বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > হায়দরাবাদে রমরমিয়ে চলত দেহব্যবসা, গ্রেফতার মুম্বইয়ের এক স্ক্রিপ্টরাইটার সহ ৮

হায়দরাবাদে রমরমিয়ে চলত দেহব্যবসা, গ্রেফতার মুম্বইয়ের এক স্ক্রিপ্টরাইটার সহ ৮

মুম্বইয়ের এক স্ক্রিপ্টরাইটারকে যৌন ব্যবসা চালানোর অপরাধে গ্রেফতার করল পুলিশ।

মুম্বইয়ের এক ফিল্মের গল্প লেখককে যৌন ব্যবসা চালানোর অপরাধে গ্রেফতার করল পুলিশ। তাঁর বিরুদ্ধে চারটি কেস রেজিস্টার হয়েছিল ইমমরাল ট্রাফিক প্রিভেনশন অ্যাক্টের অধীনে।

সাইবেরাবাদের পুলিশ গত শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারি ৮ জনকে গ্রেফতার করে হায়দ্রাবাদে যৌনব্যবসা চালানোর অপরাধে। এই ৮ জনের মধ্যে মুম্বইয়ের একজন ফিল্মের গল্প লেখক আছেন। তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আসে যে তাঁরা এই শহরে দেহব্যবসা চালাচ্ছেন। অভিযুক্তের নামে অন্তত ৪টি কেস নথিভুক্ত হয়েছে বলে জানা যায়। ইমমরাল ট্রাফিক প্রিভেনশন অ্যাক্টের অধীনে তাঁর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। এরপর টানা এক সপ্তাহ অপারেশন চালিয়ে তাঁদের গ্রেফতার করা হয় বলে জানান অফিসাররা। যাঁরা গ্রেফতার হয়েছেন তাঁদের মধ্যে এক বাংলাদেশী মহিলাও আছেন। তিনি মূলত এই ব্যবসা চালাতেন।

এই অপারেশনের সময় পুলিশ ২৮ বছর বয়সী মোহিত সৎপাল গর্গকে গ্রেফতার করেন। মোহিত বলিউডের সিনেমার জন্য গল্প লেখেন এবং এই ব্যবসার যে যোগাযোগ ব্যবস্থা সেটা চালাতেন। ২০২০ সাল থেকে তিনি প্রায় ৩০০ থেকে ৪০০ জনকে এই অন্ধকার দুনিয়ার দিকে ঠেলে দিয়েছেন। দিল্লি, মুম্বই, বেঙ্গালুরু, কলকাতা থেকে মহিলাদের এনে দেহব্যবসায় যুক্ত করতেন তিনি।

অভিযুক্তদের মধ্যে আরেকজন হলেন জয় সাহা। তাঁর বয়স ৪০ বছর। তিনিও এই এক কাজ ২০১৮ সাল থেকে করে আসছেন বলেই জানা গিয়েছে। মহিলাদের এনে তাঁদের হায়দ্রাবাদের বিভিন্ন হোটেলে পাঠাতেন তিনি। এমনই পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে।

এছাড়া অভিযুক্তদের মধ্যে আছেন জানওয়ার বিশাল, মহম্মদ সোহেল আহমেদ, মহম্মদ খালিল, মেহেদী দাস, মুন্থা শ্রীকান্ত। গ্রেফতার হওয়া বাংলাদেশী মহিলার নাম মোল্লা নাসরিন। তাঁর বয়স মাত্র ২৬! পুলিশের এঁদের থেকে ৩৫টা ফোন, ৫টা ল্যাপটপ, দুটো ট্যাবলেট, একটা সোয়াইপিং মেশিন, দুটো স্ক্যানার, তিনটি বাইক, একটি গাড়ি এবং ২৫টি প্যান এবং ডেবিট কার্ড উদ্ধার করেছে।

সাইবেরাবাদের অ্যান্টি হিউম্যান ট্রাফিকিং ইউনিটের তরফে পুলিশ জানিয়েছে যে এই দল ভারতের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মেয়েদের নিয়ে এসে এই ব্যবসা সঙ্গে যুক্ত করত। কল সেন্টারের নাম করে তাঁরা বিভিন্ন বিজ্ঞাপন দিতেন, সেখান থেকে মেয়েদের নিয়ে এসে এই কাজে যুক্ত করতেন। তাঁদের বিভিন্ন হোটেলে পাঠাতেন।

পুলিশের তরফে একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, 'মাধাপুর এবং গাচিবৌলি থানায় এই অভিযুক্তদের নামে মামলা করা হয়েছিল। সেটার ভিত্তিতে তল্লাশি চালানো হয় এবং গ্রেফতার করা হয়। এরা পালিয়ে বেড়াচ্ছিল। এক বিশেষ টিম মুম্বইতে গিয়ে দুজনকে গ্রেফতার করে আনে।'

বায়োস্কোপ খবর
বন্ধ করুন

Latest News

সিংহ-কন্যা-তুলা-বৃশ্চিকের কেমন কাটবে বুধবার? জানুন রাশিফল মেষ-বৃষ-মিথুন-কর্কট রাশির কেমন কাটবে বুধবার? জানুন রাশিফল রোহিত হলেন পরবর্তী ধোনি এবং সৌরভ- বড় সার্টিফিকেট মাহির ঘনিষ্ট ভারতের প্রাক্তনীর করোনা-যোদ্ধা শৈলজা সহ কেরলের ২০ আসনে প্রার্থী ঘোষণা করে দিল এলডিএফ জিতে ইস্টবেঙ্গলের রক্তচাপ বাড়াল পঞ্জাব! কোথায় মোহনবাগান? রইল ISL-র পয়েন্ট টেবিল জনগর্জন সভায় একটা বিশেষ কাজ করতে হবে এমএলএ-এমপিদের, নির্দেশ দিল তৃণমূল ১০ বছরের প্রেম, শিখ ও খ্রিস্টান রীতিতে মার্চেই বিয়ে সারছেন তাপসী, পাত্রকে চেনেন? সন্দেশখালি নিয়ে তৃণমূলকে মণিপুর মনে করালেন নির্মলা, পাল্টা জবাব দিল দল মাত্র ১০৭ রানে GG-কে গুঁড়িয়ে,৮ উইকেট ম্যাচ জিতল RCB,উঠে পড়ল লিগ টেবলের মগডালে বুধে কি বাংলার আবহাওয়ায় 'হাওয়া বদল'? বসন্তে বৃষ্টি আর কতদিন! রইল ওয়েদার আপডেট

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.