বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > হলিউড চ্যানেলে নগ্নতা নিয়ে প্রশ্ন ঐশ্বর্যকে, কড়া কথায় যা বলেছিলেন বচ্চন-বধূ!
নগ্নতা নিয়ে হলিউড সাক্ষাৎকারে যা বলেছিলেন ঐশ্বর্য একবার।

হলিউড চ্যানেলে নগ্নতা নিয়ে প্রশ্ন ঐশ্বর্যকে, কড়া কথায় যা বলেছিলেন বচ্চন-বধূ!

অভিনেত্রীকে এক ফ্রেঞ্চ সাংবাদিক প্রশ্ন করেন পরদায় নগ্নতা হওয়ার সুযোগ এলে কী করবেন। শুধু যে এই প্রশ্নের উত্তর দিতেই অস্বীকার করেছিলেন ঐশ্বর্য তা নয়, সঙ্গে ওই সংবাদিককেই জিজ্ঞেস করে বসেছিলেন, ‘আপনি কি গাইনোকলজিস্ট?’

বচ্চন বধূ ঐশ্বর্য হলেন বিউটি উইথ ব্রেন। একাধিকবার সাক্ষাৎকার চলাকালীন সাংবাদিকের প্রশ্ন পছন্দ না হলে একেবারে ধুইয়ে দিয়েছেন তিনি। একবার অভিনেত্রীকে এক ফ্রেঞ্চ সাংবাদিক প্রশ্ন করেন পরদায় নগ্নতা হওয়ার সুযোগ এলে কী করবেন। শুধু যে এই প্রশ্নের উত্তর দিতেই অস্বীকার করেছিলেন ঐশ্বর্য তা নয়, সঙ্গে ওই সংবাদিককেই জিজ্ঞেস করে বসেছিলেন, ‘আপনি কি গাইনোকলজিস্ট?’

ঐশ্বর্যর এক পুরনো সাক্ষাৎকারে শেয়ার হয়েছে রেডিটে সম্প্রতি। যেখানে অভিনেত্রীকে বলতে শোনা যায়, ‘আমি পরদায় কখনও নগ্ন হয়নি। আর নগ্ন হওয়ার ইচ্ছেও নেই।’ তবুও যখন বারবার সাংবাদিক এই নিয়ে প্রশ্ন করতে থাকেন তখন তিনি ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে বলেন, ‘আমার তো মনে হচ্ছে আমি আমার গাইনির সঙ্গে কথা বলছি। মানে আমি কার সঙ্গে কথা বলছি! বন্ধু আমার তুমি একজন সাংবাদিক। আর সেটাই থাকো।’

সাংবাদিককে নগ্নতা নিয়ে যে উত্তর ঐশ্বর্য দিয়েছেন তা মুগ্ধ করেছে ভক্তদের। একজন লিখেছেন, ‘আমার তো মনে হয় ওরা সবচেয়ে খারাপ সাক্ষাৎকার গ্রহণকারীকে নিয়ে এসেছে। যার কোনও ধারণাই নেই বলিউড কেমন।’ আরেকজন লিখেছেন, ‘এর থেকে বোঝা যায় এখন আর কেন হলিউডে সাক্ষাৎকার দেয় না ঐশ্বর্য!’ আরও পড়ুন: রণবীরের নগ্ন ছবিতে পোশাক পরিয়ে ‘শুধরে দিল’ মিন্ত্রা, হাসির রোল সোশ্যাল মিডিয়ায়

একবার এক আমেরিকান চ্যানেলের তরফ থেকে ঐশ্বর্য আর অভিষেককে প্রশ্ন করা হয়েছিল, ‘শুনেছি ওখানে বড় হয়ে গেলেও মানুষ বাবা-মায়ের সঙ্গে থাকে! কীভাবে সম্ভব হয়।’ আর এই কথা শুনে বিরক্ত ঐশ্বর্য অভিষেককে বলেন উত্তর দিতে। আর জুনিয়ার বচ্চনের এতে উত্তর ছিল, ‘আপনাদের এখানে ছেলে-মেয়ে বড় হলে মা-বাবার সঙ্গে থাকে না। এটা কীভাবে সম্ভব হয়!’ শুধু তাই নয় সেই সময় তাঁরা এটাও বলেছিলেন, ওখানকার মতো এখানে বাচ্চাকে মা-বাবার সঙ্গে দেখা করতে আগে থেকে সময় চাইতে হয় না!

বন্ধ করুন