বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > কৃষক বিক্ষোভ নিয়ে মোদী সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন প্রাক্তন পর্নস্টার মিয়া খলিফা
মিয়া খলিফা (ছবি সৌজন্যে-ইনস্টাগ্রাম)
মিয়া খলিফা (ছবি সৌজন্যে-ইনস্টাগ্রাম)

কৃষক বিক্ষোভ নিয়ে মোদী সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন প্রাক্তন পর্নস্টার মিয়া খলিফা

  • দিল্লিতে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে মানবাধিকার কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করেছে সরকার, তোপ দাগলেন প্রাক্তন পর্নস্টার। 

ক্রমেই জোরালো হচ্ছে কৃষিবিল বিরোধী আন্দোলন। আন্তর্জাতিক স্তরে ভারতের কৃষক বিক্ষোভের খবর ছড়িয়ে পড়ছে আগুনের মতো। পপ সেনসেশন রিহানার পর এবার ভারতের বিক্ষোভরত কৃষকদের সমর্থনে টুইট করলেন প্রাক্তন পর্নস্টার মিয়া খলিফা। বুধবার টুইটারের দেওয়ালে কৃষিবিলের বিরোধীতায় বসা মহিলাদের ছবি পোস্ট করে একটি বিস্ফোরক ক্যাপশন জুড়ে দেন মিয়া। তাঁর মতে, ভারতের রাজধানীতে ২৬ শে জানুয়ারি যা ঘটেছে তা মানবাধিকারকে লঙ্ঘন করে। তিনি লেখেন, ‘ কী ঘটছে?  এটা কি মানবাধিকার লঙ্ঘন নয়? ওরা নয়া দিল্লিতে ইন্টারনেট পরিষেবাই বন্ধ করে দিয়েছে'।  মিয়া যে ছবিটি এই টুইটের সঙ্গে পোস্ট করেন, সেখানে এক বর্ষীয়ান মহিলা প্ল্যাকার্ড হাতে ধরে আছেন। সেখানে লেখা- কৃষক হত্যা বন্ধ করুন। 

নিজের দেশেই ব্রাত্য মিয়া। লেবাননে ঢোকবার অধিকার নেই তাঁর। তবে মাসখানেক আগে লেবানন বিস্ফোরণের সময় দেশবাসীর পাশে দাঁড়াতে নিজের সাধের চশমা নিলামে তুলে সংবাদ শিরোনামে এসেছেন একসময় নীল ছবির দুনিয়া কাঁপানো এই তারকা। মাত্র তিন মাস মিয়া খালিফা পর্ন ইন্ডাস্ট্রির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। ২০১৪ সালে মাত্র ২১ বছর বয়সে নীল ছবির দুনিয়ায় কেরিয়ার শুরু করেন তিনি। মাত্র তিন মাসে ১১টি অ্যাডাল্ট ছবিতে অভিনয় করে সাড়া ফেলেছিলেন মিয়া। ২০১৫ সালের শুরুতেই হিজাব পরে একটি অ্যাডাল্ট ছবিতে অভিনয় করলে কট্টরপন্থীদের রোষের মুখে পড়েন মিয়া, তাঁকে দেওয়া হয় প্রাণনাশের হুমকি। এরপর নীল ছবির দুনিয়াকে চিরতরে বিদায় জানান এই মার্কিন-লেবানিজ তারকা। তবে অ্যাডাল্ট ছবি প্রেমীদের মনে তাঁর জনপ্রিয়তা একটুকুও কমেনি। আপতত ক্রীড়াউপস্থাপক হিসাবে চুটিয়ে কাজ করছেন মিয়া। 

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার সকলকে অবাক করে নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে রিহানা ভারতের কৃষক বিক্ষোভ সংক্রান্ত সিএনএন-এর খবরের একটি লিঙ্ক টুইটারে পোস্ট করেন। সেখানে লেখা রয়েছে, ভারতের রাজধানী দিল্লির একাধিক অঞ্চলে ইন্টারনেট পরিষেবা বিচ্ছিন্ন করে দেওয়ার কথা, লেখা রয়েছে ২৬ শে জানুয়ারি বিশ্বের সর্ববৃহত গণতন্ত্রের প্রজাতন্ত্র দিবসে পুলিশ ও বিক্ষুদ্ধ কৃষকদের খন্ডযুদ্ধের পরিস্থিতির কথা। সেই খবরের লিঙ্ক শেয়ার করে রিহানা লেখেন, ‘কেন আমরা এই বিষয়ে (ভারতের কৃষি আন্দোলন) কথা বলছি না?’ এরপর থেকেই আন্তর্জাতিক স্তরে চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে ভারতের কৃষক বিক্ষোভ।

বন্ধ করুন