বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ইন্দোরে ‘পাঠান’-এর প্রদর্শন বন্ধ করে ‘পয়গম্বর বিরোধী’ স্লোগান! কাঠগড়ায় বজরং দল

ইন্দোরে ‘পাঠান’-এর প্রদর্শন বন্ধ করে ‘পয়গম্বর বিরোধী’ স্লোগান! কাঠগড়ায় বজরং দল

পাঠানের প্রদর্শন ঘিরে উত্তপ্ত ইন্দোর

‘জয় শ্রীরাম স্লোগান’ তুলে সিনেমা হলে তাণ্ডব বজরং দল কর্মীদের। পাঠান-এর স্ক্রিনিং আটকে দেওয়া হল ইসলাম বিরোধী স্লোগান, প্রতিবাদে পথে নেমে প্রতিবাদ মুসলিম সংগঠনগুলির, দায়ের হয়েছে এফআইআর। 

‘জয় শ্রী রাম’ স্লোগান তুলে ইন্দোরের প্রেক্ষাগৃহে পাঠান-এর বেশকিছু স্ক্রিনিং আটকে দিল হিন্দু সংগঠন বজরং দলের সদস্যরা। মধ্যপ্রদেশে শুরু থেকেই ‘পাঠান’ বিরোধী হাওয়া প্রবল। রাজ্যের নেতা-মন্ত্রীরা পর্যন্ত ছবির বিরেধিতায় সোচ্চার হয়েছিলেন। ছবি মুক্তির দিনেও ইন্দোরে স্বস্তি পেলেন না শাহরুখ ভক্তরা। পাঠানের স্ক্রিনিং আটকাতে প্রেক্ষাগৃহে ঢুকে পড়ে বিরোধ প্রদর্শন করে বজরং দলের সদস্যরা। সকালের দিকের বেশকিছু শো-এর জেরে বাতিল করতে হয় হল মালিকদের।

এখানেই শেষ নয়, এদিন ইন্দোরের কস্তুর সিনেমা হলের সামনে শাহরুখের ছবির বড় বড় হোর্ডিং, পোস্টার ছিঁড়ে ফেলে বজরং দল, পরবর্তী সেখানে বাজানো হয় হনুমান চাল্লিশা। তোলা হয়, ‘পয়গম্বর বিরোধী’ স্লোগান। গোটা ঘটনা ক্যামেরাবন্দি হয়েছে। স্বভাবতই বিক্ষোভের আঁচ ছড়াতে দেরি হয়নি। শুধু পয়গম্বর নয়, শাহরুখ খানকে নিয়েও একাধিক কটূক্তি এবং অশ্লীল গালিগালাজ করে স্লোগান দেওয়া হতে থাকে। বজরং দলের অভিযোগ এই ছবিতে হিন্দু ধর্মের অবমাননা করা হয়েছে। গেরুয়া বিকিনি বিতর্কের আঁচ এখনও কমেনি মধ্যপ্রদেশে।

এদিন পয়গম্বর মহম্মদকে নিয়ে বজরং দল কর্মী-সমর্থকদের ‘অশ্লীল মন্তব্য’ ঘিরে প্রতিবাদে পথে নাম মুসলিম সংগঠনগুলি। থানার বাইরে অবস্থান বিক্ষোভে বসে তাঁরা। তাঁদের সাফ বক্তব্য, ‘শাহরুখ খানের সঙ্গে আমাদের কোনও সম্পর্ক নেই, চাইলে শাহরুখের বাড়িতে কেউ আগুন লাগিয়ে দিক, কিন্তু আমাদের নবীর বিরুদ্ধে মন্তব্য আমরা সহ্য করব না’। এরপর চন্দনপুরা পুলিশ থানায় অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়। ভারতীয় দণ্ডবিধির ৫০৫ ধারায় এফআইআর রুজু হয়েছে। 

শুধু ইন্দোর নয়, পাঠান মুক্তির ঠিক এক দিন আগে পুণেতে বজরং দল ‘পাঠান’-এর বিরোধিতা করে প্রেক্ষাগৃহে ভাঙচুর চালায়। মঙ্গলবার শহরের এক প্রেক্ষাগৃহের সামনে থেকে খুলে ফেলা হল শাহরুখ-দীপিকার পোস্টার। পুণের রাহুল থিয়েটারের বাইরে ঘটে এই ঘটনা। রীতিমতো হুমকি দেওয়া হয় শাহরুখ ভক্তদের। 

যদিও এই বিক্ষিপ্ত বিক্ষোভের জেরে ‘পাঠান’ ঘিরে তৈরি উন্মাদনায় ভাটা পড়েনি একবিন্দু। এদিন কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারী, কলকাতা থেকে কচ্ছ- শাহরুখ জ্বরে কাবু গোটা দেশ। দুপুর তিনটে পর্যন্ত দেশের মাল্টিপ্লেক্স গুলিতে ২০ কোটির টিকিট বিক্রি হয়েছে পাঠানের। বোঝাই যাচ্ছে প্রথম দিনে রেকর্ড ব্রেকিং আয় করতে চলেছে এই ছবি। 

আরও পড়ুন-‘সাহেবের চিঠি’র পর আচমকাই বন্ধ হল আরও এক মেগা সিরিয়াল! হয়ে গেল শেষ দিনের শ্যুটিং

বিনোদন সম্পর্কিত খবর আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

বন্ধ করুন