বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > সামান্থা-নাগার বিচ্ছেদে কোনও মন্তব্য করেননি, গর্জন নাগার্জুনের ‘গুজব ছড়াবেন না!’

সামান্থা-নাগার বিচ্ছেদে কোনও মন্তব্য করেননি, গর্জন নাগার্জুনের ‘গুজব ছড়াবেন না!’

নাগা চৈতন্য এবং সামান্থার সঙ্গে নাগার্জুন।

 ২০২১ এর অক্টোবরে ঘর ভেঙেছে দক্ষিণী চলচ্চিত্রের অন্যতম আলোচিত জুটি সামান্থা আক্কিনেনি ও নাগা চৈতন্যর।

গত বছর অর্থাৎ ২০২১ এর অক্টোবরেই ঘর ভেঙেছে দক্ষিণী চলচ্চিত্রের অন্যতম আলোচিত জুটি সামান্থা আক্কিনেনি ও নাগা চৈতন্যর। নিজেদের বিচ্ছেদের খবর সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে ঘোষণা করেন এই প্রাক্তন জুটি। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এবং বেশ কিছু সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনেও প্রকাশ করা হয়েছিল সামান্থা প্রভুর জন্যই তাঁর ছেলে নাগার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে, এমনটাই নাকি দাবি করেছেন দক্ষিণী সুপারস্টার নাগার্জুন। এবার সেসব পুরোটাই যে গুজব তা নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করে সোশ্যাল মিডিয়ায় বিবৃতি দিলেন নাগার্জুন স্বয়ং!

টুইট করে তিনি লেখেন, 'সোশ্যাল মিডিয়ায় এবং বেশ কিছু সংবাদমাধ্যমে বলা হচ্ছে আমি নাকি সামান্থা এবং নাগা চৈতন্যের বিবাহবিচ্ছেদ নিয়ে মন্তব্য করেছি। এসব পুরোপুরি গুজব এবং ফালতু!' এখানেই না থেমে সংবাদমাধ্যমের উদ্দেশেও তাঁর বার্তা, 'আমার সাংবাদিক বন্ধুদের কাছে অনুরোধ তাঁরা যেন গুজবকে খবরের রূপ না দেন।' দক্ষিণী তারকার এই টুইট প্রকাশ্যে আসতেই মুহূর্তেই তা ভাইরাল হতে শুরু করেছে। পেতে শুরু করেছে সমর্থকদের সমর্থন।

প্রসঙ্গত, চার বছরের দাম্পত্য জীবনে ইতি টেনে, এবার ‘নিজেদের পথে চলতে’ চান দুজনে।ইনস্টাগ্রাম পোস্টে নাগার্জুন পুত্র লেখেন,‘অনেক আলোচনা এবং চিন্তাভাবনার পর আমি এবং স্যাম (সামান্থা) আলাদা হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এক দশকেরও বেশি সময় ধরে আমরা বন্ধু। আমি বিশ্বাস করি, সেই বন্ধুত্বই আমাদের মধ্যে এক বিশেষ সম্পর্ককে বাঁচিয়ে রাখবে। এই কঠিন সময়ে আশা করি আমাদের শুভানুধ্যায়ী, বন্ধু এবং সংবাদমাধ্যম আমাদের সমর্থন করবে এবং গোপনীয়তা বজায় রাখতে সাহায্য করবে। পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’

চৈতন্য এবং সামান্থা, যাঁদের ভক্তরা ‘Chay-Sam’ বলে ডাকতেন। অটোনগর সূর্য (২০১৪) ছবির শ্যুটিং চলাকালীন এক অপরের প্রেমে পড়েন তাঁরা। ২০১৭ সালের ৬ই অক্টোবর নাগা চৈতন্যের সঙ্গে বিয়ে হয় সামান্থার। গত বছর চতুর্থ বিবাহবার্ষিকীর ঠিক চারদিন আগেই বিয়ে ভাঙার ঘোষণা সারলেন দু'জনে।

বন্ধ করুন