বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বলিউডের মাদককাণ্ডে সন্দীপ সিং, বিবেক ওবেরয়ের ভূমিকা এড়িয়ে যাচ্ছে NCB : কংগ্রেস
কংগ্রেসের নিশানায় মোদীর বায়োপিকের নির্মাতা
কংগ্রেসের নিশানায় মোদীর বায়োপিকের নির্মাতা

বলিউডের মাদককাণ্ডে সন্দীপ সিং, বিবেক ওবেরয়ের ভূমিকা এড়িয়ে যাচ্ছে NCB : কংগ্রেস

  • ফের একবার কাঠগড়ায় সন্দীপ সিংয়ের ভূমিকা। এবার মাদকচক্রে জড়িত থাকার খোঁচা দিল কংগ্রেস। 

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু মামলার সঙ্গে জড়িত মাদককাণ্ডের তদন্ত করছে এনসিবি। বলিউডের এই মাদকযোগের গোটা তদন্ত প্রক্রিয়া নিয়ে ফের সরব হল মহারাষ্ট্র কংগ্রেস। কার্যত কেন্দ্রীয় মাদক নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে প্রশ্নের মুখে দাঁড় করিয়ে ‘সোনিয়া সেনা’র দাবি মাদকযোগের মামলায় খতিয়ে দেখা উচিত সন্দীপ সিং ও বিবেক ওবেরয়ের ‘অ্যাঙ্গেল’টিও। উল্লেখ্য বেঙ্গালুরু পুলিশ দ্বারা বিবেক ওয়েবরয়ের বাড়ির তল্লাসি চালানোর পরের দিনই এই দাবি তুলল মহারাষ্ট্র কংগ্রেস। গতকাল বিবেক ওয়েরয়ের ফেরার শ্যালকের খোঁজে মুম্বইয়ে অভিনেতার বাড়িতে হানা দেয় পুলিশ। 

বলিউডের পাশাপাশি কন্নড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির মাদকযোগ নিয়েও তোলপাড় গোটা দেশ।স্যান্ডেলউডের ড্রাগ যোগে জড়িত বিবেকের শ্যালক আদিত্য আলভার ফেরার। তাঁর খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ। 

শুক্রবার একধিক টুইটে মহারাষ্ট্র কংগ্রেসের মুখপাত্র তথা জেনারেল সেক্রেটারি সচিন সাওয়ান্ত দাবি করেন ইচ্ছাকৃতভাবে সন্দীপ সিং ও বিবেক ওয়েবরকে আড়াল করার চেষ্টা করছে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। যাঁরা যৌথভাবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক তৈরি করেছে। 

সচিন লেখেন, ‘আমি দাবি করছি এনসিবির কাছে যাতে বলিউডে বিজেপির ড্রাগ কানেকশন খতিয়ে দেখা হয়। আমি এনসিবির কাছে প্রশ্ন করেছি এবং নির্দিষ্টভাবে উল্লেখ করেছি আদিত্য আলভার নাম, যে স্যান্ডেলউড ড্রাগ চক্রের অন্যতম অভিযুক্ত এবং সম্পর্কে বিবেক ওয়েরয়ের শ্যালক। বিবেক সন্দীপ সিংয়ের পার্টনার। যদিও এনসিবি গুরুত্ব দেয়নি এই বিষয়ে’। 

তিনি আরও অভিযোগ তোলেন বিজেপি চালিত গুজরাত সরকার এই বিষয়ে তাঁদের সাহায্য করচে। 'কিন্তু এখন বেঙ্গালুরু পুলিশ যখন বিবেকের বাড়িতে হানা দিয়েছে, যে শুধু মোদীর বায়োপিকের যৌথ প্রযোজক নয়, লিড অভিনেতাও! অনেক প্রশ্নের এখনও কোনও উত্তর মেলেনি। কেন শুধু এই কোম্পানির সঙ্গে গুজরাত সরকারের একটি মউ চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছিল। সাওয়ান্ত জানতে চান কেন সন্দীপ সিংয়ের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগ এড়িয়ে যাওয়া হচ্ছে। 

সাওয়ান্ত বলেন, শুধু আমরাই নন বিজেপি লিডার সুব্রহ্মমণ্যম স্বামীও প্রশ্ন তুলেছেন সন্দীপকে নিয়, তিনি বলেছেন কেন সন্দীপ নিয়মিত অন্তরালে দুবাই যায় তা প্রশ্নের বিষয়। একাধিক বলিউড তারকাকে এনসিবি সমন পাঠিয়েছে কিন্তু সন্দীপকে কোনওদিনই ডাকা হয়নি'। শুধু সন্দীপ নন, কঙ্গনা রানাওয়াতকেও বা কেন ছাড়া দেওয়া হচ্ছে তা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন কংগ্রেস মুখপাত্র। 

এই বিষয় নিয়ে এদিন দুপুরে মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অনিল দেশমুখের সঙ্গে দেখা করেন সচিন সাওয়ান্ত। সন্দীপ সিং ও বিবেক ওয়েরয়ের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগ যাতে এনসিবি খতিয়ে দেখে সেই অনুরোধ জানান সাওয়ান্ত। 

যদিও কংগ্রেসের তরফে উঠা এই অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দিয়েছে বিজেপি। বিজেপির মুখপাত্র মধু চৌহান পালটা দাবি করেন, যদি ওঁনার কাছে কোনও প্রমাণ থাকে তাহলে উনি সংশ্লিষ্ট সংস্থাকে দিক, নিশ্চয় তদন্ত হবে। বিজেপি কোনওদিন অপরাধীদের পাশে দাঁড়ায় না কিংবা কাউকে আড়াল করার চেষ্টা করে না।বিবেকের বাড়িতে পুলিশের তল্লাশি এই বিষয়ের জ্বলন্ত প্রমাণ। এই বিষয় নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নাম টেনে আনা অযৌক্তিক।চাপের মুখে পড়ে বাজে বকছে কংগ্রেস'।

গত বছর মে মাসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক রিলিজ করেছিল। যা পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন ওমাঙ্গ কুমার। করোনা পরবর্তী সময়ে সিনেমা হল খোলার পর ফের একবার মুক্তি পেয়েছে এই ছবি।

কংগ্রেসের কটাক্ষ নিয়ে এখনও মুখ খোলেননি সন্দীপ, তবে দু-দিন আগেই তাঁর ইমেজ নষ্টের চেষ্টার অভিযোগ এনে রিপাবলিক মিডিয়ার বিরুদ্ধে ২০০ কোটি টাকার মানহানির মামলা দায়ের করেছেন সুশান্ত সিং রাজপুতের কাছের বন্ধু সন্দীপ সিং। 

বন্ধ করুন