বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > করণ জোহরের চর্চিত ‘মাদক’ পার্টির তদন্ত শুরু করল NCB, ফরেনসিক পরীক্ষায় গেল ভিডিয়ো
এই ভিডিয়ো ফরেনসিক পরীক্ষায় পাঠিয়েছে এনসিবি
এই ভিডিয়ো ফরেনসিক পরীক্ষায় পাঠিয়েছে এনসিবি

করণ জোহরের চর্চিত ‘মাদক’ পার্টির তদন্ত শুরু করল NCB, ফরেনসিক পরীক্ষায় গেল ভিডিয়ো

  • এবার এনসিবির নজরে করণ জোহরের পার্টি। প্রাক্তন বিধায়কের অভিযোগ খতিয়ে দেখবে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো।

২০১৯ সালে ‘ড্রাগ পার্টি’র আয়োজন করেছিলেন প্রযোজক-পরিচালক করণ জোহর। এমনই অভিযোগ নিয়ে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর দ্বারস্থ হয়েছিলেন অকালি শিরোমণি দলের প্রাক্তন বিধায়ক মনজিন্দর সিং সিরসা, এবার এই অভিযোগ খতিয়ে দেখবে এনসিবি। উল্লেখ এই মর্মে গত পরশুদিন, বৃহস্পতিবার দিল্লিতে এনসিবির ডিরেক্টর রাকেশ আস্তানার সঙ্গে সাক্ষাত্ করেন এই নেতা। এরপর শুক্রবার প্রাক্তন বিধায়কের অভিযোগ এনসিবির মুম্বই অফিসে হস্তান্তর করা হয়েছে দিল্লি থেকে। করণের পার্টির একটি ভিডিয়োর ভিত্তিতে অভিযোগ দায়ের করেন মনজিন্দর সিং সিরসা। সেই ভিডিয়ো ইতিমধ্যেই ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে এনসিবির তরফে।

উল্লেখ্যযোগ্য গত বছর জুলাই মাস নাগাদ ভাইরাল হয়ে যায় করণের পার্টির এই ভিডিয়ো। করণ জোহর নিজেই সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিয়ো শেয়ার করেছিলেন, যদিও ভিডিয়োকে ঘিরে বিতর্ক শুরু হলে করণ তড়িঘড়ি ডিলিট করে দেন সেই ভিডিয়ো। কিন্তু ততক্ষণে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে এই চর্চিত ড্রাগ পার্টির ভিডিয়ো। যেখানে দেখা মিলেছে দীপিকা পাড়ুকোন,শাহিদ কাপুর, অর্জুন কাপুর, মালাইকা আরোরা, জোয়া আখতার,বরুণ ধওয়ান, রণবীর কাপুরের মতো বলিউডের এ-লিস্টার তারকাদের। 

টাইমস নাও সূত্রে খবর, এনসিবির মুম্বই ব্রাঞ্চকে এই মামলাটি খতিয়ে দেখবার নির্দেশ দিয়েছেন নারকোটিক্স প্রধান। ভিডিয়োটি নিয়ে ফরেনসিক পরীক্ষার রিপোর্ট এলে তারপরেই এই মামলা এগিয়ে নিয়ে যাবে এনসিবি। 

তবে এই ভিডিয়ো নিয়ে এর আগে মুম্বই পুলিশের কাছেও অভিযোগ জানিয়েছিলেন মনিন্দর সিং সিরসা। গত বছর অগস্টে মুম্বই পুলিশকে বিষয়টি খতিয়ে দেখতে লিখিত অভিযোগ জমা দেন তিনি। যদিও অকালি শিরোমাণি দলের নেতার অভিযোগ বারবার অনুরোধ করা সত্ত্বেও মুম্বই পুলিশ বিষয়টিকে পাত্তা দেয়নি। 

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু মামলায় আর্থিক তছরুপের দিক খতিয়ে দেখতে গিয়ে রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে মাদকচক্রের যোগসাজশ খুঁজে পায় এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট। এরপরই ইডির অনুরোধে এই মামলায় যোগ দেয় নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। ইতিমধ্যেই সুশান্ত মামলায় একাধিক মাদক পাচারকারী ও মাদক ব্যবসায় আর্থিক লেনদেনের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদের গ্রেফতার করেছে এনসিবি। সংখ্যাটা ২০ জনেরও বেশি। তালিকায় রয়েছে সুশান্ত মামলার মূল অভিযুক্ত রিয়া চক্রবর্তী এবং অপর দুই অভিযুক্ত রিয়ার ভাই শৌভিক, সুশান্তের হাউজ ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডা। এনসিবির হাতে গ্রেফতার হয়েছে সুশান্তের পরিচারক দীপেশ সাওয়ান্তও। 

বলিউডের মাদকযোগ নিয়ে এখন বিতর্ক চরমে। এর মাঝেই টুইট বার্তায় মনিন্দর সিং সিরসা জানান, 'শীঘ্রই এনসিবির সঙ্গে বসে কফির কাপে চুমুক দিতে হবে করণ জোহরকে'।

করণের বাড়িতে আয়োজিত এই পার্টিতে নিষিদ্ধ মাদক ব্যবহার করা হয়েছিল, এই অভিযোগ প্রসঙ্গে এক সাক্ষাত্কারে নিজের অবস্থান স্পষ্ট করে করণ জানিয়েছিলেন- ‘ইন্ডাস্ট্রির কিছু জনপ্রিয় মানুষ একটা হালকা সময় কাটাচ্ছিল,গোটা সপ্তাহ জুড়ে প্রচুর পরিশ্রম করবার পর। আমি খুব মজার ছলে ওই ভিডিয়োটা নিয়েছিলাম। আচ্ছা আপনারাই বলুন আমি কি এতটাই বোকা যে ওই রকম কিছু ঘটলে সেটা শ্যুট করে সোশ্যাল মিডিয়ায় দেব? আমি স্টুপিড নই’।

বন্ধ করুন