বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > প্রতি বছরই আসেন কলকাতায়! সুন্দরবন বেড়াতে যাওয়ার ইচ্ছে প্রকাশ পঙ্কজ ত্রিপাঠীর
‘শেরদিল’-এ বাঘের সঙ্গে লড়াই করেছেন পঙ্কজ ত্রিপাঠী

প্রতি বছরই আসেন কলকাতায়! সুন্দরবন বেড়াতে যাওয়ার ইচ্ছে প্রকাশ পঙ্কজ ত্রিপাঠীর

  • প্রতি বছর দুর্গাপুজো কলকাতাতেই কাটে পঙ্কজ ত্রিপাঠীর। বন্যপ্রাণ সংরক্ষণের জন্য বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সঙ্গে কাজ করেছেন। 

পঙ্কজ ত্রিপাঠী অভিনীত ছবি ‘শেরদিল: দ্য পিলিভিট সাগা’। পরিচালনায় বলিউড পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ্যায়। মানুষ ও প্রকৃতির দ্বন্দ্বের গল্প বলেছে এই ছবি। পিলভিট টাইগার রিজার্ভের মানুষদের জীবনের বাস্তব সমস্যা অবলম্বনে তৈরি এর চিত্রনাট্য।

‘শেরদিল: দ্য পিলিভিট সাগা’ ছবিতে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করছেন পঙ্কজ ত্রিপাঠী। ছবিতে পঙ্কজের সঙ্গে সায়নি গুপ্তাকে একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা গিয়েছে। রয়েছেন অভিনেতা নীরজ কবিও। বাঘের খপ্পড়ে পড়ার গল্প উঠে এসেছে ছবির চিত্রনাট্যের মাধ্যমে। ছবিতে এক সাধারণ গ্রামের মানুষের চরিত্রে পঙ্কজ। নিজে একজন প্রকৃতিপ্রেমী তিনি। বন্যপ্রাণ সংরক্ষণের জন্য বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সঙ্গে কাজ করেছেন। আরও পড়ুন: অভিনয়ে ‘কাঁচা বাদাম’ খ্যাত ভুবন বাবু! প্রকাশ্যে ‘খোকাবাবু খেলাঘর’এর পোস্টার

পঙ্কজের স্ত্রী কলকাতার মেয়ে। ভবানীপুরে আত্মীয়ের বাড়ি রয়েছে। প্রতি বছর দুর্গাপুজো কলকাতায় কাটান তিনি। তবে এতবার কলকাতায় এলেও, এখনও সুন্দরবনে যেতে পারেননি পঙ্কজ। সুযোগ পেলেই সপরিবারে বেড়াতে যেতে চান ম্যানগ্রোভের অঞ্চলে। 

ছবির পাশাপাশি ওটিটিতেও সমানতালে কাজ করছেন পঙ্কজ ত্রিপাঠী। ইউপি-নেপাল বর্ডারের টাইগার রিজার্ভ পিলিভিটের পাশের গ্রামের বাসিন্দা গঙ্গারাম। সৃজিতের ছবিতে এই চরিত্রে দেখা মিলবে তাঁর। টাইগার রিজার্ভের কাছে বাঘের হামলায় মৃত্যু হলে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার সরকারি নিয়ম রয়েছে। কিন্তু তা থেকে বঞ্চিতই থেকে যায় গ্রামের মানুষ। সরকারের থেকে টাকা চাই। তাই গ্রামের ২০০ মানুষের জন্য বাঘের মুখে প্রাণ দিতে রাজি পঙ্কজ।

নেপাল সীমান্তে ৬০২ কিমি অঞ্চলজুড়ে এক ব্র্যঘ্র প্রকল্প রয়েছে। যেখানে বাঘের সংখ্যা প্রায় ৫০-এর বেশি। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী, জঙ্গলের বাইরে বাঘের আক্রমণে কোনও এলাকাবাসী মারা গেলে, মৃতের পরিবার ১০ লক্ষ টাকা করে পাবে। সেই টাকার আশাতেই নাকি বহু দুঃস্থ পরিবার তাঁদের বৃদ্ধ কিংবা অসহায় কোনও পরিবারের সদস্যকে জঙ্গলে ছেড়ে আসত।

পেটের দায়ে মানুষ কতটা নিষ্ঠুর হতে পারে, মানুষ ও প্রকৃতির দ্বন্দ্ব এসব আবর্তিত হয়ে এগোবে ছবির গল্প। ডুয়ার্সের জঙ্গল, গরুমারা ন্যাশনাল পার্ক, লাটাগুড়ির বিভিন্ন অঞ্চলে হয়েছে ‘শেরদিল'-এর শ্যুটিং। ২২ জুন সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে এই ছবি।

বন্ধ করুন