বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Lucky Ali: ‘এখানে সবাই অসভ্য’, নাইন্টিজের বিখ্যাত গায়ক লাকি আলি ছাড়তে বাধ্য হয়েছিলেন বলিউড
লাকি আলি তামাশা ছবির পর আর কাজ করেননি বলিউডে। 

Lucky Ali: ‘এখানে সবাই অসভ্য’, নাইন্টিজের বিখ্যাত গায়ক লাকি আলি ছাড়তে বাধ্য হয়েছিলেন বলিউড

  • ২০১৫ সালে ‘তামাশা’য় কাজ করার পর বলিউডে আর দেখা মেলেনি লাকি আলির। কিংবদন্তি অভিনেতা-পরিচালক মেহমুদের ছেলের সেই সিদ্ধান্ত নিয়ে একসময় অনেক কথাই হয়েছিল। 

সোমবার ১৯ সেপ্টেম্বর ৬৪ বছরে পা রাখলেন গায়ক লাকি আলি। নব্বইয়ে দশকের প্রজন্মের কাছে লাকি মানেই ‘ও সনম', ‘গোরি তেরি আঁখে কহে’-র মতো ইন্ডিপপ গান। যে গান শুনে সেই প্রজন্ম প্রেমে পড়েছে বারবার। তবে বলিউডের আর পাঁচটা গায়কের থেকে তিনি বরাবরই আলাদা। হঠাৎ করেই বিদায় জানান বলিউডকে। সব ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন। পুরনো এক সাক্ষাৎকারে এর কারণও বলেছিলেন লাকি আলি। 

কিংবদন্তি অভিনেতা-পরিচালক মেহমুদের সন্তান লাকি আলি। একটু বেশি বয়সেই তিনি এসেছিলেন বলিউডে। ৩৭ বছরে করেন প্রথম কাজ। ১৯৯৬ সালে আসে তাঁর প্রথম মিউজিক অ্যালবাম সুনহো। ২০০০ সালে কহোনা প্যায়ার হ্যায় তাঁকে অসাধারণ সাফল্য এনে দিয়েছিল। অভিনয়ও করেছিলেন তিনি ‘কাঁটে’ আর ‘সুর’-এর মতো ছবিতে। কয়েক যুগ ধরে বলিউডকে মন ভোলোনো গান উপহার দিয়ে যাওয়া লাকি নিজেকে সরিয়ে নেন ২০১৫ সালে ‘তামাশা’য় কাজ করার পর। আরও পড়ুন: সুহানার প্রেম নিয়ে বিশেষ টিপ্পনী, কফি উইথ করণে এসে বেলাগাম শাহরুখ-পত্নী গৌরী

২০১৭ সালে এক সাক্ষাৎকারে লাকি আলি এই নিয়ে কথা বলতে গিয়ে জানিয়েছিলেন, ‘এই খানে অসভ্যতা খুব বেশি। বলিউড বদলে গিয়েছে। এখন যে সব ছবি তৈরি হচ্ছে তাতে অনুপ্রেরণা নেই আর। আমার তো মনে হয় এইসব সিনেমার থেকে শেখারও আর কিছু নেই।’

তিনি জানান আজকাল যেসব ছবি তৈরি হচ্ছে এখানে তা তাঁর পছন্দ নয়। আর তাই বলিউড ছেড়ে দিয়েছেন। লাকির কথায়, ‘এই যুগের ছবি সমাজের উপরে খারাপ প্রভাব ফেলছে। মানুষ সিনেমা দেখে আরও হিংস্র হয়ে যাচ্ছে। আমার তো মনে হচ্ছে এইসব সিনেমার ফলেই অস্থিরতা বাড়ছে, সঙ্গে লোভও।’

এই বছরের শুরুর দিকে লাকি আলি নিয়ে এসেছিলেন তাঁর মেইনস্ট্রিম মিউজিক ভিডিয়ো ‘ইন্তেজার’। যাতে তিনি Mikey McClearey-র সঙ্গে কাজ করেছেন। 

 

বন্ধ করুন