বাড়ি > বায়োস্কোপ > চিনের অগ্রাসন নিয়ে সলোনি গৌরের কৌতুক ভিডিয়ো ডিলিট করল TikTok!
ফের বিতর্কে টিকটক (ছবি সৌজন্যে-টুইটার)
ফের বিতর্কে টিকটক (ছবি সৌজন্যে-টুইটার)

চিনের অগ্রাসন নিয়ে সলোনি গৌরের কৌতুক ভিডিয়ো ডিলিট করল TikTok!

  • লাদাঘ সীমান্তে চিনের অগ্রাসন নিয়ে সলোনি গৌরের কৌতুক ভিডিয়ো ডিটিল করল টিকটক ইন্ডিয়া। সলোনির অভিযোগ-যেমন দেশ,তেমন অ্যাপ।

'টিকটকে বাক স্বাধীনতা নেই', এবার জনপ্রিয় সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটের বিরুদ্ধে এমনই অভিযোগ কমেডিয়ান সলোনি গৌরের। ২০ বছরের এই স্টান্ড আপ কমেডিয়ান ভারতীয় সোশ্যাল মিডিয়ার সেনসেশন। সলোনির নাজমা আপি চরিত্রটি অত্যন্ত জনপ্রিয়। নাজমা আপি হিসাবে ভারত-চিন বর্তমান সম্পর্কের প্রেক্ষিতে একটি কৌতুক ভিডিয়ো তৈরি করেছিলেন সলোনি। চিনের অগ্রাসন নিয়ে তৈরি সেই কৌতুক ভিডিয়ো ডিলিটের অভিযোগ উঠল টিকটকের বিরুদ্ধে। 

টুইটারে দেওয়ালে সলোনি লেখেন, তাহলে টিকটক ইন্ডিয়া আমার শেষ ভিডিয়োটি ডিলিট করে দিল,যেখানে আমি চিনকে নিয়ে মজা করেছি। যেমন দেশ,তেমন অ্যাপ। কিছু বলার স্বাধীনতাই নেই।

লাদাঘ সীমান্তে চিনের অগ্রাসন নিয়ে কার্যত অচলাবস্থা জারি রয়েছে লাদাঘে, সেই নিয়েই একটি ভিডিয়ো বানিয়েছিলেন সলোনি। নাজমা আপি হিসাবে তৈরি সেই ভিডিয়োতে টিকটককেও একহাত নিয়েছেন এই কমেডিয়ান। তিনি বলেছিলেন, 'প্রথমে চিন সস্তা ফোন এবং টিকটক পাঠিয়ে ভারতের ইয়ুথ বরবাদ করেছে, তারপর করোনা পাঠিয়ে গোটা দেশ বন্ধ করিয়ে দিল। এরপর সব ধীরে ধীরে ঠিক হচ্ছে তো এদের আমাদের জমি চাই.. মানছি লাদাঘ সু্ন্দর জায়গা তাই বলে কি ওখানেই থাকবে?'

 দেখুন সেই ভিডিয়ো-

ইনস্টাগ্রামে প্রায দেড়লক্ষ ফলোয়ার রযেছে সলোনির, ইউটিউবেও তাঁর সাবস্ক্রাইবার সংখ্যা লক্ষাধিক। সিএএ বিরোধী আন্দোলন, দিল্লি পুরিশের আচরণ নিয়ে একাধিক ভিডিয়ো তৈরি করে চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে উঠে আসেন সলোনি। দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের পটিলিক্যাল সায়েন্সের ছাত্রী এই কমেডিয়ান।

সম্প্রতি বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দুতে থেকেছে চাইনিজ অ্যাপ টিকটক। একাধিকবার সোশ্যাল মিডিয়ায় টিকটককে ব্যান করবার দাবি উঠেছে। টিকটকে অ্যাসিড হামলার প্রচার,পশু নির্যাতনের মতো ঘটনার প্রচারের জেরে রোষের মুখে পড়েছে টিকটক কর্তপক্ষ।

বন্ধ করুন