বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Mimi-Nusrat-Parno: নুসরত নন, মিমির ‘হটি নটি গার্ল' এখন পার্নো মিত্র! বদলাচ্ছে বন্ধুত্বের সমীকরণ?
বদলাচ্ছে বন্ধুত্বের সমীকরণ?
বদলাচ্ছে বন্ধুত্বের সমীকরণ?

Mimi-Nusrat-Parno: নুসরত নন, মিমির ‘হটি নটি গার্ল' এখন পার্নো মিত্র! বদলাচ্ছে বন্ধুত্বের সমীকরণ?

মিমির জীবনে এখন নতুন ‘বোনুয়া’ পার্নো? নুসরতের ‘খেতাব’ অচিরেই অন্যকে দিয়ে দিলেন তারকা সাংসদ। 

একটা সময় টলিউডের 'টক অফ দ্য টাউন' ছিল মিমি-নুসরতের বন্ধুত্ব। কিন্তু গত কয়েক মাসে দুই ‘বোনুয়া’র সম্পর্কের চিড় নিয়ে কম চর্চা হয়নি টলিগঞ্জে। প্রকাশ্যে অবশ্য বন্ধুত্বে ফাটলের গুঞ্জনকে সপাটে উড়িয়ে দিয়েছেন দুজনেই। কিন্তু এমনটাও অস্বীকার করার জায়গা নেই, গত কয়েকমাসে মিমির সঙ্গে বিজেপির পার্নো মিত্রর বন্ধুত্ব বেশ জমে উঠেছে। 

হিরোইনরা নাকি ভালো বন্ধু হন না। গ্ল্যামার দুনিয়ার এই মিথটাই ভাঙতে ভালোবাসেন মিমি। কিন্তু তাঁর জীবনে ক্রমে নুসরতের জায়গাটা দখল করে নিচ্ছেন পার্নো। সেই জন্যই বোধহয় মিমির কাছে বদলে গেল ‘হটি নটি গার্ল’-এর সংজ্ঞাও।  

গত বছর নুসরত জাহানের এক ছবির কমেন্ট বক্সে মিমির মন্তব্য ছিল, ‘হটি নটি গার্ল, মনের পাসওয়ার্ডটা বল’। গত বছর জুলাই মাসে নুসরতের ছবিতে এই কমেন্ট করেছিলেন মিমি, অর্থাত্, তখন এসওএস কলকাতার শ্যুটিং চলছে। নুসরত তখনও নিখিল ঘরনি। বলা বহুল্য, এই ছবির সেটেই শুরু যশ-নুসরতের প্রেম কাহিনি। শহরের এক পাঁচতারা হোটেলে শ্যুটিংয়ের ফাঁকে তোলা নুসরতের ছবিতে যে মন্তব্য করেছিলেন মিমি, আজ প্রায় এক বছর দু মাস পর সেই মন্তব্য তিনি করে বসলেন পার্নোর ছবিতে। 

পার্নোর ছবিতে মিমির মন্তব্য
পার্নোর ছবিতে মিমির মন্তব্য

এই ছবিতে পার্নোর দেখা মিলল কালো পোশাকে। উন্মুক্ত বক্ষবিভাজিকা, চোখে মায়াবী চাউনি- একদম হট লুকে লেন্সবন্দী অভিনেত্রী পার্নো। মিমির প্রশ্নের জবাবও দিয়েছেন বান্ধবী। পার্নোর মনের পাসওয়ার্ড হল ‘বিরিয়ানি’। নায়িকার মন জয় করতে হবে আপনাকে খাওয়াতে হব এই খাবারটি। 

দেখুন গত বছর নুসরতের ছবিতে মিমির এই মন্তব্য-

 

বদলাচ্ছে সম্পর্কের সমীকরণ? (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)
বদলাচ্ছে সম্পর্কের সমীকরণ? (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)

চলতি বছর ফেব্রুয়ারিতে পার্নোর সঙ্গে গোয়ায় ঘুরতে গিয়েছিলেন মিমি। তাঁদের ভ্যাকেশনের ছবিও ভাইরাল হয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। একসঙ্গে ‘পাওরি’ করেছিলেন তাঁরা।

অন্তঃসত্ত্বা নুসরতের পাশে সেভাবে প্রকাশ্যে দেখা যায়নি মিমিকে। তবে সংবাদমাধ্যমকে নায়িকা স্পষ্ট বলেছিলেন, ‘একটা মেয়ের জীবনের সবচেয়ে সেরা সময়। এখন ওর আনন্দের সময়। এই সময় আমি ওর পাশে থাকব না! তো কে থাকবে?’ নুসরতের সঙ্গে তাঁর ইকুয়েশন আর আগের মতো নেই, মিডিয়ার এইসব খবর নিয়ে একরাশ অভিযোগ নিয়ে মিমির বক্তব্য ছিল, ‘যদি গাছ থেকে ফল পড়ে লোকে ভাবে মিমি-নুসরত বোধহয় ঝগড়া করছেন! কিংবা কারুর সঙ্গে কারুর সম্পর্ক ভাঙল। সেখানেও জুড়ে দেওয়া হল আমাদের নাম’। ঈশানের জন্মের সময় ওড়িশায় ‘খেলা যখন’-এর শ্যুটিংয়ে ব্যস্ত ছিলেন মিমি, সোশ্যালে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন নুসরত জাহানকে। কিন্তু কলকাতায় ফিরে কি নুসরত-যশ পুত্রের সঙ্গে সাক্ষাত্ সেরেছেন মিমি? সংবাদমাধ্যমের কাছে অন্তত জবাব নেই এই প্রশ্নের।

বন্ধ করুন