বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > এ বছর দুর্গাপুজোয় শামিল হবেন না কাজল ও নায়িকার পরিবার, কারণ জেনে নিন
গত বছর দুর্গাপুজোর আনন্দে মাতোয়ারা কাজল (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)
গত বছর দুর্গাপুজোর আনন্দে মাতোয়ারা কাজল (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)

এ বছর দুর্গাপুজোয় শামিল হবেন না কাজল ও নায়িকার পরিবার, কারণ জেনে নিন

  • পরিবারে মৃত্যুশোকের যন্ত্রণা। সদ্যই দেওরকে হারিয়েছেন কাজল। তাই এবছর আর দুর্গাপুজোর আনন্দে যোগ দেবেন না কাজল ও তাঁর পরিবার।

হঠাৎ করেই দেবগণ পরিবারে নেমে এসেছে দুঃসময়ের কালো ছায়া। গত ৫ই অক্টবর প্রয়াত হয়েছে অভিনেতা অজয় দেবগণের ছোটভাই তথা পরিচালক অনিল দেবগন। সোশ্যাল মিডিয়ায় অনুরাগীদের উদ্দেশ্যে এই শোক সংবাদ জানিয়েছিলেন স্বয়ং অজয়। অভিনেতা জানিয়েছিলেন মাত্র ৪৫ বছর বয়সে অনিলের আচমকা মৃত্যুটা কেমনভাবে নাড়িয়ে দিয়েছে গোটা পরিবারকে। 

দেওরের মৃত্যুর দিন কয়েক পর সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রথম পোস্ট করলেন অভিনেত্রী কাজল। দুর্গাপুজোর জনহীন প্যান্ডেলের ছবি পোস্ট করে অভিনেত্রী লেখেন , এবার আর পুজো নয়। তবে আমি জানি মা আমার ওপর নজর রাখছেন, ওনার আশীর্বাদ আমাদের সকলেরই এখন খুব প্রয়োজন।' স্বভাবতই স্বজন হারার যন্ত্রনা ধরা পড়েছে অভিনেত্রীর পোস্টে।

কাজলের ইনস্টাগ্রাম স্টোরি 
কাজলের ইনস্টাগ্রাম স্টোরি 

মুম্বইয়ের অন্যতম জনপ্রিয় দুর্গাপুজো উত্তর বম্বে সার্বজনীনের পুজো, যা মূলত মুখার্জি বাড়ির পুজো নামেই পরিচিত। পুজোর চারটে দিন এখানে বাড়ির মেয়ের মতোই সব জোগাড়ের দায়িত্বে থাকেন কাজল, তনিশা, রানিরা। নিজেদের হাতে পরিবেশন করেন ভোগ।এই পুজোয় যোগ দেন বলিউডের প্রায় সব বাঙালি তারকাই। উপচে পড়ে সাধারণ মানুষের ভিড়। 

রাজু চাচা ছবিতে অনিলের নির্দেশনায় কাজ করেছিলেন কাজল। অন্যদিকে রাজ চাচা ছাড়াও অজয় দেবগণের ব্ল্যাকমেল ছবিটিও পরিচালনা করেন অনিল। অজয়ের মৃত্যু সংবাদ নিয়ে অজয় লেখেন, ' আমি গতকাল রাতে আমার ভাই অনিল দেবগনকে হারিয়েছি। তাঁর অকাল মৃত্যুতে আমাদের পরিবার শোকগ্রস্ত। তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করি। তবে মহামারীর কারণে, এবার আমাদের ব্যক্তিগত প্রার্থনা সভা আয়োজন করা হবে না।'

 ফারহান আখতার, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, অভিষেক বচ্চন প্রমুখ বলি তারকারাও তাঁদের শ্রদ্ধার্ঘ্য অর্পণ করেছেন প্রয়াত পরিচালককে। উল্লেখ্য ব্ল্যাকমেল্ ছবিতে অনিলের সাথে কাজ করেছিলেন দেশি গার্ল। অজয় দেবগণের প্রযোজক সংস্থার সঙ্গেও ওতোপ্রোতভাবে জড়িয়ে ছিলেন অনিল। সন অফ সর্দার ও শিবায়ে ছবির ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর ছিলেন অনিল দেবগণ।

বন্ধ করুন