বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বাদশা-নেহার কণ্ঠে বিখ্যাত 'কালা চশমা'! ঠিকঠাক রয়্যালটিটুকু পাননি মূল গানের গায়ক
‘কালা চশমা’ নিয়ে কথা বললেন অমর।

বাদশা-নেহার কণ্ঠে বিখ্যাত 'কালা চশমা'! ঠিকঠাক রয়্যালটিটুকু পাননি মূল গানের গায়ক

  • ১৯৯১ সালে প্রথম মুক্তি পায় 'কালা চশমা'। অমরের গাওয়া সেই গানের স্রষ্টা প্রেম হরদীপ এবং কম ঢিল্লোঁ। ২০১৬ সালে ধর্ম প্রোডাকশনস প্রযোজিত 'বার বার দেখো'-য় নতুন আঙ্গিকে গানটিকে ব্যবহার করা হয়।

'কালা চশমা' শোনেননি এমন মানুষ বোধ হয় খুঁজলেও মিলবে না। রিল হোক বা পার্টি, জমিয়ে নাচের জন্য এই গান চাই-ই চাই। জিমি ফ্যালন, ডেমি লোভাটোর মতো আন্তর্জাতিক তারকা থেকে শুরু করে ভারতীয় ক্রিকেট দল— পঞ্জাবি এই পপ গানে ভিডিয়ো করছেন সকলেই। কিন্তু গানটি যিনি গাইলেন, সেই অমর আরশি রয়ে গেলেন আঁধারেই। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এ বিষয়ে কথা বলেছেন তিনি।

১৯৯১ সালে প্রথম মুক্তি পায় 'কালা চশমা'। অমরের গাওয়া সেই গানের স্রষ্টা প্রেম হরদীপ এবং কম ঢিল্লোঁ। ২০১৬ সালে ধর্ম প্রোডাকশনস প্রযোজিত 'বার বার দেখো'-য় নতুন আঙ্গিকে গানটিকে ব্যবহার করা হয়। সিদ্ধার্থ মালহোত্র এবং ক্যাটরিনা কইফের উপর দৃশ্যায়িত রিমিক্সটি গেয়েছিলেন বাদশা এবং নেহা কক্কর। নরওয়ের নাচের বিখ্যাত গ্ৰুপ 'ক্যুইক স্টাইল'-এর সৌজন্যে সেই রিমিক্স পৃথিবীর নানা প্রান্তে ছড়িয়ে পড়ে।

অমর বলেন, 'আমার ছেলে বলছিল গানটি নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। কিন্তু দু'সপ্তাহ আগে পর্যন্তও ওর কথায় কান দিইনি। এর পর আমেরিকা, ইংল্যান্ড, কানাডা থেকে ফোন করে বন্দুরা বিষয়টি জানাল।'

তাঁর গান বিখ্যাত হয়েছে। কিন্তু সেই খ্যাতি থেকে অমরের কোনও অর্থলাভ হয়নি। গায়কের কথায়, 'যাঁরা গানটি নিয়ে ভিডিয়ো করছেন, তাঁরা আমার কথা জানেন বলে মনে হয় না। বিগত কয়েক সপ্তাহে গানটি নিয়ে এত হইচই হলেও আমি কোনও অর্থ পাইনি। ইংরেজিতে লেখা চুক্তি আমি বুঝতে পারি না। আর তখন আমি রয়্যালটির বিষয়টা ভালো বুঝতাম না। বুঝিনি যে গানটা এত সাফল্য পাবে।'

অমর জানান, গানটি নতুন করে তৈরির অনুমতি দেওয়ার পর খুব কম পরিমাণ ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয় তাঁকে।

অমর একজন পঞ্জাবি গায়ক। তাঁর প্রথম অ্যালবামের একটি গান 'কালা চশমা'। তিন দশকের কেরিয়ারে তাঁর একাধিক স্টুডিয়ো অ্যালবাম মুক্তি পেয়েছে। 'আজা নি আজা', 'রংলি কোঠি' সেগুলির মধ্যে অন্যতম।

বন্ধ করুন