বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Aishwarya Rai Bachchan: জমির খাজনা ফাঁকির মতো অভিযোগ, ঐশ্বর্যকে আইনি নোটিস ধরালো মহারাষ্ট্র সরকার

Aishwarya Rai Bachchan: জমির খাজনা ফাঁকির মতো অভিযোগ, ঐশ্বর্যকে আইনি নোটিস ধরালো মহারাষ্ট্র সরকার

খাজনা মেটাননি ঐশ্বর্য রাই বচ্চন!

Aishwarya Rai Bachchan: খাজনা মেটাননি ঐশ্বর্য রাই বচ্চন! মহারাষ্ট্রের নাসিক জেলা প্রশাসন আইনি নোটিস ধরালো রাই সুন্দরীকে। অভিযোগ, গত এক বছর মহাষ্ট্রের একটি জমির কর দেননি অভিনেত্রী।

কর ফাঁকি দেওয়ার মতো গুরুতর অভিযোগ উঠল অভিনেত্রী ঐশ্বর্য রাই বচ্চনের বিরুদ্ধে। মহারাষ্ট্রের নাসিক জেলা প্রশাসনের তরফ থেকে একটি নোটিশ পাঠানো হয়েছে বচ্চন পরিবারের পুত্রবধূকে। 

একাধিক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের রিপোর্ট অনুযায়ী, নাসিকের সিন্নার এলাকার ঠানগাওয়ের আদিওয়াড়িতে প্রায় এক হেক্টরের মতো জমি রয়েছে ঐশ্বর্যর। অভিযোগ, প্রায় এক বছর ধরে জমির খাজনা মেটাননি নীল নয়না সুন্দরী। ওই জমির জন্য বার্ষিক ২১,৯৬০ টাকা করে খাজনা গুনতে হয়ে অভিনেত্রীকে। 

অভিযোগ, গত এক বছর ধরে কর দেনননি ঐশ্বর্য। প্রশাসনের তরফ থেকে একাধিকবার অভিনেত্রীকে সুযোগ দেওয়া হয়েছে কর জমা দেওয়ার জন্য। তবুও নাকি তিনি কর জমা করেননি। সেই কারণেই সিন্নার তেহসিলের পক্ষ থেকে নোটিস পাঠানো হয়েছে বলে খবর। মহারাষ্ট্র ল্যান্ড রেভনিউ অ্যাক্ট, ১৯৬৮ অনুযায়ী অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে। আরও পড়ুন: বিলাসবহুল জীবনযাপন জয়া এবং রেখার, মোট সম্পত্তির পরিমাণ জানলে চমকে উঠবেন

অভিনেত্রীর আইনি উপদেষ্টা সিন্নার তহসিলদার একনাথ সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, বুধবারের মধ্যে কর জমা দেবেন অভিনেত্রী। উল্লেখ্য, এর আগে পানামা কেলেঙ্কারি মামলায় নাম জড়িয়েছিল ঐশ্বর্যর। তার জেরে ইডির দফতরে হাজিরা দিতে হয় প্রাক্তন বিশ্বসুন্দরীকে। 

বলিউডের মেগা তারকাদের তালিকার শীর্ষেই রয়েছে ঐশ্বর্য রাই বচ্চনের নাম। শুধু ভারত নয়, আন্তর্জাতিক স্তরে জনপ্রিয়তা রয়েছে বিশ্বসুন্দরীর। ১৯৯৪ সালে মিস ওয়ার্ল্ড হন। তার পর তাঁর কেরিয়ার গ্রাফ ক্রমশ উপরের দিকে উঠেছে। 

জিকিউয়ের রিপোর্ট অনুযায়ী, ঐশ্বর্যর মোট সম্পত্তির পরিমাণ ৭৭৬ কোটি টাকা। আর তাঁর বার্ষিক আয় ১৫ কোটি টাকা। ঐশ্বর্যর আঙুলে ৭০ লাখ টাকার একটি আংটি আছে। গ্যারাজে রয়েছে মার্সিডিজ এস৫০০, বেন্টলে সিজিটি। এর বাইরে দুবাইয়ে স্যা‌চুয়ারি ফলস‌্-এ একটা ভিলা এবং মুম্বইয়ের বান্দ্রায় একটা অ্যাপার্টমেন্ট রয়েছে তাঁর। 

বেঙ্গালুরুতে অ্যাম্বি নামে এনভায়রনমেন্টাল ইন্টেলিজেন্স স্টার্টআপে প্রায় ১ কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছেন ঐশ্বর্য। মহারাষ্ট্রে একটি বায়ু প্রকল্পে বিনিয়োগ করেছেন। পসিবল নামে একটি পুষ্টি ভিত্তিক স্বাস্থ্যসেবা স্টার্টআপেও বিনিয়োগ করেছেন। ব্র্যান্ড এনডোর্সমেন্ট, বিজ্ঞাপনের শ্যুটিংয়ের পাশাপাশি প্রচুর সম্পত্তি রয়েছে অভিনেত্রীর। 

মণিরত্নমের PS-I সিনেমার মাধ্যমে বড়পর্দায় কামব্যাক করেছেন ঐশ্বর্য। পোন্নিয়ান সেলভান থেকে ১০ কোটি টাকা আয় করেছেন অভিনেত্রী। চলতি বছরের ২৮ এপ্রিল ছবির দ্বিতীয় পর্ব মুক্তি পাবে।

 

বন্ধ করুন