বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Box Office Collection: মিলি, ডাবল এক্সএল, ফোন ভূত— কোন ছবি কত ব্যবসা করল? কোন ছবিই বা একদম চলল না?

Box Office Collection: মিলি, ডাবল এক্সএল, ফোন ভূত— কোন ছবি কত ব্যবসা করল? কোন ছবিই বা একদম চলল না?

কোন ছবি কত ব্যবসা করল?

Box Office Collection: ২০২২ বলিউডের জন্য মোটেই ভালো যাচ্ছে না। একাধিক বিগ বাজেট ছবি মুখ থুবড়ে পড়েছে, সদ্য রিলিজ হওয়া ফোন ভূত, মিলি বা ডাবল এক্সএল কেমন ফল করল?

৪ নভেম্বর, শুক্রবার একসঙ্গে বড় পর্দায় বলিউডের তিনটি ছবি মুক্তি পেয়েছে। এই তিনটি ছবি হল, মিলি, ফোন ভূত এবং ডাবল এক্সএল। শুক্রবার মুক্তি পাওয়ার পর শনি রবিবার ছিল, সপ্তাহান্তে ছবি তিনটের ভালোই ব্যবসা হওয়ার আশা করা হয়েছিল। কিন্তু বক্স অফিসে আদতে কেমন ফল করল এই ছবিগুলো?

আশা করা হয়েছিল তিনটি ছবির মধ্যে ফোন ভূত বেশ ভালো ব্যবসা করবে। কিন্তু তিনটি ছবির একটিও সপ্তাহান্তে বক্স অফিসে তেমন ভালো ফল করতে পারল না। তবে হ্যাঁ, বাকি দুটোর তুলনায় বেশ খানিকটা ভালো ফল করেছে ফোন ভূত। কিন্তু যেমনটা আশা করা হয়েছিল ততটা ভালো ফল করেনি। ফোন ভূত ছবিটি প্রথমদিন, অর্থাৎ ৪ নভেম্বর ২ কোটি টাকার ব্যবসা করে দেশ জুড়ে। কিন্তু যে ছবিতে ক্যাটরিনা কাইফের মতো অভিনেত্রী রয়েছেন সেই ছবির এমন ব্যবসা খুব একটা আশাপ্রদ নয়।

অন্যদিকে মিলি, ফোন ভূত এবং ডাবল এক্সএল ছবি তিনটির মধ্যে সব থেকে খারাপ ফল করেছে ডাবল এক্সএল। এই ছবিতে দেখা গিয়েছে হুমা কুরেশি এবং সোনাক্ষী সিনহাকে। প্রথম দিন এই ছবিটি সব থেকে কম আয় করেছে তিনটি ছবির মধ্যে।

মনে করা হয়েছিল এই তিনটি ছবি শনি রবিবার ভালো ব্যবসা করবে, বক্স অফিসে ছাপ ফেলবে। কিন্তু সেটা হল কই? মোটের উপর তিনটি ছবির ব্যবসার তেমন কোনও পার্থক্য দেখা গেল না।

ক্যাটরিনা কাইফের ফোন ভূত প্রথম সপ্তাহান্তে মাত্র ৭.৮৫ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে বক্স অফিসে। একদিকে যেমন ক্যাটরিনা কাইফ অভিনীত টাইগার ছবির বিভিন্ন ভাগ ৩০০ কোটির উপর ব্যবসা করে সেখানে ফোন ভূতের এমন ফল ভীষণই হতাশাজনক। প্রথম দিন এই ছবি ২ কোটি টাকার ব্যবসা করে, দ্বিতীয় দিন ২.৭৫ কোটি এবং তৃতীয় দিন ৩.০৫ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে। এমনটাই তরণ আদর্শ, ভারতের বিখ্যাত ট্রেড অ্যানালিস্ট জানিয়েছেন।

অন্যদিকে হুমা কুরেশি এবং সোনাক্ষী সিনহা অভিনীত ডাবল এক্সএল মুখ থুবড়ে পড়েছে বক্স অফিসে। এই ছবি তো তিনদিনে ১কোটির গণ্ডিও পেরোতে পারেনি। প্রথম দিন এই ছবি ২৫লাখ, দ্বিতীয় দিন ২০ লাখ এবং তৃতীয় দিন ৩০ লাখ টাকার ব্যবসা করেছে দেশ জুড়ে।

মিলি ছবিটি ডাবল এক্সএল ছবির তুলনায় ভালো ফল করলেও আসল ফল ভীষণই হতাশাজনক। তিনদিনে এই ছবি সর্বসাকুল্যে ১.৩৫ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে। এই ছবিতে অভিনয় করেছেন জাহ্নবী কাপুর এবং প্রযোজনা করেছেন বনি কাপুর।

তবে এই তিন ছবিই যে এবার বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়ল এমনটা না। এর আগেও ২০২২ সালে আরও বেশ কিছু ছবি একদমই বক্স অফিসে চলেনি, এই তালিকায় আছে সম্রাট পৃথ্বীরাজ, বচ্চন পাণ্ডে, লাল সিং চাড্ডা, ইত্যাদি।

বন্ধ করুন