বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > চেক বই নিয়ে বাজার করতে যান ‘খড়ি’র বাবা রতন সর্খেল, দাদাগিরিতে কীর্তি হল ফাঁস
‘গাঁটছড়া’র রতন সর্খেলের বাজার করার গল্প শুনলে অবাক হবেন। 

চেক বই নিয়ে বাজার করতে যান ‘খড়ি’র বাবা রতন সর্খেল, দাদাগিরিতে কীর্তি হল ফাঁস

  • আট ভাই আর পাঁচ বোন যেহেতু একই সঙ্গে থাকেন, তাই বাজার করতেও হয় প্রচুর পরিমানে। দাদাগিরিতে শুনিয়েছিলেন তাঁদের পরিবারের বাজার করার গল্প।

তারকাদের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে চর্চা চলতেই থাকে। তাঁদের মুখ থেকে দৈনন্দিন জীবনের গল্প শুনতেও মানুষ খুবই পছন্দ করেন। দাদাগিরির মঞ্চে এসে সকলকে নিজের বাজার করার গল্প শুনিয়ে অবাক করে দিয়েছিলেন অভিনেতা রতন সর্খেল।

রতন সর্খেল এখন অভিনয় করছেন ‘গাঁটছড়া’। খড়ি-ধদ্ধি আর বনির বাবার ভূমিকায় অভিনয় করছেন। সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের সঙ্গে কথা প্রসঙ্গে খোলসা করলেন নিজের বাজার করার গল্প। আসলে বিশাল বড় পরিবার তাঁর। সবাই একই ছাদের তলে থাকেন। একসঙ্গেই রান্না আর খাওয়া-দাওয়া হয়।

আট ভাই আর পাঁচ বোন যেহেতু একই সঙ্গে থাকেন, তাই বাজার করতেও হয় প্রচুর পরিমানে। ২৫ জন মানুষ। দু'বেলা ৫০ জনের রান্না হয়। কোন ভাই কখন বাজারে যাচ্ছে তার কোনও হিসেবই থাকে না। অভিনেতা জানালেন, ‘আমাদের বাড়িতে খাওয়াটাই ধর্ম, ধর্মই খাওয়া’।

রতন জানান, তাঁর দাদারই বাজার করে। তবে মাঝেমধ্যে তাঁকেও ঠেলে পাঠানো হয়। তিনি কিনতে ভালোবাসেন আম আর মাছ। আর দামি মাছ কিনে ফেলেন। এরকমও হয়েছে ছয় হাজার টাকার ইলিশ মাছ কিনে ফেললেন। এরকম পরিস্থিতিতে তিনি চেক ধরিয়ে দেন মাছওয়ালার হাতে। বরাবর এভাবে চেক বই নিয়ে বাজার করতে অভ্যস্ত অভিনেতা।

একথা শুনে মাথায় হাত পড়ে যায় সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের। হেসে ফেলেন সেটে উপস্থিত অন্য তারকারাও।

 

বন্ধ করুন