বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Aayush Sharma: ‘৩৫ লাখে কী হয়’, লোনের জন্য আসা ফোনে মস্করা, ‘টাকার গরম’ দেখানোয় নিন্দে আয়ুষের
আয়ুষ শর্মা। 
আয়ুষ শর্মা। 

Aayush Sharma: ‘৩৫ লাখে কী হয়’, লোনের জন্য আসা ফোনে মস্করা, ‘টাকার গরম’ দেখানোয় নিন্দে আয়ুষের

  • ‘অন্তিম: দ্য ফাইনাল ট্রুথ’র সেটের ভিডিয়ো এটি, যা আয়ুষ শর্মা নিজেই শেয়ার করেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়।

অভিনেতা আয়ুষ শর্মা একটি বিহাইন্ড দ্য সিন ভিডিয়ো শেয়ার করেছেন ইনস্টাগ্রামে। যেখানে দেখা যাচ্ছে সেটে বসে একটি প্র্যাঙ্ক কল করছেন তিনি এক টেলিকলারের সাথে! যদিও সলমনের ভগ্নীপতির এহেন মস্করা মোটেও ভালোভাবে নেয়নি নেটপাড়া। 

‘অন্তিম: দ্য ফাইনাল ট্রুথ’র সেটের ভিডিয়ো এটি। কোরিওগ্রাফার মুদ্দাসার খানের নকল করে এক লোন বিক্রেতার সাথে কথা বলতে শোনা যায় আয়ুষকে। সহ-অভিনেত্রী মহিমা মাখওয়ানা পাশেই দাঁড়িয়ে হাঁ করে কথা শুনছে, হতবাক সেটের সকলেও। 

ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে ফোনের অপর প্রান্তে থাকা মহিলার কাছে ১৫ কোটি টাকা লোন নেওয়ার প্রস্তাব রাখে আয়ুষ। আর সেটার জবাবে ওই মহিলা ফোনের অপর প্রান্ত থেকে জানান তিনি ১০ বছরের জন্য ৩৫ লাখ টাকা লোন দিতে পারবে। আর তাতে আয়ুষের প্রশ্ন, ‘আজকাল ৩৫ লাখ টাকায় কী কী হয়?’ পরে যদিও অভিনেতা জানিয়ে দেন তিনি ‘টাইম পাস’ করছিলেন!

তবে, আয়ুষ মজা করে এই ভিডিয়ো শেয়ার করলেও অনেকেই এটা খুব একটা ভালোভাবে নেননি। এক তো মুদ্দাসারের ফোন থেকে পরিচয় গোপন করে কথা বলেন আয়ুষ, সঙ্গে কাজের জন্য ফোন করা এক মহিলার সঙ্গে এরকম রসিকতা ‘ছোট মনের পরিচয়’ বলেই মত অনেকের! কারও কারও মতে, সলমনের টাকার লোভে অন্ধ হয়ে পড়েছে আয়ুষ। তাই তাঁর কাছে কোনও মূল্য নেই ৩৫ লাখের! অনেকেই সলনের বোন অর্পিতা খানের বরকে পরামর্শ দিয়েছেন এবার থেকে তিনি যেন টেলিকলারদের সাথে একটু ভালো ব্যবহার করেন!

বন্ধ করুন