বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Rachana Banerjee: ‘শাড়ির ব্যবসা করা কি খারাপ?' অনলাইনে শাড়ি বেচে ট্রোলড, সপাট জবাব রচনার
জবাব দিলেন রচনা 
জবাব দিলেন রচনা 

Rachana Banerjee: ‘শাড়ির ব্যবসা করা কি খারাপ?' অনলাইনে শাড়ি বেচে ট্রোলড, সপাট জবাব রচনার

  • সদ্যই নিজের বুটিক খুলেছেন রচনা বন্দ্যোপাধ্যায়। ট্রোলিংয়ের জবাব দিলেন ‘দিদি নম্বর ১’-এর হোস্ট। 

বাংলার দুই দিদি, একজন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং অন্যজন ‘দিদি নম্বর ১’ রচনা বন্দ্যোপাধ্যায়। পুজোর আগে নিজের ফ্যাশন কালেকশন লঞ্চ করেছেন রচনা। সোজাভাবে বললে, রচনা'স ক্রিয়েশনের মাধ্যমে অনলাইনে শাড়ি বিক্রি করছেন অভিনেত্রী। ফেসবুক লাইভে এসে শাড়ি বিক্রির জন্য ব্যাপক ট্রোলড হয়েছেন রচনা। পাশাপাশি ছোট ছোট শাড়ি বিক্রেতা দিদিরাও বেশ অখুশি। নিজের জনপ্রিয়তার জোরে এই ব্যবসায় রচনার হু হু গতিতে এগিয়ে যাবেন, আক্ষেপ তাঁদের। এই সব সমালোচনার জবাব দিলেন খোদ রচনা।

রচনাকে ট্রোল করে অনেকে বলছেন, ‘ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ পাচ্ছেন না তাই বাধ্য হয়ে শাড়ি বিক্রি করতে বসেছেন রচনা’, কেউ আবার এমনও বলছেন-এই একই শাড়ি গড়িয়াহাটেও অনেক সস্তায় পাওয়া যায় রচনা’স ক্রিয়েশন থেকে কিনবেন কেন? কেউ কেউ আবার বলছে, সেলেব্রিটিরা বুটিক খুলে বসলে, যাঁরা ছোট ব্যবসায়ী তাঁদের ক্ষতি হয়ে যাবে।

সোমবার ফেসবুক লাইভে শাড়ি প্রদর্শন করবার আগে হাসিমুখে কটাক্ষের জবাব দিলেন রচনা। তিনি বললেন, অনেকেই হয়তো দুঃখ পেয়েছে আমি শাড়ি বিক্রি করছি দেখে। তবে তাদের জন্য বলব, রচনা পথপ্রদর্শক। শাড়ি বিক্রি করা কোনও ছোট কাজ নয়, আপনারাই বলুন না,‘শাড়ির ব্যবসা করা কি খারাপ? '। রচনা আরও বলেন, 'আমার থেকেই সবই নেবে এমন কোনও ব্যাপার নেই তাই যাঁরা শঙ্কিত হচ্ছেন তাঁদের ভয় পাওয়ার কারণ নেই'।

রচনা একা নন, তার আগেই অভিনেত্রী-সঞ্চালক সুদীপা বন্দ্যোপাধ্যায়ও নিজের বুটিক খুলেছেন। গায়িকা লোপামুদ্রা মিত্রের নিজস্ব বুটিক রয়েছে। ‘দিদি নম্বর ওয়ান’-এ রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে প্রতিযোগীরা এসে তাঁদের লড়াইয়ের গল্প শোনান। বরাবরই সকলকে সাহস জুগিয়ে চলেন রচনা। আদ্যোপান্ত পজিটিভ মানুষ রচনার ব্যক্তিগত জীবনেও কম ঝড় আসেনি। একার হাতে সংসার-সন্তান-কেরিয়ার, সবটা সামলাচ্ছেন তিনি।

বন্ধ করুন