বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > জয়া বচ্চনকে জড়িয়ে ছবি তুললেন নাতনি নভ্যা, অথচ নেটিজেনদের নজর কাড়ল এই জিনিসটি!
জয়া বচ্চনের সঙ্গে নভ্যা। (ছবি সৌজন্যে - হিন্দুস্তান টাইমস)
জয়া বচ্চনের সঙ্গে নভ্যা। (ছবি সৌজন্যে - হিন্দুস্তান টাইমস)

জয়া বচ্চনকে জড়িয়ে ছবি তুললেন নাতনি নভ্যা, অথচ নেটিজেনদের নজর কাড়ল এই জিনিসটি!

  • সোমবার ইনস্টাগ্রামে ফের একবার নিজের দিদা তথা বর্ষীয়ান বলি-অভিনেত্রী জয়া বচ্চনের সঙ্গে নিজের ছবি দিলেন শ্বেতা-কন্যা। ছবিতে দেখা যাচ্ছে হাসিমুখে পরস্পর পরস্পরকে জড়িয়ে ধরে বসে রয়েছেন দিদা-নাতনি।

আর পাঁচজন দাদু-দিদার সঙ্গে তাঁদের নাতনির যেমন ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক থাকে, একই ব্যাপার নভ্যা নভেলি নন্দার ক্ষেত্রেও। অমিতাভ এবং জয়া বচ্চনের বড় মেয়ে শ্বেতার কন্যা নভ্যা। সম্পর্কে অমিতাভ-জয়ার নাতনি সে। বিশেষ করে দিদা জয়া বচ্চনের সঙ্গে অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ সে। সোমবার ইনস্টাগ্রামে ফের একবার বর্ষীয়ান বলি-অভিনেত্রীর সঙ্গে নিজের ছবি দিলেন শ্বেতা-কন্যা। ছবিতে দেখা যাচ্ছে হাসিমুখে পরস্পর পরস্পরকে জড়িয়ে ধরে বসে রয়েছেন তাঁরা।

হলুদ রঙের চুড়িদারের সঙ্গে সাদা ওড়নায় বেশ স্নিগ্ধ লাগছে নভ্যাকে। অন্যদিকে, একগাল হাসি নিয়ে ফ্লোরাল প্রিন্টের পোশাক পরে বেশ ক্যাজুয়াল অবতারেই ধরা দিয়েছেন জয়া। ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে দু'জনের মুখেই ধরা পড়েছে বেশ চওড়া হাসি।ছবির ক্যাপশনে নভ্যা জুড়েছেন স্রেফ 'নানী' শব্দটি। বাংলায় যার তর্জমা করলে দাঁড়ায় 'দিদা'। তবে দিদা-নাতনি থাকা সত্বেও এই ছবিতে নেটিজেনদের নজর কেড়েছে দু'জনের পিছনে উঁকি ,মারা রুপোলি রঙের দুটি চেয়ার!

অমিতাভ-নাতনির এই ছবিতে বলিপাড়ার একাধিক চেনা মুখ প্রশংসা করার পাশাপাশি তারিফ করেছে নেটিজেনরাও। এক নেট নাগরিক তো বলেই ফেললেন তিনি নাকি জীবনে কোনওদিন জয়া বচ্চনকে এত মন খুলে হাসতে কোনও ছবিতে দেখেননি। আব্বার কেউ কেউ বলেছেন জয়া বচ্চনকে হাসতেই প্রথমবার দেখছেন তিনি। এবার ফেরা যাক সেই চেয়ার দু'টির প্রসঙ্গে। নেটিজেনদের কেউ কেউ  প্রশ্ন করেছেন জয়া-নভ্যার পিছনে যে দুটি রুপোলি রঙের চেয়ার দেখা যাচ্ছে, তাঁদের পায়াগুলো কি রূপো দিয়ে বাঁধাই করা?

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগে এক সাক্ষাৎকারে নভ্যা জানিয়েছিলেন তাঁর দিদাকেই তিনি নিজের জীবনের অনুপ্রেরণা হিসেবে মেনে চলেন।জোয়ার কাছে যে তিনি নিজের প্রায় সব ব্যাপারেই সব ব্যাপারেই পরামর্শ চান সেকথা বলতেও এতটুকুও কুন্ঠা বোধ করেননি শ্বেতা-কন্যা। জানিয়েছিলেন যেভাবে জয়া বিভিন্ন বিষয়ে নিজের সুচিন্তিত মন্তব্য একটুও ভয় না পেয়ে দৃপ্ত গলায় বলে ওঠেন, সেই বিষয়টি বড্ড ভালো লাগে তাঁর। জানিয়ে রাখা ভালো, সোশ্যাল মিডিয়ায় দারুণ জনপ্রিয় হওয়া সত্বেও বি টাউনে অভিনয় করার একটুও ইচ্ছে নেই তাঁর। নিজের মুখেই সেকথা জানিয়েছেন তিনি। ইতিমধ্যেই বাবা নিখিল নন্দার বিরাট ব্যবসা সামলানোর দায়িত্ব নিজের কাঁধে তুলে নিয়েছেন নভ্যা।

বন্ধ করুন