বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > পাসপোর্ট রিনিউ-তে বাধা! বম্বে হাইকোর্টের শরণাপন্ন হয়েও স্বস্তি পেলেন না কঙ্গনা
বিপাকে কঙ্গনা
বিপাকে কঙ্গনা

পাসপোর্ট রিনিউ-তে বাধা! বম্বে হাইকোর্টের শরণাপন্ন হয়েও স্বস্তি পেলেন না কঙ্গনা

  • জরুরি ভিত্তিতে এই মামলার শুনানির আবেদন নাকোচ করল হাইকোর্ট। আবেদনপত্রে রয়েছে বিস্তর গলদ, জানাল বম্বে হাইকোর্ট। 

এফআইআরের ফাঁপড়ে পড়ে ঘোরতর বিপাকে কঙ্গনা রানাওয়াত। পাসপোর্ট রিনিউ করা নিয়ে নতুন ঝামেলায় ফেঁসে গেছেন ‘কন্ট্রোভার্সি কুইন’। এমনিতেই আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকতে ভালোবাসেন কঙ্গনা, ঠোঁটকাটা স্বভাবের জেরে তাঁর নামে নিত্যদিন মামলাও দায়ের হয়- তা সত্ত্বেও সুর নরম করেন না অভিনেত্রী। তেমনই এক মামলার জেরে এবার বিপাকে পড়েছেন কঙ্গনা, বম্বে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েও পেলেন না স্বস্তি।

ব্যাপারটা কী? মঙ্গলবার বম্বে হাইকোর্ট জরুরি ভিত্তিতে কঙ্গনার আবেদনের শুনানি নাকোচ করে দিল। সেই আবেদনে অভিনেত্রী জানিয়েছিলেন আদালত যাতে সংশ্লিষ্ট সরকারি দফতরকে তাঁর পাসপোর্ট রিনিউ করে দেওয়ার নির্দেশ দেয়। সেপ্টেম্বরেই কঙ্গনা রানাওয়াতের পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হচ্ছে। নিজের আসন্ন ছবি ‘ধাকড়’-এর শ্যুটিংয়ে হাঙ্গেরি উড়ে যাওয়ার কথা কঙ্গনার। তবে পাসপোর্ট রিনিউয়্যাল অথোরিটি-র তরফে অভিনেত্রীকে সাফ জানিয়ে দেওয়া হয়েছে তাঁর বিরুদ্ধে দেশদ্রোহীতার মামলা রুজু থাকায় বম্বে হাইকোর্টের নির্দেশ ছাড়া পাসপোর্ট রিনিউ করা তাঁদের পক্ষে সম্ভবপর নয়। 

নিজের আইনজীবী রিজওয়ান সিদ্দিকির মাধ্যমে আদালতে আবেদন জানিয়েছিলেন কঙ্গনা। তবে বম্বে হাইকোর্ট সাফ জানায়, নায়িকার আবেদন গলদ রয়েছে। কারণ অভিনেত্রী নিজের আবেদনে সবরকম তথ্য দেননি এবং সেখানে মামলার একটি পার্টি হিসাবে অথোরিটির নামের কোনও উল্লেখ নেই। আগামী ২৫ জুন কঙ্গনার এই আবেদন নতুন করে শুনবে আদালত। বিচারপতি প্রসন্ন ভারালে এবং বিচারপতি সুনেন্দ্র তাভাড়ের ডিভিশন বেঞ্চ কঙ্গনার আইনজীবীর কাছে সংশ্লিষ্ট অথোরিটির আবেদন খারিজ করে দেওয়ার অর্ডারের কপি দেখতে চান। তবে আইনজীবী পালটা বলেন, আপত্তিটা মৌখিকভাবে জানানো হয়েছে, লিখিত কোনও নথি দেওয়া হয়নি কঙ্গনাকে। 

কঙ্গনা রানাওয়াত ও তাঁর দিদি রঙ্গোলি চান্দেলের বিরুদ্ধে গত বছর অক্টোবরে এই দেশদ্রোহের মামলা রুজু করা হয়েছিল। টুইট মারফত সাম্প্রদায়িকতার বিষ ছড়ানোয় ও ধর্মীয় সম্প্রীতি নষ্ট করবার অভিযোগে মুম্বইয়ের এক ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টের নির্দেশে বান্দ্রা পুলিশ কঙ্গনার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করে। কঙ্গনার আইনজীবী জানান, পাসপোর্ট রিনিউয়্যালের আবেদনপত্রে কঙ্গনা তাঁর বিরুদ্ধে দায়ের মামলার কথা জানানোর জেরেই এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। এবং পাসপোর্ট অথোরিটি আদালতের কাছ থেকে লিখিত অনুমতি আনবার কথা জানিয়েছে কঙ্গনা রানাওয়াতকে। 

এদিন হাইকোর্ট কঙ্গনার আইনজীবীর কাছে জানতে চান, কেন এই আবেদনপত্রে স্পষ্টভাবে উল্লেখ নেই এটি শুধুমাত্র কঙ্গনার পাসপোর্ট রিনিউয়ের জন্য দায়ের করা হয়েছে এবং রঙ্গোলি চান্দেলের সঙ্গে এর কোনও যোগ নেই। মামলার দ্রুত তারিখ চাইলে তা নাকোচ করে আদালত জানায়, এটি কেবলমাত্র ফিল্মের শ্যুটিংয়ের জন্য বিদেশ যাওয়ার মামলা। সেই শেডিউলে প্রয়োজনে রদবদল হতেই পারে। 

বন্ধ করুন