বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Pilu Update: রঞ্জা-মল্লারের সিজলিং কেমিস্ট্রির নেপথ্যে রয়েছে কোন জাদুমন্ত্র? জবাব দিলেন ধ্রুব
মল্লার-রঞ্জায় মুগ্ধ দর্শক

Pilu Update: রঞ্জা-মল্লারের সিজলিং কেমিস্ট্রির নেপথ্যে রয়েছে কোন জাদুমন্ত্র? জবাব দিলেন ধ্রুব

  • Dhruba on Ranjha-Mallar: ‘রঞ্জা-মল্লারের চোখে চোখে কথা বলাটা আমি এনজয় করি’, ‘পিলু’ ধারাবাহিকের সুবাদে এখন জি বাংলার পছন্দের নায়ক ধ্রুব।

জি বাংলার দর্শকের অত্যন্ত পছন্দের ধারাবাহিক পিলু। ধারাবাহিক শুরু হয়েছিল পিলু আর আহিরের প্রেম কাহিনি ঘিরে। তবে ধীরে ধীরে এই সিরিয়ালের লাইমলাইট কেড়ে নিয়েছে মল্লার-রঞ্জা জুটি। এক কথায় দর্শকরা চোখে হারাচ্ছে এই জুটিকে। রঞ্জা ও মল্লারের চরিত্রে অভিনয় করছেন অভিনেত্রী ইধিকা পাল এবং অভিনেতা ধ্রুব সরকার।

রঞ্জা-মল্লারের রসায়ন নিয়েও ব্যাপক চর্চা ফ্যান পেজগুলোতে। রঞ্জা ও মল্লারের মধ্যে সম্পর্কের উষ্ণ অভিমানের পালা তাড়িয়ে তাড়িয়ে উপভোগ করেছে দর্শক। জুটির মাঝে তৃতীয় ব্যক্তি হিসাবে বিন্দি ঢোকবার চেষ্টা করায় গল্পে এসেছে নতুন মোড়।

মিঠাই-এর সোমদা মানে অভিনেতা ধ্রুবজ্যোতি সরকার এখন রঞ্জার মল্লার হিসাবে প্রশংসা কুড়োচ্ছেন দু-হাতে। খলনায়ক হিসাবে ‘পিলু’তে এন্ট্রি নিয়ে এখন নায়ককে পিছনে ফেলেছেন তিনি, এই নিয়ে কী বলছেন ধ্রুব? হিন্দুস্তান টাইমস বাংলাকে অভিনেতা জানালেন,'এটা একটা বড় পাওনা। সিরিয়ালে যেভাবে চরিত্রটা ঢুকেছিল আর এখন পুরো টার্ন নিয়ে অন্যরকম চরিত্র এসে দাঁড়িয়েছে। যে ভূমিকাটা ফুটিয়ে তুলতে আমার খুব ইন্টারেস্টিং লাগছে। প্রত্যেকটা দৃশ্যে অনেককিছু করবার আছে। একটা নেতিবাচক চরিত্র ধীরে ধীরে কীভাবে পরিবর্তিত হল, সেই পরিবর্তনটা আমাদের লেখিকা রাখিদি খুব সুন্দরভাবে দেখেছি, একজন অভিনেতার ক্ষেত্রে এটা বড় পাওনা। আমি খুব এনজয় করছি'।

রঞ্জার সঙ্গে রসায়ন নিয়ে কী বললেন মল্লার? ধ্রুবর কথা, ‘আমি কীভাবে সংলাপ শেষ করব, ও কোথায় শুরু করবে… এই যে একটা কম্পোজিশন, এই যে একে অপরের প্রতি বিশ্বাস, সেটা আমাদের দুজনের পরস্পরের প্রতি রয়েছে। এই যে কেমিস্ট্রিটা… চোখে চোখে কথা বলা যেটা মূলত রঞ্জা আর মল্লারের মধ্যে হয় সেটা আমার খুব ভালো লাগে। ইধিকা ভীষণ ভালো অভিনেত্রী, ওর সঙ্গে কাজ করে আমি আপ্লুত’।

বিন্দি কাঁটা কি দূর হবে রঞ্জা-মল্লারের জীবন থেকে? 
বিন্দি কাঁটা কি দূর হবে রঞ্জা-মল্লারের জীবন থেকে? 

আরও পড়ুন-সোমদা কি আর ফিরবে না মিঠাইতে? জবাব দিলেন ধ্রুব, বললেন- ‘পিলু ছেড়ে এখন..’

রঞ্জার সঙ্গে ভাঙতে বসা সম্পর্ক তিলে তিলে গড়ে তুলছিলেন মল্লার। অথচ নিজেকে মল্লারের প্রথম স্ত্রী হিসাবে দাবি করে সেই সম্পর্কে ফাটল ধরানোর চেষ্টা করেছে বিন্দি। যদিও স্বামীর প্রতি ভরসা রেখে বিন্দির পর্দাফাঁস করতে গিয়ে নিশ্চিত মৃত্যুর মুখ থেকে বেঁচে ফিরেছে রঞ্জা। মহাদেব রায়ের সঙ্গে বিন্দির বিয়ের প্রমাণ জোগাড়ে শেষমেষ কি সফল হবে রঞ্জা-মল্লার? সেটাই এখন দেখবার।

 

 

বন্ধ করুন