বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > সুশান্তের মৃত্যুর তদন্ত : জেরার মুখে করণের ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও অপূর্ব মেহতা
 জেরার মুখে করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও অপূর্ব মেহতা 
 জেরার মুখে করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও অপূর্ব মেহতা 

সুশান্তের মৃত্যুর তদন্ত : জেরার মুখে করণের ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও অপূর্ব মেহতা

  • করণ জোহরের ম্যানেজার নয়, জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও অপূর্ব মেহতাকে। 

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর তদন্তে রবিবার বড়সড় মোড়। অবশেষে মুম্বই পুলিশের জেরার মুখে পড়তে চলেছেন ধর্মা প্রোডাকশনের কর্ণধার তথা পরিচালক করণ জোহর। রবিবার তেমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অনিল দেশমুখ। পাশাপাশি ইতিমধ্যেই থানায় তলব করা হয়েছে করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনের সিইও তথা করণের দীর্ঘদিনের বন্ধু অপূর্ব মেহতাকে। যিনি ধর্মা প্রোডাকশনের যাবতীয় কাজ সামলান। শুরুতে জানা গিয়েছিল করণের ম্যানেজার রেশমা শেট্টিকে সমন পাঠিয়েছে পুলিশ কিন্তু পরবর্তী সময়ে সংবাদ সংস্থা এএনআই নিশ্চিত করে সমন গিয়েছে অপূর্ব মেহতার কাছে। 

এই মামলায় পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদের মুখে পড়তে চলেছেন পরিচালক মহেশ ভাটও। আগামী দু-তিন দিনের মধ্যেই এই মামলায় পুলিশি জেরার মুখে পড়তে চলেছেন মহেশ ভাট, জানিয়েছেন অনিল দেশমুখ। সুশান্তের মৃত্যুর তদন্তে প্রায় চল্লিশ জনকে ইতিমধ্যেই জিজ্ঞাসাবাদ করেছে মুম্বই পুলিশ। ইতিমধ্যেই কঙ্গনা রানাওয়াতের কাছেও পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে সমন। এই মামলায় অভিনেত্রী বয়ান রেকর্ড করবে পুলিশ। করণ জোহরকেও সমন পাঠানো হবে কিনা সেই প্রশ্নের উত্তরে অনিল দেশমুখ জানিয়েছেন, করণের  ম্যানেজারকে সমন পাঠানো হয়েছে ভবিষ্যতে তাঁকেও প্রয়োজনে তলব করা হবে'।

উল্লেখ্য জীবদ্দশায় সুশান্তের শেষ ছবি ড্রাইভের প্রযোজক ছিলেন করণ জোহর। ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নেটফ্লিক্সে সরাসরি এই ছবি মুক্তি দেওয়ার করণের সিদ্ধান্তে সায় ছিল না সুশান্তের। সেই নিয়ে দুজনের মনোমালিন্যের খবরও গত বছর সামনে এসেছিল। সেই নিয়েই বেশকিছু প্রশ্নের মুখে পড়তে হতে পারে অপূর্ব মেহতাকে। সুশান্তের মৃত্যুর পরেই মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর তরফে জানানো হয়েছিল, সুশান্তের আত্মহত্যার কারণ হিসাবে পেশাদার জগতের রেষারেষির বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখছে মুম্বই পুলিশ। সঞ্জয় লীলা বনশালি, আদিত্য চোপড়ার মতো বলিউডের একাধিক নামী ব্যক্তিত্বকে ইতিমধ্যেই এই মামলায় জিজ্ঞাসাবাদ করেছে মুম্বই পুলিশ।

করণ জোহরের ম্যানেজার রেশমা শেট্টির বয়ান আগেই রেকর্ড করেছে মু্ম্বই পুলিশ। গত ১১ জুলাই জেরা করা হয় রেশমাকে। যদিও করণ জোহরকে সমন না পাঠিয়ে তাঁর অ্যাসোসিয়েটদের জেরা করার বিষয়টি নিয়ে হয়রান কঙ্গনা রানায়াত। এদিন টুইট বার্তায় ক্ষোভ উগরে দেয় টিম কঙ্গনা রানাওয়াত।

 তাঁদের দাবি সুশান্তের মৃত্যুটাকে প্রহসনে পরিণত করেছে মুম্বই পুলিশ। তাঁরা কঙ্গনাকে সমন পাঠাচ্ছে, অভিনেত্রীর ম্যানেজারকে নয়, অথচ করণ জোহরের জায়গায় তাঁর ম্যানেজারকে ডেকে পাঠানো হচ্ছে! কেন? কারণ করণ জোহর মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের ছেলে আদিত্য ঠাকরের ব্রেস্ট ফ্রেন্ড'।

১৪ ই জুন মুম্বইয়ের বান্দ্রার অ্যাপার্টমেন্ট থেকে উদ্ধার হয় সুশান্তের দেহ। মুম্বই পুলিশের দাবি আত্মহত্যাই করেছেন অভিনেতা, এই মামলায় কোনওরকম ফাউল প্লে'র সম্ভাবনা এখনও খুঁজে পাননি তদন্তকারীরা। 

বন্ধ করুন