বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ব্রা না পরেই রাস্তায় ‘নির্লজ্জ’ মালাইকা, ঝড় উঠল নেটপাড়ায়
মালাইকা অরোরা। (ছবি সৌজন্যে - টুইটার)

ব্রা না পরেই রাস্তায় ‘নির্লজ্জ’ মালাইকা, ঝড় উঠল নেটপাড়ায়

  • নিজের পোশাকের কারণে ফের একবার শিরোনামে মালাইকা আরোরা। ব্রা হীন অবস্থায় রাস্তায় হাঁটতে বেরিয়ে পড়েছিলেন অর্জুন-বান্ধবী।

বডিকন পোশাক হোক বডিহাগিং গাউন, ছিপছিপে মালাইকার কাছে এসব পোশাক ক্যারি করা জলভাত। বয়স ৪৮-এর কোঠায়। কিন্তু মালাইকা অরোরা-কে দেখে তা বোঝার উপায় কোথায়? এখনও নিজের ‘সেক্সি’ লুকে বলিপাড়ার টিনেজ হিরোইনদের টেক্কা দিতে পারেন মালাইকা আরোরা। তবে ফ্যাশন ট্রেন্ড সেটার-এর তকমা পাওয়ার পাশাপাশি তাঁকে নিয়েও বিস্তর সমালোচনা, ট্রলিং হয়। সম্প্রতি, নিজের পোশাকের কারণে ফের একবার শিরোনামে অর্জুন-বান্ধবী। ব্রা হীন অবস্থায় রাস্তায় হাঁটতে বেরিয়ে পড়েছিলেন তিনি। আর তাই দেখেই চোখ ছানাবড়া নেটপাড়ার। ক্যামেরার সামনে এহেন অবস্থায় মালাইকাকে দেখে ট্রোলাররাও তাদের আলোচনার নতুন টপিকও পেয়ে গেছে।

সম্প্রতি, নিজের পোষা কুকুর ক্যাস্পারকে নিয়ে মর্নিং ওয়াক সারতে বেরিয়েছিলেন মালাইকা। ফিটনেস নিয়ে তাঁর সচেতনতা নতুন কিছু নয়। ঢোলা সোয়েটশার্ট, ফিটেড ট্র্যাকস মিলিয়ে বেশ ক্যাজুয়াল অবতারেই পাপারাৎজিদের ক্যামেরার সামনে দেখা গিয়েছে তাঁকে। তবে মালাইকার পোশাক দেখে নেটিজেনদের একাংশ লক্ষ্য করে পোশাকের নিচে কোনওরকম অন্তর্বাস পরে নেই এই বলি-সুন্দরী। মুহূর্তেই মালাইকাকে ঘিরে শুরু হয়ে যায় ট্রোলিং। কেউ লেখে, 'ব্রা পড়তে ভালো লাগে না?' অন্য একজন মালাইকাকে 'নির্লজ্জ মহিলা' বলতেও কসুর করেনি। কটাক্ষ করে একজন লিখেছে, 'মুখে দুটো মাস্ক থাকলেও পরা নেই একটিও ব্রা।' 

মালাইকার এই ছবি দেখেই বিতর্ক শুরু হয়েছে নেটপাড়ায়। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)
মালাইকার এই ছবি দেখেই বিতর্ক শুরু হয়েছে নেটপাড়ায়। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)

অবশ্য মালাইকার সমর্থনে গলাও ফাটিয়েছে বহু নেটিজেন। কেউ যেখানে বলেছেন ' মহিলারা ব্রা পরবেন কি না সেটা তাঁদের নিজেদের ব্যাপার।' আবার কেউ কেউ লিখেছেন, 'অনেকেরই অন্তর্বাস পরলে অস্বস্তি হয়।' চোখে পড়েছে 'মালাইকা কিচ্ছু ভুল করেনি' মার্ক কমেন্টও। তবে এই প্রসঙ্গে অবশ্য মুখে টুঁ শব্দটুকু করেননি মালাইকা নিজে।

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই মালাইকার সাথে তাঁর প্রেমিক অর্জুন কাপুরের বিচ্ছেদের খবর শোরগোল ফেলে দিয়েছিল সব জায়গায়। যদিও ঘণ্টাখানেকের মধ্যে ‘হেটার্স’দের মপখ বন্ধ করতে পোস্ট করেন অর্জুন। বান্ধবীর সাথে ছবি দিয়ে লেখেন, এই কঠিন সময়ে কারও খারাপ না চাইতে! অন্যদিকে, নেটপাড়ায় প্রায়শই তাঁর আর অর্জুনের বয়সের ব্যবধান নিয়ে কটাক্ষ চলতেই থাকে। এমনকী, শোনা যায় অর্জুনের বাবা বনি কাপুরও নাকি মেনে নেয়নি এই সম্পর্ক। যদিও সব কিছু পাশে সরিয়ে অর্জুনের হাত ধরে এগিয়ে চলেছেন মালাইকা।

বন্ধ করুন