বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > কী খেয়ে চটপট ১৫ কেজি ওজন ঝরালেন ভারতী? ফাঁস করলেন জেসমিন, দেখলে অবাক হবেন!
ভারতীর ডায়েট ফাঁস করলেন জেসমিন
ভারতীর ডায়েট ফাঁস করলেন জেসমিন

কী খেয়ে চটপট ১৫ কেজি ওজন ঝরালেন ভারতী? ফাঁস করলেন জেসমিন, দেখলে অবাক হবেন!

  • চোখে দেখলে বিশ্বাস করতে পারবেন না, এমনটাও সম্ভব? 

ভারতী সিং-কে দেখলে আজকাল অবাক হবেন। গোলুমোলু ভারতী দিনকয়েকের মধ্যেই ১৫ কেজি ওজন ঝরিয়ে ফেলেছেন। কমেডিয়ানের নতুন অবতার দেখে ভিরমি খাচ্ছেন অনেকেই। তবে জানেন কি এত দ্রুত কীভাবে ওজন কমালেন ভারতী? ভারতীর কাছের বান্ধবী তথা অভিনেত্রী জেসমিন ভাসিন সম্প্তি ভারতীর ডিনারের মেনু ফাঁস করেছেন। যা দেখে চোখ কপালে সকলের!

ভিডিয়োতে দেখা গেছে থালায় রাখা ভাতের উপর ঘি ঢালছেন ভারতী। ভারতীকে বলতে শোনা গেল, ‘এবার যোগ করলাম ঘি’। এরপর থালায় ডাল ঢালতে শুরু করেন ভারতী, পাশ থেকে জেসমিন বলে ওঠেন- ‘এবার ঘিয়ের তরকা দেওয়া ডাল’। এরপর ভারতী বলে চলেন, ‘দুনিয়ার লোকজন বলছে আমি রোগা হচ্ছি, টাইম দেখুন আমি কখন খাচ্ছি’। শেষে জেসমিন বলেন, ‘এটাই ভারতীর রোগা হওয়ার রহস্য… চার চামচ ঘি, তেল জবজবে আলুর সবজি আর তেল ভরপুর ডাল’। 

সম্প্রতি এক সাক্ষাত্কারে ভারতী জানিয়েছেন, দ্বিতীয় লকডাউনের সময় তিনি ওজন ঝরানোর প্রয়োজনীয়তা অনুভব করেন এবং ‘ইন্টারমিটেন্ট ফাস্টিং’ (intermittent fasting) এর মাধ্যমে চটজলদি ওজন কমাতেও সফল হয়েছেন। 

ভারতী জানিয়েছেন, এই ওজন হ্রাস তাঁকে শারীরিকভাবে আরও মজবুত করেছে, বিশেষত তাঁর বেশকিছু শারীরিক সমস্যা রয়েছে, যেমন ডায়াবেটিস, অ্যাস্থমা- সেগুলির ব্যাপারেও সহায়ক হয়েছে। কমেডিয়ানের কথায়, আগে তাঁর ওজন ছিল ৯১ কিলোগ্রাম, এখন দাঁড়িয়েছে ৭৬ কিলোগ্রামে।

ভারতী জানিয়েছেন, ‘আমি সন্ধ্যা ৭ থেকে পরদিন দুপুর ১২টা অবধি খাই না, এরপর দুপুর ১২টা বাজলেই খাবারের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ি। সাতটার পর ডিনার, এমনিতেও আমার শরীর সহ্য করে না। আমি ৩০-৩২ বছর প্রচুর খেয়েছি, এরপর একটু শরীরের যত্ন নেওয়ার সময় এসেছে। শরীরও ধীরে ধীরে সবকিছু মানিয়ে নিচ্ছে’।

‘এখন শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা দেখা দেয় না, অনেক হালকা মনে হয় নিজেকে। আমার অ্যাস্থমা আর ডায়াবেটিসের সমস্যাও অনেকটা নিয়ন্ত্রণে এসেছে’, জানান ভারতী। তবে স্ত্রীর এই ট্রান্সফরমেশনে নাকি একদম খুশি নয় হর্ষ! ভারতী জানান, হর্ষ আগের মতো ভারতীর ভুঁড়ির সঙ্গে খেলতে না পারার আফসোসেই কাহিল, পাশাপাশি বাইরে খাবার খাওয়া ভারতী একেবারে বন্ধ করে দিয়েছেন, এই বিষয় নিয়েও একদম খুশি নন হর্ষ।

বন্ধ করুন