বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > তিতলি: পারিশ্রমিক নিয়ে বিবাদ,কলাকুশলীদের প্রতিবাদে সাময়িক বন্ধ হল শ্যুটিং!
তিতলির শ্যুটিং জট!
তিতলির শ্যুটিং জট!

তিতলি: পারিশ্রমিক নিয়ে বিবাদ,কলাকুশলীদের প্রতিবাদে সাময়িক বন্ধ হল শ্যুটিং!

  • ফের শ্যুটিং জট টেলিপাড়ায়! পারিশ্রমিক নিয়ে কাজিয়ার জেরে সাময়িকভাবে থমকে গিয়েছিল ‘তিতলি’র শ্যুটিং। 

টলিগঞ্জ পাড়ায় শ্যুটিং জট যেন কেটেও কাটে না! গত সপ্তাহেই প্রযোজক-ফেডারশন দ্বন্দ্ব পাকাপাকিভাবে মেটাতে মুখোমুখি বসেছিল দুই পক্ষ. যদিও আলোচনা নাকি ভেস্তে যায়। এরপর সোমবরাই পারিশ্রমিক বিতর্ক নিয়ে সমস্যার জেরে সাময়িকভাবে শ্যুটিং বন্ধ হয় সুশান্ত দাসের ‘তিতলি’র। টেনস ফিল্মসের কর্ণধার সুশান্ত দাস, ‘তিতলি’র শ্যুটিং বন্ধ হওয়ার বিষয় নিয়ে এক সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘মতোবিরোধ হয়েছিল, সব মিটে গিয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই শ্যুটিং চলছে’। 

যদিও টেলিপাড়ার অন্দরে কিন্তু শোনা যাচ্ছে অন্য কথা। লকডাইনে পারিশ্রমিক বিতর্ক নিয়ে প্রযোজক-ফেডারশেন মতপার্থক্য জিইয়েই রয়েছে, নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পরিচালক তেমনই দাবি করেছেন। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের জেরে স্টুডিওপাড়ায় তালা পড়লে শিল্পীদের মতোই কলাকুশলীদের পারিশ্রমিক দেওয়া বন্ধ করেননি প্রযোজকেরা। যদিও শ্যুট ফ্রম হোমে কুশীলবরা কিন্তু অংশ নেননি। কাজ না করে পারিশ্রমিক (পড়ুন অর্থ সাহায্য) নেওয়ার ব্যাপারে আপত্তি জানিয়েছিল ফেডারেশন, গিল্ড। অ্যাকাউন্টে পারিশ্রমিক ঢুকলে তা ফেরত দিয়ে দেওয়ার দাবি জানায় দুই সংগঠন।

পরবর্তীতে প্রযোজকরা বলেছিলেন পরবর্তী সময়ে পারিশ্রমিক থেকে এই অর্থ কেটে নেওয়া হবে। যাতে সম্মতি জানায় ফেডারেশন। বাস্তবে সেটা ঘটতেই দেখা গেল অন্য ছবি। ‘তিতলি’ সিরিয়ালের কলাকুশলীদের পারিশ্রমিক থেকে নির্দিষ্ট অর্থ কেটে নিতেই শ্যুটিং থেকে বেঁকে বসেন তাঁরা। 

ফেডারেশনে সম্পাদক অপর্ণা ঘটক ‘তিতলি’র শ্যুট বন্ধ হয়ে যাওয়ার কোনও খবর জানেন না বলেই দাবি করেছেন। তবে পারিশ্রমিক জট নিয়ে যে সমস্যা তৈরি হচ্ছে বা হবে তা দু-পক্ষের আলোচনার মাধ্যমে কোনও সিদ্ধান্তে পৌঁছানোর কথা বলেন তিনি। 

 

বন্ধ করুন