বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ! জোর করে গর্ভপাতের অভিযোগ মিঠুনের ছেলে ও স্ত্রীর বিরুদ্ধে
গুরুতর অভিযোগ মিঠুনের স্ত্রী ও পুত্রের বিরুদ্ধে
গুরুতর অভিযোগ মিঠুনের স্ত্রী ও পুত্রের বিরুদ্ধে

বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ! জোর করে গর্ভপাতের অভিযোগ মিঠুনের ছেলে ও স্ত্রীর বিরুদ্ধে

  • মুম্বইয়ের ওশিওয়াড়া থানায় দায়ের করা হয়েছে এফআইআর। এক ভোজপুরী নায়িকাকে ধর্ষণের অভিযোগ মিঠুন পুত্রের বিরুদ্ধে।

ফের বিতর্কে মিঠুন পুত্র মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমো। বর্ষীয়ান অভিনেতার পুত্র ও স্ত্রী যোগিতাবালির বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের হল ওশিওয়াড়া পুলিশ থানায়। এক ভোজপুরী অভিনেত্রীকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে লাগাতাল ধর্ষণ, এমন কি জোর করে গর্ভপাত করানোর অভিযোগ রয়েছে মিমোর বিরুদ্ধে। অন্যদিকে মিমোর মা যোগিতা বালি ছেলেকে বাঁচানোর জন্য ওই নির্যাজিতাতে লাগাতার হুমকি দিয়েছেন। নির্যাতিতা এফআইআরের কপিতে দাবি করেছেন ২০১৫ সাল থেকে মিমোর সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান তিনি। মিমো তাঁকে বাড়িতে ডাকেন এবং সফট ড্রিঙ্কে নেশার ওষুধ মিশিয়ে তাঁর সঙ্গে জোর করে শারীরিক সম্পর্ক তৈরি করেন। এরপর ওই ভোজপুরী নায়িকাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দেন। এরপর বহুবার বিয়ে করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে প্রায় তিন বছর ধরে লাগাতার শারীরিক সম্পর্ক বজায় রাখেন মিমো,কিন্তু বিয়ের প্রসঙ্গে এড়িয়ে যেতে থাকেন নানা আছিলায়। 

এরপর ওই নায়িকা অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে গর্ভপাত করানোর পরামর্শ দেন মিমো, না মানলে জোর করে তাঁকে কিছু ওষুধ খাইয়ে দেয়- যার জেরে নিজের সন্তানকে হারান ওই মহিলা। এফআইআরের কপিতে অভিযুক্তর তালিকায় নাম রয়েছে মিঠুন চক্রবর্তীর স্ত্রীরও। তিনি নাকি মিমোর ওই প্রেমিকাকে হুমকি দিয়েছেন এবং অভিযোগ তুলে নেওয়ার জন্য চাপও দিচ্ছেন গত দু বছর ধরে। 

২০১৮ সালে প্রথম এই ঘটনা সামনে আসে। সেই সময়ই প্রথম মিমোর বিরুদ্ধে অভিযোগ আনেন এই ভোজপুরী নায়িকা। ধর্ষণের মামলায় গ্রেফতারও হতে হয়েছিল মিমোকে। কিন্তু জামিনে ছাড়া পেয়েই প্রেমিকা মাদালসা শর্মার সঙ্গে বিয়ের পর্ব সেরে নেন মিমো। এরপর চক্রবর্তীর পরিবারের হুমকির জেরে মুম্বই থেকে দিল্লিতে চলে আসেন ওই নির্যাতিতা, দাবি তাঁর। সেই সময়ই দিল্লির এক আদালতে মিমো ও যোগিতাবালির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন ওই নির্যাতিতা। গোটা বিষয় নিয়ে পুলিশি নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগ আনেন নির্যাতিতা।

দিল্লির আদালতের তরফে সাফ জানানো হয়- ‘প্রাথমিক প্রমাণ যথেষ্ট ধর্ষণের মতো গুরুতর মামলায় মিমোর বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করতে’। এবং অভিযুক্তরা প্রভাবশালী সে কথাও নিজের পর্যবেক্ষণে জানায় আাদালত। অবশেষে মুম্বইয়ের ওশিওয়াড়া থানায় ধর্ষণের অভিযোগ এনে মামলা রুজু হল মিমোর বিরুদ্ধে। 

অভিনেত্রী মাদালসা শর্মার সঙ্গে বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ অভিযুক্ত মিঠুন পুত্র মিমো। আপতত স্টার প্লাসের ধারাবাহিক অনুপমাকে দেখা যাচ্ছে মাদালসাকে। ২০১৫ সালে ইশকদরিয়া ছবিতে শেষ দেখা গিয়েছে মিমোকে, মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে মিমোর নতুন ছবি মেয় মুলাইম সিং যাদব। 

বন্ধ করুন