বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > চুক্তি বাতিলের পরেও জমিয়ে চলছে বিজ্ঞাপন, পান মশলার সংস্থাকে আইনি নোটিস অমিতাভের!
পান মশলার সংস্থার উপর চটলেন অমিতাভ। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)
পান মশলার সংস্থার উপর চটলেন অমিতাভ। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)

চুক্তি বাতিলের পরেও জমিয়ে চলছে বিজ্ঞাপন, পান মশলার সংস্থাকে আইনি নোটিস অমিতাভের!

  • আপত্তি জানানো ও চুক্তি বাতিলের পরেও বিজ্ঞাপনে রমরমিয়ে ব্যবহার করা হচ্ছে তাঁর মুখ। এবার সেই পান মশলার সংস্থাকে আইনি নোটিস ধরালেন ক্ষুব্ধ অমিতাভ বচ্চন।

পান মশলার বিজ্ঞাপনের মুখ হয়ে বিতর্কের মুখে পড়েছিলেন অমিতাভ বচ্চন।সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক কটাক্ষের শিকারও হতে হয়েছিল তাঁকে। শেষপর্যন্ত গত অক্টোবর মাসে নিজের জন্মদিনে অমিতাভ ঘোষণা করেন তিনি আর কোনওরকম গুটখা, পান মশলার বিজ্ঞাপনের সঙ্গে যুক্ত থাকবেন না। ওই পান মশলার ব্র্যান্ডের সঙ্গে হওয়া চুক্তি বাবদ সমস্ত টাকা ফিরিয়ে দেন তিনি। আইনত সেই সংস্থার সঙ্গে সমস্ত ব্যবসায়িক সম্পর্ক ছিন্ন করেন তিনি। এরপর ওই কোম্পানিকে লিখিতভাবে বিজ্ঞাপন তুলে নেওয়ার আর্জিও জানিয়েছিলেন যে তাঁদের পান মশলার ব্র্যান্ডের প্রচারের মুখ হিসেবে যেন তাঁর মুখ আর ব্যবহার না করা হয়। তা সত্বেও কাজ হয়নি।এ সমস্ত কিছুর পরেও বর্তমানেও সেই বিজ্ঞাপনের প্রচার হয়ে চলেছে। আর তা চোখ এড়ায়নি অমিতাভেরও। এরপরেই বেদম চটেছেন 'শাহেনশাহ'। রীতিমত হুঁশিয়ারি দিয়ে ওই পান মশলার সংস্থাকে আইনি নোটিস পাঠিয়েছেন তিনি!

অমিতাভ ঘনিষ্ঠ এক সূত্র জানিয়েছেন, ওই পান মশলার সংস্থাকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ওই বিতর্কিত বিজ্ঞাপন সম্প্রচার বন্ধ করার কথা জানিয়েছেন বলি-তারকা। পাল্টা কী জবাব এসেছে ওই সংস্থার তরফে তা যদিও এখনও জানা যায়নি। তা কেন হঠাৎ ওই পান মশলার বিজ্ঞাপনের প্রচারের মুখ হওয়ার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেন 'বিগ বি'? শুধুই কি লোকলজ্জার ভয়? 

জানা গেছে, অমিতাভ জানতেনই না যে সেই বিজ্ঞাপনটি নিষিদ্ধ বিজ্ঞাপনের আওতায় পড়ে। তাই সমাজের স্বার্থেই অমিতাভের এমন পদক্ষেপ। এছাড়াও সরকারের তরফে এর আগে অমিতাভের কাছে একটি চিঠি এসেছিল। সেখানে উল্লেখ ছিল যে, 'বিগ বি' যেহেতু পালস পোলিওর সরকারি ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর তাই পান মশলার প্রচার করা তাঁর শোভা পায় না। উচিতও নয়। তাই সব মিলিয়েই তড়িঘড়ি ওই পান মশলার বিজ্ঞাপন থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছিলেন অমিতাভ।

বন্ধ করুন