বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বিক্ষোভকারী কৃষকদের সমর্থনে মুখ খোলায় রিহানাকে ‘বোকা’ বলে আক্রমণ কঙ্গনার
ভারতের বিক্ষোভরত কৃষকদের পাশে দাঁড়ালেন আন্তর্জাতিক তারকা রিহানা
ভারতের বিক্ষোভরত কৃষকদের পাশে দাঁড়ালেন আন্তর্জাতিক তারকা রিহানা

বিক্ষোভকারী কৃষকদের সমর্থনে মুখ খোলায় রিহানাকে ‘বোকা’ বলে আক্রমণ কঙ্গনার

  • ভারতের কৃষক আন্দোলন নিয়ে গোটা বিশ্বের মুখে কুলুপ কেন? প্রশ্ন আন্তর্জাতিক পপ তারকা রিহানার। 

ভারত সরকারের তরফে জারি করা নয়া কৃষিবিলের বিরুদ্ধে গত কয়েকমাস ধরেই পথে নেমেছেন কৃষকরা। এই বিক্ষোভের গন্ডি এখন দেশের সীমানা পেরিয়ে আছড়ে পড়েছে মার্কিন মুলুকেও। ভারতের বিক্ষোভকারী কৃষকদের সমর্থনে এবার মুখ খুললেন আন্তর্জাতিক পপ সেনসেশন রিহানা। টুইটারে যাঁর ফলোয়ার সংখ্যা ১০০ মিলিয়ানেরও বেশি সেই রিহানার প্রশ্ন, ‘কেন আমরা এই বিষয়ে (ভারতের কৃষি আন্দোলন) কথা বলছি না?’

মঙ্গলবার সকলকে অবাক করে নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে রিহানা ভারতের কৃষক বিক্ষোভ সংক্রান্ত সিএনএন-এর খবরের একটি লিঙ্ক টুইটারে পোস্ট করেন। সেখানে লেখা রয়েছে, ভারতের রাজধানী দিল্লির একাধিক অঞ্চলে ইন্টারনেট পরিষেবা বিচ্ছিন্ন করে দেওয়ার কথা, লেখা রয়েছে ২৬ শে জানুয়ারি বিশ্বের সর্ববৃহত গণতন্ত্রের প্রজাতন্ত্র দিবসে পুলিশ ও বিক্ষুদ্ধ কৃষকদের খন্ডযুদ্ধের পরিস্থিতির কথা।  

রিহানার এই টুইট নিমেষেই আগুনের মতো ছড়িয়ে পড়ে এবং ভারতের টুইটারের বাসিন্দারাও এই নিয়ে দু-ভাগে ভাগ হয়ে যান। রিহানার এই টুইট শেয়ার হয়েছে প্রায় ২ লক্ষ বার, টুইটিটতে লাইক দিয়েছেন প্রায় ৫ লক্ষ নেট নাগরিক। পপস্টারের এই টুইট নজর এড়ায়নি কঙ্গনারও। তিনি রিহানাকে পালটা আক্রমণ শানিয়ে লেখেন, ‘কেউ এ সব নিয়ে কথা বলছে না, কারণ ওরা কৃষক নয়, ওরা সন্ত্রাসবাদী যারা দেশ ভাগ করতে চাইছে। যাতে টুকরো টুকরো হয়ে যাওয়া আমাদের দেশের নিয়ন্ত্রণ নিতে পারে চিন এবং সেখানে চিনা উপনিবেশ তৈরি করতে পারে। যেমন আমেরিকায় হয়েছে।’ এখানেই থেমে থাকেননি কঙ্গনা। তিনি টুইটের শেষে উল্লেখ করেন, ‘বোকা, চুপ করে বসো। আমরা তোমাদের মতো দেশ বিক্রি করছি না'।

ভারতের কৃষক আন্দোলনের পাশাপাশি মঙ্গলবার মায়ানমারের সেনা অভ্যুত্থানের প্রতিবাদেও সরব হন রিহানা। নিজের স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য বরাবরই সমাদৃত এই বার্বাডিয়ান গায়ক। 

স্বঘোষিত গেরুয়া সমর্থক কঙ্গনা রানাওয়াত শুরু থেকেই কেন্দ্রের কৃষিবিলের প্রশংসা করে এসেছেন। ২৬ জানুয়ারি লালকেল্লায় ঘটা হিংসাত্মক ঘটনা নিয়েও বিক্ষুদ্ধ কৃষকদের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠেছিলেন অভিনেত্রী। তাণ্ডব নির্মাতাদের মুন্ডুচ্ছেদের কথা বলে দিন কয়েক আগেও কঙ্গনার অ্যাকাউন্ট সাময়িকভাবে নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছিল। কঙ্গনা শুরু থেকেই বলে আসছেন, এই কৃষক আন্দোলন দেশ-বিরোধী। 'টুকরে টুকরে গ্যাং' এবং ‘খালিস্তানিরা' নিজেদের ফায়দা লুটতে ভুলপথে চালিত করছে কৃষকদের। কৃষক আন্দোলনের পাশে দাঁড়ানো তারকাদের শুরু থেকেই একহাত নিয়েছেন কঙ্গনা। এই ইস্যুতে দিলজিত্ দোসাঞ্জ, প্রিয়াঙ্কা চোপড়াদের বারবার আক্রমণ করেছেন  তিনি। 

বন্ধ করুন