বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > কুম্ভ মেলা থেকে ফিরেই করোনা আক্রান্ত হন শ্রবণ রাঠোর ও তাঁর স্ত্রী,জানালেন পুত্র
করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত শ্রবণ রাঠোর
করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত শ্রবণ রাঠোর

কুম্ভ মেলা থেকে ফিরেই করোনা আক্রান্ত হন শ্রবণ রাঠোর ও তাঁর স্ত্রী,জানালেন পুত্র

  • মহা কুম্ভের মেলায় স্ত্রীকে নিয়ে যোগ দিয়েছিলেন শ্রবণ রাঠোর। ফিরে আসবার দিন কয়েক পরেই করোনা রিপোর্ট পজিটিভ আসে দুজনের। 

করোনা কেড়ে নিয়েছে সংগীত পরিচালক শ্রবণ রাঠোরের প্রাণ। গত কয়েকদিন ধরেই মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছিলেন ‘আশিকী’ পরিচালক। অবশেষে বৃহস্পতিবার রাতে থেমে গেল লড়াই। করোনা পজিটিভ হওয়ার দিন কয়েক আগেই স্ত্রীকে নিয়ে কুম্ভ মেলায় গিয়েছিলেন শ্রবণ কুমার রাঠোর। ফিরে এসে শ্বাসকষ্টের সমস্যা দেখা দেওয়ায় করোনা পরীক্ষা করান, দুজনেরই করোনা টেস্ট রিপোর্ট পজিটিভ আসে। 

শ্রবণ কুমারের ছেলে সঞ্জীব ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে বলেন, করোনা পজিটিভ হওয়ার দিন কয়েক আগেই তাঁর বাবা-মা মহাকুম্ভের মেলা থেকে ফিরেছিলেন। তিনি জানান, ‘ আমি দুঃস্বপ্নেও ভাবিনি আমার পরিবারকে এমন একটা কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যেতে হবে। আমার বাবা চলে গেলেন, আমার মা করোনা আক্রান্ত, আমারও রিপোর্ট পজিটিভ। আমার ভাইও (দর্শন) করোনা আক্রান্ত, ও হোম আইসোলেশনেই ছিল। কিন্তু যেহেতু বাবা মারা গিয়েছেন ওঁকে শেষকৃত্য করবার অনুমতি দেওয়া হয়েছে’। 

সঞ্জীব এবং তাঁর মা বিমলাদেবী আপতত সেভেনহিলস হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। তবে ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন তাঁরা। শ্রবণ কুমার রাঠোরের শেষকৃত্যের জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এবং বিএমসির তরফে সবরকম সহায়তা করা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন সঞ্জীব। 

গত কাল রাত সাড়ে ন টা নাগাদ মাহিমের এসএল রাহিজা হাসপাতালে মৃত্যু হয় ৬৬ বছর বয়সী শ্রবণ রাঠোরের। রাহিজা হাসপাতালের চিকিত্সক কৃতী ভূষণ শ্রবণ রাঠোরের মৃত্যু সংবাদ নিশ্চিত করে জানান, ‘আজ রাত ৯.৩০টায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন শ্রবণ রাঠোর। আমরা সবরকমভাবে চেষ্টা করেছিলাম। করোনার জেরে তৈরি কার্ডিওমায়োপ্যাথি তাঁর মৃত্যুর কারণ, শরীরে পালমোনারি শোথও দেখা গিয়েছিল, শেষমেষ মাল্টিমেল অর্গ্যান ফেলিউর হয় তাঁর’।

বন্ধ করুন