বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > রঙ্গোলির নিশানায় ফের আলিয়া, গল্লি বয়কে কপি ছবি বলে কটাক্ষ
আবারও আলিয়া ভাটকে কটাক্ষ রঙ্গোলি চান্দেলের
আবারও আলিয়া ভাটকে কটাক্ষ রঙ্গোলি চান্দেলের

রঙ্গোলির নিশানায় ফের আলিয়া, গল্লি বয়কে কপি ছবি বলে কটাক্ষ

  • মঙ্গলবার সকালেই জানা যায় অস্কারের দৌড় থেকে ছিটকে গেছে গল্লি বয়। এরপরই পরিচালক জোয়া আখতারের এই ছবিকে কপি ছবি বলে উল্লেখ করলেন কঙ্গনার বোন তথা ম্যানেজার রঙ্গোলি চান্দেল।

অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াতের বোন রঙ্গোলি চান্দেল বেজায় খুশি গল্লি বয় অস্কারের দৌড় থেকে ছিকটে যাওয়ায়। সোমবার দ্য অ্যাকাডেমি অফ মোশ পিকচার আর্টস অ্যান্ড সায়েন্সের তরফে ফরেন ল্যাঙ্গুয়েজ বিভাগের সেরা দশের তালিকা প্রকাশ করা হয়। এই তালিকায় জায়গা করে নিতে পারে নি রণবীর সিং এবং আলিয়া ভাট জুটির গল্লি বয়। টুইটারে রঙ্গোলি লেখেন, 'এই ছবিটা হলিউড ছবি ৮ মাইলের উপর ভিত্তি করে তৈরি হয়েছে। এখানকার বিক্রি হয়ে যাওয়া সমালোচকদের ভালো রিভিউতে কিচ্ছু যায় আসে না। এটা উরি বা মণিকর্নিকার মতো মৌলিক কনটেন্টের উপর তৈরি ছবি নয়। কেন হলিউড এমন একটা ছবিকে পুরস্কৃত করবে, যেটা ওদের ছবির কপি'?



স্ট্রিট ব়্যাপার ডিভাইন এবং নেইজির জীবন দ্বারা অনুপ্রাণিত গল্লি বয়ে ফুটে ওঠেছে মুম্বইয়ের বস্তির ছেলে মুরাদের গল্প। কেমনভাবে সে সব প্রতিকূল পরিস্থিতির মোকাবিলা করে একজন বিখ্যাত ব়্যাপার হয়ে ওঠবে সেই গল্পই ফুটে ওঠেছে পরিচালক জোয়া আখতারের এই ছবিতে। রণবীর-আলিয়ার পাশাপাশি এই ছবিতে দেখা মিলছে সিদ্ধান্ত চতুর্বেদী, কালকি কোয়েচলিন এবং বিজয় বর্মার। বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে ২৩৮.৪ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে গল্লি বয়।

৯২তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডসের আসরে সেরার দৌড়ে বিদেশি ভাষার ছবি বিভাগে এখনও যে ১০টি ছবি টিকে রয়েছে, সেগুলি হল- দ্য পেন্টেড বার্ড(চেক রিপাবলিক), ট্রুথ অ্যান্ড জাস্টিস(এস্টোনিয়া), লেস মিসারেবেলস(ফ্রান্স), দোস হু রিমেইন্ড (হাঙ্গেরি), হানিল্যান্ড (নর্থ ম্যাসেডোনিয়া), করপাস ক্রিস্টি(পোল্যান্ড),বিনপোল(রাশিয়া), আটলান্টিকস(সেনেগাল), প্যারাসাইট(দক্ষিন কোরিয়া) এবং পেইন অ্যান্ড গ্লোরি(স্পেন)।

আজ অবধি কোনও ভারতীয় ছবিই অস্কার জয়ে সফল হয় নি। বিদেশি ভাষার ছবি বিভাগের চূড়ান্ত তালিকায় আজ পর্যন্ত জায়গা করে নিয়েছে কেবলমাত্র তিনটি ছবি-মাদার ইন্ডিয়া(১৯৫৮), সালাম বম্বে(১৯৮৯) এবং লাগান(২০০১)।

গল্লি বয় ভারতের অফিসিয়্যাল এন্টি নির্বাচিত হওয়ার পর নিজের খুশি জাহির হয়েছিলেন রণবীর সিং। রণবীর জানিয়েছিলেন, ‘এটা একটা গর্বের মুহুর্ত গোটা টিমের জন্য। আমি জোয়ার জন্য সবচেয়ে বেশি খুশি এবং একইসঙ্গে গর্বিত। গল্লি বয়কে জোয়া নিজের শিশুর মতো লালন করেছে, আমি এই জার্নির অংশ হতে পেরে উচ্ছ্বসিত’।

রানাওয়াত বোনেরা শুরু থেকেই আলিয়ার কঠোর সমালোচক। মণিকর্নিকার প্রমোশ্যানাল ইভেন্টে গল্লি বয় ছবিতে আলিয়া অভিনয়কে নিতান্তই মধ্যমানের বলে উল্লেখ করেছিলেন বলিউডের কুইন। কঙ্গনা জানিয়েছিলেন, ‘আমি লজ্জিত..গল্লি বয়ের পারফর্মেন্সে ছিলটা কি! একই রকম একটা ঠোঁট কাটা মেয়ের চরিত্র...বলিউডের কাছে তথাকথিত অগ্নিকন্যা যেমন হয় আর কি, ওটা নারীর ক্ষমতায়ণ! আমাকে মাফ করুন দয়া করে, সংবাদমাধ্যম যদি তারকা সন্তানের এইভাবে ভালোবাসা উড়ার করে দেওয়া বন্ধ না করে তাহলে অভিনয়ের গুণগতমান কোনওদিন বাড়বে না’!

বন্ধ করুন