বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > পান মশলার বিজ্ঞাপন করেন কেন? ট্রোলারকে সপাটে জবাব অমিতাভের, 'টাকা পাই, তাই করি!'
প্রায় আশি ছুঁই ছুঁই বয়সেও এখনও অটুট টিনার 'অ্যাংরি ইয়ং ম্যান' ব্যক্তিত্ব। (ছবি সৌজন্যে - ইনস্টাগ্রাম)
প্রায় আশি ছুঁই ছুঁই বয়সেও এখনও অটুট টিনার 'অ্যাংরি ইয়ং ম্যান' ব্যক্তিত্ব। (ছবি সৌজন্যে - ইনস্টাগ্রাম)

পান মশলার বিজ্ঞাপন করেন কেন? ট্রোলারকে সপাটে জবাব অমিতাভের, 'টাকা পাই, তাই করি!'

  • সম্প্রতি, ফেসবুকে অমিতাভ বচ্চনকে এক ব্যক্তি হঠাৎ জিজ্ঞেস করে বসেন যে কেন বলি-তারকা পান মশলার বিজ্ঞাপন করেন? প্রশ্নটি চোখে পড়ামাত্রই ভদ্রতার পাঠ শিখিয়ে সপাটে জবাব দিয়ে তাঁকে চুপ করিয়ে দিয়েছেন অমিতাভ। 

সোশ্যাল মিডিয়ায় যথেষ্ট সক্রিয় অমিতাভ বচ্চন। মাঝেমধ্যেই নিজের ফলোয়ার্সদের সঙ্গে সেখানে গল্প-আড্ডায় মেতে ওঠেন তিনি। কোনও কোনও নেট নাগরিকের প্রশ্নের জবাবও দেন তৎক্ষণাৎ। শুক্রবার এরকমই এক ফেসবুকে ফ্যানদের সঙ্গে আড্ডায় বসেছিলেন 'শাহেনশাহ'। ওইদিন ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন 'বিগ বি'। হিন্দিতে লেখেন, ' যেদিন থেকে হাতে ঘড়ি পড়া শুরু করেছি, সময় দেখছি পিছুই ছাড়ছে না'। 

সেই পোস্টেরই কমেন্ট বক্সে বলি-তারকাকে এক ব্যক্তি হঠাৎ জিজ্ঞেস করে বসেন,' স্যার, আপনার জন্য আমার স্রেফ একটি প্রশ্নই রয়েছে। কেন আপনি পান মশলার বিজ্ঞাপন করেন? তাহলে আপনার সঙ্গে অর্থলোভী, দৈন্যদশা শিল্পীদের কী তফাৎ থাকল?' প্রশ্নটি চোখে পড়ামাত্রই সপাটে জবাব দিয়েছেন অমিতাভ।

কোনও রাখঢাক না করে অমিতাভ লেখেন, 'যদি বেশ কিছু সংখ্যক মানুষ এই নির্দিষ্ট ইন্ডাস্ট্রির সুবাদে উপার্জন করতে পারছেন তাহলে 'আমি কেন এই সংস্থার বিজ্ঞাপন করছি?' মার্কা চিন্তাভাবনা এইমুহূর্তে বন্ধ করে দেওয়া উচিত। আর হ্যাঁ, আপনি ব্যক্তিগতভাবে মনে করতেই পারেন যে কেন আমি এই পণ্যের প্রচার করছি। জানিয়ে রাখি, তার বদলে কিন্তু আমি টাকাও পাচ্ছি'। এখানেই না থেমে অমিতাভ আরও লেখেন, ' আমাদের ইন্ডাস্ট্রিতে অনেকেই আছেন যাঁরা শ্রমিক এবং বেশ কষ্ট করেই উপার্জন করেন। তাই এই 'দৈন্যদশা' ধরনের শব্দ ব্যবহার করবেন না। আপনার মত ভদ্রলোকের তরফে এই কথাটা শোনা মোটেই ভালো লাগে না। আর জানিয়ে রাখি, আমাদের ইন্ডাস্ট্রিতে প্রচুর শিল্পী কাজ করেন, তাই সবাইকে এই শব্দের আওতায় ফেলবেন না!'

ফেসবুকে সেই ব্যক্তির সঙ্গে অমিতাভের কথোপকথন।
ফেসবুকে সেই ব্যক্তির সঙ্গে অমিতাভের কথোপকথন।

প্রসঙ্গত, পঞ্চাশ বছরেরও বেশি সময় ধরে বলিউডে কাজ করে চলছেন অমিতাভ বচ্চন। হিন্দি ছবির ইতিহাসে সর্বকালের সেরার তালিকায় রাখার মতো বহু ছবি উপহার দেওয়ার পাশাপাশি অসংখ্য পণ্যের বিজ্ঞাপনী প্রচারের মুখও হয়েছেন তিনি। এইমুহূর্তে কেবিসি-র ১৩ নম্বর সিজন সঞ্চালনার কাজে ব্যস্ত রয়েছেন অমিতাভ। পাশাপাশি মুক্তির অপেক্ষায় দিন গুনছে 'ঝুন্ড', 'ব্রহ্মাস্ত্র', 'গুডবাই', 'মে ডে' এর মতো একগুচ্ছ ছবি।

বন্ধ করুন