বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ইউটিউবে ডিজলাইকের বিশ্বরেকর্ড গড়ল মহেশ-আলিয়ার সড়ক ২-এর ট্রেলার
ইউটিউবে ডিজলাইকের বন্যা সড়ক টুয়ের ট্রেলারে 
ইউটিউবে ডিজলাইকের বন্যা সড়ক টুয়ের ট্রেলারে 

ইউটিউবে ডিজলাইকের বিশ্বরেকর্ড গড়ল মহেশ-আলিয়ার সড়ক ২-এর ট্রেলার

  • বিশ্বের সবচেয়ে বেশি লাইক পাওয়া ট্রেলার হিসাবে রেকর্ড গড়েছিল সুশান্ত সিং রাজপুতের শেষ ছবি দিল বেচারার ট্রেলার। আর সুশান্ত ভক্তদের জেরেই বিশ্বের সবচেয়ে বেশি ডিজলাইক পাওয়া ছবির ট্রেলার সড়ক ২। 

নির্ধারিত দিনের চব্বিশ ঘন্টা পর সামনে এলেও শেষরক্ষা হল না পরিচালক মহেশ ভাটের আসন্ন ছবি সড়ক টুয়ের ট্রেলারের। প্রত্যাশা মতোই নেটিজেনদের বিশেষত সুশান্ত সিং রাজপুত ভক্তদের ব্যাপক রোষের মুখে সড় ২-এর ট্রেলার। শুরু থেকেই এই ছবি বয়কটের ডাক দিয়েছে তাঁরা। দিল বেচারার ট্রেলার যেমন বিশ্বের সবচেয়ে বেশি লাইক পাওয়া ছবির ট্রেলার গড়ার শপথ নিয়েছিল তাঁরা, তেমনই সড়ক টু যাতে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ডিজলাইক পাওয়া ছবির ট্রেলার হয়-সেই প্রতিজ্ঞা করেছিল তাঁরা। সড়ক -২ এর ট্রেলার মুক্তির মাত্র ৬ ঘন্টার মধ্যে সেই প্রতিজ্ঞা পূরণ করলেন সুশান্ত ভক্তরা। এদিন ইউটিউব ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি ‘ডিজলাইক’ পাওয়া ছবির ট্রেলার হিসাবে গোস্টবাস্টার্সকে পিছনে ফেলল সড়ক টু। এতদিন পর্যন্ত ১.১ মিলিয়ান ডিজলাইকের সঙ্গে গোস্টবাস্টার্সের ট্রেলার ছিল ইউটিউবের সবচেয়ে অপছন্দের ছবির ট্রেলার। সে জায়গায় মাত্র  ৭ ঘন্টায় সড়ক টুয়ের ট্রেলারে পড়ছে ১.৬ মিলিয়ান ডিজলাইক।

সড়ক টুয়ের অভাবনীয় রেকর্ড! 
সড়ক টুয়ের অভাবনীয় রেকর্ড! 

মাত্র পাঁচ ঘন্টাতেই এই ছবির ট্রেলারে ডিজলাইকের সংখ্যা ছিল ১০ লক্ষাধিক!  আপতত সড়ক টুয়ের ট্রেলারে লাইক সংখ্যা ১ লক্ষ ১১ হাজার। সুতরাং এই ছবির ট্রেলারে লাইকের চেয়ে ৯০% বেশি ডিজলাইক পড়েছে, যা সত্যি অকল্পনীয়। সুশান্তকে নিয়ে আলিয়ার কফি উইথ করণের সেটে মন্তব্য, রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে মহেশ ভাটের ঘনিষ্ঠতার জেরে শুরু থেকেই ভাট পরিবারের উপর ক্ষুদ্ধ সুশান্ত ভক্তরা। তারপর এই ছবির সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হয়েছে নোপোটিজমের তকমাও। কারণ এই ছবিতে লিড রোলে রয়েছেন মহেশ ভাটের দুই কন্যা-আলিয়া ও পূজা। অন্যদিকে অপর দুই প্রধান চরিত্রে ইন্ডাস্ট্রির অন্য দুই ইনসাইডার সঞ্জয় দত্ত ও আদিত্য রয় কাপুর। তাই ডিজলাইকের বিচারে রেকর্ড গড়াটা আসলে মহেশ ভাটের কর্মফল, বলছে নেটিজেনরা।

২১ বছর পর পরিচালক মহেশ ভাটের কামব্যাকের পথটা যে সহজ হবে না তা এক কথায় সম্ভাব্য ছিল। তবে একটা কঠিন হবে এটা বোধহয় অনেকেই আশা করেননি। বিতর্কের শেষ এখানেই নয়। সড়ক টুয়ের ট্রেলার মুক্তির কয়েক ঘন্টার মধ্যেই বিশ্ব হিন্দু পরিষদের তরফে দাবি করা হল এই ছবি হিন্দুদের ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত দিচ্ছে। শুধু তাই নয় এই ছবিকে ‘নেপোটিজমের প্রোডাক্ট’ বলেও উল্লেখ করলেন ভিএইচপির মুখপাত্র বিজয় শঙ্কর তিওয়ারি।পূজা ভাট ও সঞ্জয় দত্ত অভিনীত সড়ক (১৯৯১) ছবির সিক্যুয়েল এই ফিল্ম। করোনা পরিস্থিতিতে সরাসরি ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ডিজনি প্লাস হটস্টারে আগামী ২৮ অগস্ট মুক্তি পেতে চলেছে পরিচালক মহেশ ভাটের এই ছবি।

বন্ধ করুন