বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > হৃত্বিকের প্রাক্তন শ্বশুর সঞ্জয় খান, ভাইরাভাই ও দিনো মরিয়ার কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল ED
দিনো মরিয়া (ফাইল ছবি)
দিনো মরিয়া (ফাইল ছবি)

হৃত্বিকের প্রাক্তন শ্বশুর সঞ্জয় খান, ভাইরাভাই ও দিনো মরিয়ার কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল ED

  • টাকা তছরুপ রোধ আইনের আওতায় এই সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করেছে কেন্দ্রীয় সংস্থা। 

বেশ কয়েকমাস ধরেই ইডির কড়া নজরদাড়িতে ছিলেন অভিনেতা দিনো মরিয়া।অবশেষে শুক্রবার এই বলিউড অভিনেতার কয়েক কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল কেন্দ্রীয় সংস্থা। দিনো মরিয়ার পাশাপাশি প্রয়াত কংগ্রেস নেতা আহমেদ প্যাটেলের জামাই, সঞ্জয় খান (সুজান খানের বাবা) এবং ডিজে আকিলের (সুজানের দিদি ফারহা খান আলির প্রাক্তন স্বামী) বিপুল অর্থের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করেছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট, জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা পিটিআই। Prevention of Money Laundering Act (PMLA) বা টাকা তছরুপ রোধ আইনের আওতায় এই পদক্ষেপ নিয়েছে ইডি। 

ব্যাঙ্ক লোনের মাধ্যমে জালিয়াতি করে ১৪,৫০০ কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগ রয়েছে গুজরাতি ব্যবসায়ী চেতন সন্দেসারা ও তাঁর ভাইয়ের বিরুদ্ধে। ইডি সূত্রে খবর, এই মামলার তদন্ত করতে গিয়েই সন্দেসারা ভাইয়ের সঙ্গে ইরফান সিদ্দিকি এবং দিনো মরিয়ারা ব্যাঙ্ক লেনদেনের প্রমাণ মিলেছে। সেই লেনদেনের কোনও হিসাব দেখাতে পারেননি অভিযুক্তরা। 

উপরোক্ত চারজনের মোট ৮.৭৯ কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করেছে ইডি। সঞ্জয় খানের ৩ কোটি, দিনো মরিয়ার ১.৪ কোটি টাকা, ডিজে আকিলের ১.৯৮ কোটি টাকা এবং আহমেদ প্যাটেলের জামাই ইরফান আহমেদ সিদ্দিকির ২.৪১ কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। 

স্টারলিং বায়োটেক কোম্পানির মাধ্যমে ১৪,৫০০ কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগ রয়েছে নীতিন সন্দেসারা, চেতনকুমার সন্দেসারা এবং দীপ্তি সন্দেসারার বিরুদ্ধে- তিন জনেই এই মুহূর্তে পলাতক। ২০১৭ সালেই দেশ ছেড়েছে তিন অভিযুক্ত। নীরব মোদী ও মেহুল চোকসির নামের সঙ্গে জড়িত ‘পঞ্জাব ন্যাশান্যাল ব্যাঙ্ক কেলেঙ্কারি’র চেয়েও বড় তছরুপের মামলা এটি। সন্দেসারা ভাইদের বিরুদ্ধে পৃথক তদন্ত চালাচ্ছে সিবিআই এবং ইনকাম ট্যাক্স ডিপার্টমেন্টও। 

বন্ধ করুন