বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > জিৎ-দেব'কে ফের খোঁচা;‘রাবণ’,‘কিশমিশ’-এর বক্স অফিস রিপোর্ট দিলেন রাণা সরকার!
এগিয়ে রয়েছেন দেব, বলছে রাণার পরিসংখ্যান
এগিয়ে রয়েছেন দেব, বলছে রাণার পরিসংখ্যান

জিৎ-দেব'কে ফের খোঁচা;‘রাবণ’,‘কিশমিশ’-এর বক্স অফিস রিপোর্ট দিলেন রাণা সরকার!

  • ‘কিশমিশ’ সামান্য এগিয়ে ‘রাবণ’-এর চেয়ে। তবে বাংলার দুই সুপারস্টারের ছবির পাশে কি দাঁড়ালো বাঙালি দর্শক, প্রশ্ন প্রযোজক রাণা সরকারের। 

ইদে রিলিজ হওয়া দুটো বাংলা ছবি কত টাকা আয় করল? দেব না জিৎ, বক্স অফিসের লড়াইয়ে কে এগিয়ে?  এই প্রশ্ন নিশ্চয় মাথায় এসেছে আপনাদেরও। তবে আফসোসের বিষয় হল টলিউডে কোনও ট্রেড গুরু নেই, তাই নিয়মিত ছবির কালেকশনের ফিগার জানবার জো নেই! প্রযোজনা সংস্থাগুলি তাদের ছবির কালেকশন প্রকাশ্যে আনে মাঝেমধ্যে, সেই যা ভরসা। 

সুপারস্টার দেব ও জিৎ-এর দ্বৈরথ নিয়ে চর্চার শেষ নেই। একদিনে মুক্তি পেয়েছিল দেবের ‘কিশমিশ’ ও জিতের ‘রাবণ’, মুক্তির পর প্রায় দু-সপ্তাহ অতিক্রান্ত, কতটা লক্ষ্মী এল ঘরে? সেই প্রশ্নের উত্তর দেননি প্রযোজক-অভিনেতা দেব বা জিৎ, তবে এবার সেই উত্তর দিলেন প্রযোজক রাণা সরকার। কিন্তু তাঁর গলায় কেমন যেন কটাক্ষের সুর! 

দু-দিন আগেই এই প্রযোজক জানিয়েছিলেন বাংলা ছবির পাশে দাঁড়ানোর যে রব উঠেছে তা সফল তখনই হবে যখন ছবিগুলির ব্যবসার অঙ্ক প্রকাশ্যে আনা হবে। সেইমতো দেব,জিৎ-কে সচেতনও করেছিলেন প্রযোজক, কিন্তু উলটো দিক থেকে জবাব না আসায় এদিন নিজের উদ্যোগে সংগ্রহীত বক্স অফিস কালেকশ ফাঁস করলেন রাণা।

রাণা সরকারের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, প্রথম দশদিনে কিশমিশ ব্যবসা করেছে ১.২৩ কোটি টাকা, সামন্য পিছিয়ে রাবণ-এর টিকিট বিক্রি হয়েছে ১.০৭ কোটি টাকার। তিনি সঙ্গে যোগ করেন, ‘এই দুটো সিনেমারই লাইফটাইম বক্স অফিস কালেকশন সর্বাধিক ২কোটি হতে পারে; এর বাইরে স্যাটেলাইট/ডিজিটাল রাইট , মিউজিক রাইট এর টাকা আসবে কিন্তু সেগুলোকে বক্স অফিস সাফল্য বলা যাবে না’।

রাণা সরকার আরও জানান, এই তথ্য একটু কম বেশি হতে পারে, তবে ১০%-এর বেশি এদিক-ওদিক হবে না। যদি তাঁর তথ্য এর চেয়ে বেশি ভুল হয়, এবং সেই প্রমাণ ছবির প্রযোজকরা পেশ করেন, তাহলে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে রাজি তিনি, এমনটাও ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন। 

তবে ‘কিশমিশ’ আর ‘রাবণ’ হিট না ফ্লপ সেই তর্কে যেতে না-রাজ রাণা সরকার।  তাঁর বক্তব্য, ‘কোন ছবির কত বাজেট সেটা প্রযোজক ছাড়া কেউ বলতে পারেনা , বক্স অফিস কালেকশন বিভিন্ন সিনেমা হল থেকে জোগাড় করা যায় , তাই কোন সিনেমার কত বাজেট সেটা আমার পক্ষে দেওয়া সম্ভব না। এবার বিচার করুন দর্শক কতটা বাংলা সিনেমার পাশে দাঁড়ালেন। ছবি দুটো যে হিট কি হিট না সেটা বোঝার কোনো মাপকাঠি নেই , তাই আমি সেই প্রশ্নে যাচ্ছি না , হিট বলেই ধরে নিচ্ছি’।

রাণা সরকারের এই পোস্ট ঘিরে হইচই টলিপাড়ায়। নেটিজেনদের অনেকেই এই পোস্টকে সমর্থন করছেন, আবার দুই সুপারস্টারের ভক্তরা আক্রমণও শাণাচ্ছেন রাণা সরকারের দিকে।  গালিগালাজ শুনতে অবশ্য আগে থেকেই তৈরি প্রযোজক, তাই তো পোস্টের শেষে জুড়ে দিয়েছেন- ‘আসুন খিস্তি করা শুরু করুন ,আস্তে আস্তে একে একে আসুন , তাড়াহুড়ো করবেন না , আর বাংলাভাষাকে সম্মান করে বানান ঠিক লিখুন’।

 

বন্ধ করুন