বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > লন্ডনের রেস্তোরাঁয় বিরুষ্কা; শুভেচ্ছা জানিয়ে কর্মী এবং অতিথিদের সঙ্গে তুললেন ছবি
লন্ডনে লিডসের এক রেস্তোঁরায় বিরুষ্কা
লন্ডনে লিডসের এক রেস্তোঁরায় বিরুষ্কা

লন্ডনের রেস্তোরাঁয় বিরুষ্কা; শুভেচ্ছা জানিয়ে কর্মী এবং অতিথিদের সঙ্গে তুললেন ছবি

  • লন্ডনে লিডসের এক রেস্তোঁরায় সোমবার ভুরিভোজে গিয়েছিলেন বিরুষ্কা।

লন্ডন সফরে স্ত্রী অনুষ্কা শর্মা রয়েছেন ক্রিকেটার স্বামী বিরাট কোহলির সঙ্গে। একরত্তি মেয়ে ভামিকাও রয়েছে তাঁদের সঙ্গে। সেখানে স্ত্রীর সঙ্গে ভুরিভোজের জন্য এক রেস্তোরাঁয় গিয়েছিলেন বিরাট। সঙ্গে ছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল, সেই ছবি আগেই ভাইরাল হয়েছিল। সোমবার ফের একবার লন্ডনের নতুন এক রেস্তোরাঁ থেকে বিরুষ্কার ছবি সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়। 

অনুষ্কা এবং বিরাট ইংল্যান্ডের লিডসের থারাভাদু (Tharavadu) রেস্তোরাঁয় খেতে গিয়েছিলেন। এদিন সাদা আউটফিটের সঙ্গে স্লিং ব্যাগ হাতে দেখা যায় অনুষ্কাকে। সাদা টি-শার্টের সঙ্গে ধূসর রঙের প্যান্ট পরে ধরা দেন বিরাট কোহলি। তারকা দম্পতিকে রেস্তোরাঁর স্টাফ এবং অন্যান্য অতিথিদের সঙ্গে ছবি তোলার জন্য পোজ দিতে দেখা যায়।

একটি ছবিতে দেখা যায় রেস্তোরাঁর জন্য শুভেচ্ছা বার্তা বিরাটের। একটি প্লেটের ওপর কালো মার্কার দিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি লিখেছেন, ‘আমাদের এখানকার খাবার সবসময়ই পছন্দ। আতিথেয়তা আশ্চর্যজনক এবং আমাদের সর্বদা ভালবাসা এবং যত্নের সাথে খাবার পরিবেশন করা হয়। আপনার জন্য শুভ কামনা। ভালবাসা, বিরাট এবং আনুষ্কা’। 

গত সপ্তাহে বিরাট এবং অনুষ্কাকে ইংল্যান্ডের একটি নিরামিষ দোকানে লাঞ্চ এবং ডিনারে যেতে দেখা যায়। ট্রেন্ডিল কিচেনের সেফ রিষিম সচদেবা (Rishim Sachdeva) রেস্তোরাঁয় ভারতীয় দলের আগমনে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে ইনস্টাগ্রামে বেশ কিছু ছবি শেয়ার করেছিলেন। রেস্তোরাঁতে দুপুরে লাঞ্চের পর রাতের ভারতীয় দলের সঙ্গে ডিনার করতে ফিরে গিয়েছিলেন তারকা দম্পতি। তাঁদের সঙ্গে ছিল ভারতীয় ক্রিকেট দলের অন্যান্য সদস্যরা। ছিলেন কে এল রাহুল, ইশান্ত শর্মা, ময়াঙ্ক আগারওয়াল, উমেশ যাদব।

অনুষ্কা শর্মা এবং বিরাট কোহলি তাঁদের রেস্তোরাঁতে গিয়েছিলেন। সেই ছবি শেয়ার করে সেফ সামাজিক মাধ্যমে লেখেন, 'অনলাইনে খুঁজে @tendril_kitchen বের করে অনুষ্কা শর্মা। ছবি এবং রিভিউ দেখে পছন্দ হয় তাঁর। এরপরই বিরাট কোহলি আমাকে ফোন করে টেবিল বুক করেন। রেস্তোরাঁয় পাওয়ার কাপলের প্রবেশ করার আগে পর্যন্ত আমি বিশ্বাসই করতে পারিনি তাঁরা আসছেন। আমার অনেক গর্ব অনুভব হচ্ছিল। এবং কিছুটা আতঙ্কিত যে তারা টেন্ড্রিল এ খাবার এবং খাবার খাওয়ার অভিজ্ঞতা উপভোগ করবেন কিনা! তাঁদের পরিবেশন করা এবং তাঁদের সঙ্গে কথা বলার পর, আমি দ্রুত বুঝতে পারলাম যে তাঁরা একটি কারণের জন্যই তাঁরা- অত্যন্ত নম্র এবং অবিশ্বাস্য প্রতিভাবান'।

 

 

বন্ধ করুন