বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ‘ঋতাভরীকে একদম বিয়ে করো না’,কড়া সচেতন বার্তা মা শতরূপা সন্যালের- কিন্তু কেন?
কড়া সতর্কবার্তা মায়ের 
কড়া সতর্কবার্তা মায়ের 

‘ঋতাভরীকে একদম বিয়ে করো না’,কড়া সচেতন বার্তা মা শতরূপা সন্যালের- কিন্তু কেন?

  • ‘পুরো জীবন নরক করে দেবে,খবরদার একে বিয়ে করো না’- ছোটমেয়েকে নিয়ে সর্তর্কবা্র্তা শতরূপা সন্যালের। 

অনেক পুরুষেরই হৃদয়ে বাস করেন অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী। তাঁকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছেন এমন অগনিত পুরুষ রয়েছেন। কিন্তু নায়িকার মা তথা পরিচালক শতরূপা সান্যাল স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, একদমই তাঁর আদুরে ছোট মেয়ে পলিনকে বিয়ে করতে না। কিন্তু কেন মায়ের এই নিদান! ইনস্টাগ্রামে মায়ের সঙ্গে একটি ভিডিও পোস্ট করেন ঋতাভরী। সেখানে দেখা যাচ্ছে অভিনেত্রী তাঁর মাকে জড়িয়ে ধরে বলছেন, আচ্ছা মা অনেকে আমাকে বিয়ের প্রোপোজাল দেয়.. আমাকে বিয়ে করতে চায়.. তাঁদের তুমি কী বলতে চাও?

পাল্টা অভিনেত্রীর মা উত্তর দেন, একদম একে বিয়ে করো না। একে একদম বিয়ে করতে যেও না। পুরো জীবন নরক করে দেবে। অন্যদিকে, ঋতাভরী পাল্টা জিজ্ঞেস করেন, কেন?

মা শতরূপা অবশ্য কারণ হিসেবে জানান, প্রতিদিন সকালে প্রস্তুত হতে হয়, ঋতাভরীর মুড অনুযায়ী ব্রেকফাস্ট তৈরি করতে হয়। এই বলেই হাসিতে ফেটে পড়েন মা-মেয়ে। মূলত মজার ছলেই এই ভিডিয়োটা বানিয়েছেন দুজনে। 

মায়ে জন্মদিন উপলক্ষ্যে শান্তিনিকেতনে একসঙ্গে সময় কাটাচ্ছেন তাঁরা। আপাতত সেখানে শ্যুটিংয়ের কাজের জন্য গিয়েছেন অভিনেত্রী। সেখানেই এই মজার ভিডিওটি আপলোড করেছেন ঋতাভরী। ক্যাপশনে আবার মজা করে অভিনেত্রী লিখেছেন, ‘মা’ই যখন শত্রু! একদম বিশ্বাস করবেন না’। এরপরেই নিজের গোপন কথা ফাঁস হয়ে যাওয়ার ভয়ে ক্যামেরার সামনে থেকে মাকে সরিয়ে নিয়ে যেতে দেখা যায় অভিনেত্রীকে। ভিডিও দেখে অবশ্য ঋতাভরী অনুগামীরা দমে যাননি। তাঁরা তবুও নিজেদের মনের কথা জানিয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ঋতাভরী শতরূপা সান্যালের ছোট মেয়ে। তাঁর বড় মেয়ে চিত্রাঙ্গদা শতরূপা। পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে ভালোবাসেন অভিনেত্রী। বেশ কিছুদিন আগে সপরিবারে বাড়িতে লক্ষ্মী পুজোর ছবি পোস্ট করেন অভিনেত্রী। সেখানে অভিনেত্রীকে মা শতরূপা, দিদি চিত্রাঙ্গদা, মাসি মহাশ্বেতা ও মাসির মেয়ের সঙ্গে ছবি পোস্ট করতে দেখা যায় তাঁকে।

বন্ধ করুন