বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > প্রকাশ জাভড়েকরকে ঘিরে কলকাতায় চাঁদের হাট, অনুষ্ঠানে হাজির ঋতুপর্ণা-পাওলি-আবিররা
ঋতুপর্ণা, আবির, পাওলিরা রবিবার হাজির ছিলেন সরকারি অনুষ্ঠানে (ফাইল ছবি)
ঋতুপর্ণা, আবির, পাওলিরা রবিবার হাজির ছিলেন সরকারি অনুষ্ঠানে (ফাইল ছবি)

প্রকাশ জাভড়েকরকে ঘিরে কলকাতায় চাঁদের হাট, অনুষ্ঠানে হাজির ঋতুপর্ণা-পাওলি-আবিররা

  • কেন্দ্র সরকারের ডাকে কলকাতায় তারকা সমাবেশ। বৈঠকে হাজির মমতা ঘনিষ্ঠরাও! 

একুশের বিধানসভা ভোটের আগে কেন্দ্র-রাজ্য সংঘাত চরমে। বাংলার মসনদ দখলের লড়াইয়ে ঘুঁটি সাজাচ্ছেন মোদি-অমিত শাহরা। এক ইঞ্চিও জমি না ছাড়বার অঙ্গীকার করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। বিজেপি দল ভাঙানোর রাজনীতি করছে অভিযোগ তৃণমূলের, এরমাঝেই নতুন জল্পনা শুরু রবিবার কেন্দ্রীয় তথ্য সম্প্রচার মন্ত্রীর সঙ্গে টলিগঞ্জ তারকাদের সাক্ষাত্ ঘিরে। 

সোমবার শহরের এক পাঁচ তারা হোটেলে এনএফডিসি-র (NFDC)-র অনু্ষ্ঠানে হাজির ছিলেন কেন্দ্রীয় তথ্য সম্প্রচার মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর ((Prakash Javadekar)। মোদীর বঙ্গসফরের কয়েক ঘন্টার মধ্যেই ছিল এদিনের বৈঠক। সেখানে হাজির ছিলেন টলিগঞ্জের একটা বড় অংশ, উল্লেখযোগ্যভাবে তৃণমূল ঘনিষ্ঠ হিসাবে পরিচিত বহুমুখকেই দেখা গেল এদিনের সরকারি অনুষ্ঠানে। 

সোমবার এনএফডিসি আয়োজিত এই অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন প্রকাশ জাভড়েকর, বর্ষীয়ান অভিনেতা বিশ্বজিৎ চট্টোপাধ্যায়, ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত, রূপা গঙ্গোপাধ্যায়, মমতা শঙ্কর এবং রাশিদ খান। এদিন বিজেপির তাবড় তাবড় তারকা নেতৃত্বের সকলেই হাজির ছিলেন এই মঞ্চে। রূপা গঙ্গোপাধ্যায়ের পাশাপাশি বাবুল সুপ্রিয়র মতো হেভিওয়েট বিজেপি নেতা, বিজেপির পরিচিত মুখ কাঞ্চনা মিত্র থেকে সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া হিরণ চট্টোপাধ্যায়- সকলের দেখা মিলল এইদিনের অনুষ্ঠানে।

অভিনেতা আবির চট্টোপাধ্যায়, পরিচালক অরিন্দম শীল, অনীক দত্ত, গৌতম ঘোষ, নন্দিতা রায়, প্রযোজক মহেন্দ্র সোনি, নিসপাল সিং রানেরাও এদিনের সরকারি অনুষ্ঠানে যোগ দেন। এঁরা সকলেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ হিসাবেই পরিচিত। ভোটের আগে বিশিষ্টদের দলে টানতেই বিজেপির এই প্রয়াস, মনে করছে রাজনৈতিক মহলের একটা অংশ। তবে সেই দাবি মানতে নারাজ বিজেপি। তাঁদের মতে, এটা নিছক সরকারি অনুষ্ঠান।

কী আলোচনা হল বৈঠকে? টলিউড তারকারা বলছেন, বাংলা ছবির সার্বিক উন্নয়নের জন্য কী কী পদক্ষেপ প্রয়োজন তাই নিয়ে আলোচনা হয়েছে। অভিনেত্রী তনুশ্রী চক্রবর্তীর বক্তব্য, তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রকের তরফে চলচ্চিত্র জগতের বহু সদস্যের কাছে আমন্ত্রণ এসেছিল। এটা কোনও রাজৈনিতক বৈঠক নয়। 

এদিনের বৈঠকেই বিরাট ঘোষণা সেরেছেন তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রী। প্রকাশ জাভেড়েকর জানান, এবার দাদাসাহেব ফালকের ধাঁচে জাতীয় স্তরে সত্যজিত রায় পুরস্কার (Satyajit Ray Award) চালু করছে কেন্দ্র সরকার। ভোটের আগে বাঙালির আবেগে সুড়সুড়ি দিতেই এই ঘোষণা তা একবাক্যে মেনে নিচ্ছে রাজনৈতিক মহল। 

 

বন্ধ করুন