্সে পরিণত করার পরিকল্পনা গ্রহণ করে। তবে এবার সাদামাটা সিঙ্গল স্ক্রিন নয়, আইনক্সের সঙ্গে হাত মিলিয়ে এবার এটি ‘মেট্রো আইনক্স’। ধর্মতলার বুকে নতুন করে জেগে উঠল ৮৬ বছর আগের নস্টালজিয়া। 

বন্ধ করুন